ম্যাসিডনের দ্বিতীয় পেরদিক্কাস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Jump to navigation Jump to search
দ্বিতীয় পেরদিক্কাস
ম্যাসিডনের রাজা
দ্বিতীয় পেরদিক্কাসের রৌপ্যমুদ্রা
রাজত্বকাল ৪৪৮-৪১৩ খ্রিস্টপূর্বাব্দ
পূর্বসূরি দ্বিতীয় আলকেতাস
উত্তরসূরি প্রথম আর্কেলাওস
সন্তানাদি প্রথম আর্কেলাওস
রাজবংশ আর্গিয়াদ
পিতা প্রথম আলেকজান্ডার
ধর্মবিশ্বাস প্রাচীন গ্রিক ধর্ম

দ্বিতীয় পেরদিক্কাস (গ্রিক: Περδίκκας) ম্যাসিডন শাসনকারী আর্গিয়াদ রাজবংশের দ্বাদশ রাজা ছিলেন।

সিংহাসনলাভ[সম্পাদনা]

৪৪৮ খ্রিস্টপূর্বাব্দে দ্বিতীয় পেরদিক্কাসের পুত্র প্রথম আর্কেলাওস আর্গিয়াদ রাজবংশের একাদশ রাজা ও দ্বিতীয় পেরদিক্কাসের জ্যেষ্ঠ ভ্রাতা দ্বিতীয় আলকেতাসকে হত্যা করেন। এর ফলে পরবর্তী শাসক হিসেবে দ্বিতীয় পেরদিক্কাস ম্যাসিডনের সিংহাসনে আরোহণ করেন।[১][২]

এথেন্সের সঙ্গে বিবাদ[সম্পাদনা]

৪৩৪ খ্রিস্টপূর্বাব্দে দ্বিতীয় পেরদিক্কাসের কনিষ্ঠ ভ্রাতা ফিলিপ এথেন্সের সমর্থন লাভ করে ম্যাসিডনের সিংহাসনের দাবী জানাতে থাকেন। এথেন্সের ওপর প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য পতিদিয়া সহ এথেন্সের বেশ কিছু সামন্ত শহরের অধিবনাসীদের মধ্যে বিদ্রোহের সূচনা করেন। এর প্রত্যুত্তরে এথেন্স ম্যাসিডনের বিরুদ্ধে ১০০০ জন সৈন্য ও ৩০টি রণতরী প্রেরণ করে থের্মা শহরটি দখল করে নেয়। তাঁরা আরো ২০০০ জন সৈন্য ও ৪০টি রণতরী নিয়ে পুদনা শহরটি দখল করতে গেলে করিন্থ শহর থেকে ২০০০ জন সৈন্যের একটি দল পতিদিয়া আক্রমণের উদ্দেশ্যে রওনা হয়। এই নতুন বিপদ থেকে উদ্ধার পেতে এথেন্স দ্বিতীয় পেরদিক্কাসের সঙ্গে মৈত্রীচুক্তিতে আবদ্ধ হতে বাধ্য হয়, কিন্তু পেরদিক্কাস দ্রুত এই চুক্তি ভেঙে পতিদিয়ার দিকে যাত্রা করেন। যাই হোক, এই যুদ্ধে এথেন্স জয়লাভ করে এবং পরবর্তী বছরগুলিতে ম্যাসিডন গ্রিক শহরগুলির মধ্যে সংগঠিত পেলোপোনেসীয় যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ে।

৪৩১ খ্রিস্টপূর্বাব্দে নিম্ফোদোরাস নামক একজন এথেনীয় নারী থ্রেসের রাজা সিতালকেসের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হলে থ্রেসএথেন্স পরস্পরের সঙ্গে মৈত্রীচুক্তিতে আবদ্ধ হয়। নিম্ফোদোরাসের মধ্যস্থতায় এথেন্স ও দ্বিতীয় পেরদিক্কাসের মধ্যে চুক্তি সম্পাদিত হয়। এর ফলে থের্মা পুনরায় ম্যাসিডনের অন্তর্ভুক্ত হয়, ফিলিপের ওপর থেকে এথেন্স তাঁদের সমর্থন সরিয়ে দেয় এবং থ্রেস ফিলিপকে গ্রেপ্তার করার জন্য তাদের সহায়তার প্রতিশ্রুতি দেয়।

৪২৯ খ্রিস্টপূর্বাব্দে এথেন্সের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করে দ্বিতীয় পেরদিক্কাস আকার্নানিয়া অঞ্চলের ওপর স্পার্টার আক্রমণের সমর্থনে ১০০০ জন সৈন্য পাঠান। এই বিশ্বাসভঙ্গের প্রতিশোধ নিতে সিতালকেস ম্যাসিডন আক্রমণ করেন। সিতালকেসের সমর্থনে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ এথেনীয়রা এগিয়ে না আসায় দ্বিতীয় পেরদিক্কাস সেই সুযোগ গ্রহণ করে কূটনীতির সাহায্যে এই বিবাদের নিষ্পত্তি করেন। তিনি তাঁর ভগ্নীর সঙ্গে সিতালকেসের ভ্রাতুষ্পুত্রের বিবাহের প্রতিশ্রুতি দিলে থ্রেসের বাহিনী ম্যাসিডন থেকে চলে যায়।

এরপর দ্বিতীয় পেরদিক্কাস স্পার্টার সঙ্গে মিত্রতা সূত্রে আবদ্ধ হন এবং ৪২৪ খ্রিস্টপূর্বাব্দে এথেন্সের অধিকার থেকে আম্ফিপোলিস শহরটিকে কেড়ে নিতে স্পার্টার সেনানায়ক ব্রাসিদাস্কে সহায়তা করেন। এরফলে এথেন্সের সমর ও অর্থনীতি প্রচণ্ড ভাবে ধাক্কা খায় কারণ এই শহর থেকে তাঁদের রণতরীর জন্য প্রয়োজনীয় কাঠের সরবরাহ হত। এই সুযোগে ম্যাসিডোনিয়রা পরবর্তী কয়েক বছর ধরে তাঁদের চড়া দামে কাঠ বিক্রি করার সুযোগ পায়। এর পরিবর্তে স্পার্টা লুঙ্কেস্তিসের রাজা আররাবাইওসের বিরুদ্ধে আক্রমণ করে ম্যাসিডনের সীমান্ত সুরক্ষিত করার চেষ্টা করে। এই যুদ্ধে ইলিরিয়রা প্রথমে পেরদিক্কাসকে সমর্থনের কথা বললেও পরে অবস্থান বদল করে তাঁদের বিরুদ্ধে আক্রমণ করলে ম্যাসিডোনিয় সেনা স্পার্টার সৈন্যদের ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। স্পার্টার বাহিনী ধীরে ধীরে পশ্চাদপসারণ করে ঠিকই, কিন্তু এই ঘটনায় ম্যাসিডন ও স্পার্টার মধ্যে সম্পর্কের অবনতি ঘটে। ফলে দ্বিতীয় পেরদিক্কাস ৪২৩ খ্রিস্টপূর্বাব্দে পুনরায় এথেন্সের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক তৈরী করতে বাধ্য হন।

৪১৭ খ্রিস্টপূর্বাব্দে দ্বিতীয় পেরদিক্কাস পুনরায় এথেন্সের সঙ্গ ত্যাগ করে স্পার্টার সঙ্গে মিত্রতা করে, কিন্তু চার বছরের মধ্যেই এথেন্সের চাপে তিনি এই সম্পর্ক ত্যাগ করে এথেন্সকে আম্ফিপোলিস শহর আক্রমণে সহায়তা করেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Plato's Gorgias (Translated by Benjamin Jowett) - The Internet Classics Archive
  2. Paul Lachlan Mackendrick (১৯৮০), The North African Stones Speak, UNC Press, আইএসবিএন 0-8078-4942-1 
ম্যাসিডনের দ্বিতীয় পেরদিক্কাস
রাজত্বকাল শিরোনাম
পূর্বসূরী
দ্বিতীয় আলকেতাস
ম্যাসিডনের রাজা
৪৪৮-৪১৩ খ্রিস্টপূর্বাব্দ
উত্তরসূরী
প্রথম আর্কেলাওস