সামাররা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
Samarra
سامَرّاء
City
সামাররা
সামাররায় দুই শিয়া ইমামের মাজার
Samarra ইরাক-এ অবস্থিত
Samarra
Samarra
স্থানাঙ্ক: ৩৪°১১′৫৪″ উত্তর ৪৩°৫২′২৭″ পূর্ব / ৩৪.১৯৮৩৩° উত্তর ৪৩.৮৭৪১৭° পূর্ব / 34.19833; 43.87417
Country  Iraq
ইরাকের প্রদেশ সালাহউদ্দিন প্রদেশ
জনসংখ্যা (2003 est)
 • মোট ৩,৪৮,৭০০
প্রাতিষ্ঠানিক নাম সামাররা প্রত্নতাত্ত্বিক শহর
ধরন Cultural
মানক ii, iii, iv
অন্তর্ভুক্তির তারিখ 2007 (33rd session)
রেফারেন্স নং 276
State Party  ইরাক
Region Arab States
Endangered 2007–present

সামাররা (আরবি: سامَرّاء‎‎) হচ্ছে ইরাকের একটি শহর। বাগদাদের ১২৫ কিলোমিটার (৭৮ মা) উত্তরে সালাহউদ্দিন প্রদেশে টাইগ্রিস নদীর পূর্ব পাড়ে অবস্থিত। ২০০৩ সালে শহরের আনুমানিক জনসংখ্যা ছিলো ৩৪৮,৭০০ জন। ইরাকে সাম্প্রদায়িক সহিংসতা চলাকালে (২০০৬-০৭) "সুন্নি ত্রিভুজ" সহিংসতার শিকার হয়। মধ্যযুগে সামাররা ছিলো আব্বাসীয় খিলাফতের রাজধানী এবং একমাত্র ইসলামী রাজধানী যা তার আদি পরিকল্পনা, স্থাপত্য এবং শৈল্পিক রেলিক ধরে রেখেছে।[১] ২০০৭ সালে ইউনেস্কো সামাররাকে বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থান তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করে।[২]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

প্রাচীন সামাররা[সম্পাদনা]

নারী ভাস্কর্য, সামাররা, ৬০০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দ
বার্লিনের পারগ্যামন জাদুঘরে সামাররা গামলা। কেন্দ্রের স্বস্তিকা চিহ্নের নকশা সংস্কারকৃত।[৩]
চীনাদের তৈরী স্যাংকাই মৃৎ ফলক, ৯ম-১০ম শতক, সামাররাতে প্রাপ্ত ইসলামী মৃৎশিল্পে চৈনিক প্রভাবের উদাহরণ।

জার্মান প্রত্নতত্ত্ববিদ আর্নেস্ট হার্জফেল্ড ১৯১১ থেকে ১৯১৪ সালের মধ্যে সর্বপ্রথম প্রাগৈতিহাসিক সামারায় ধ্বংসাবশেষ খনন করেন। সামারা সামারা সংস্কৃতির আদর্শ সাইট হিসেবে গড়ে ওঠে। ১৯৪৬ সাল থেকে ওয়াশিংটনডিসির ফ্রেয়ার গ্যালারি অভ আর্টে নোটবুক, চিঠি, অপ্রকাশিত খনন রিপোর্ট এবং ছবি ইত্যাদি প্রদর্শন করা হচ্ছে।

এই সভ্যতা নিকট প্রাচ্যের প্রথম নগর রাজ্য উবাইদ যুগের পাশাপাশি বেড়ে উঠতে থাকে। এটা ৫৫০০ খ্রিষ্টপূর্বাব্দে শেষ হয় এবং ৩৯০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দে ধ্বসে পড়ে।

জনপ্রিয় সংস্কৃতিতে সামাররা[সম্পাদনা]

একটি রূপক আছে সামারাতে পরোয়ানা পাওয়া হচ্ছে মৃত্যুর সমান, একটি প্রাচীন ব্যবলনীয় মিথের সংগে সম্পর্কিত,[৪] অনুবাদিত বর্ণনা করেছেন উইলিয়াম সমারসেট মম্,[৫] যেখানে মৃত্যু ভাষ্যকার এবং কেন্দ্রীয় চরিত্র উভয়ই।[৬]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. UNESCO, Samarra Archaeological City, http://whc.unesco.org/en/list/276
  2. "Unesco names World Heritage sites"BBC News। ২০০৭-০৬-২৮। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-২৩ 
  3. Stanley A. Freed, Research Pitfalls as a Result of the Restoration of Museum Specimens, Annals of the New York Academy of Sciences, Volume 376, The Research Potential of Anthropological Museum Collections pages 229–245, December 1981.
  4. This is recorded in the Babylonian Talmud, Sukkah 53a.
  5. "The Appointment in Samarra" (as retold by W. Somerset Maugham [1933]).
  6. John O'Hara, Appointment in Samarra, Harcourt, Brace & Co., 1934.