ভেঁপু

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

ভেঁপু বলতে মোটরযান, বাস, সাইকেল, রেলগাড়ি, ট্রামগাড়ি এবং অন্যান্য ধরনের যানবাহনে স্থাপিত এক ধরনের সতর্ক-সঙ্কেতসূচক শব্দ সৃষ্টিকারী যন্ত্রকে বোঝায়। যন্ত্রটি "প্যাঁ-পোঁ", "পিপ-পিপ", "পপ-পপ", "গোঁ-গোঁ", "ভোঁ", ইত্যাদি শব্দ করে থাকে। একে ইংরেজিতে "হর্ন" বলা হয়। যানচালক ভেঁপু (হর্ন) ব্যবহার করে অন্যান্য চালকদেরকে বা পথচারীদেরকে গাড়ির অবস্থিতি বা নিকটবর্তী হবার ব্যাপারে সতর্ক করে দেন, কিংবা অন্য কোনও বিপদ বা ঝুঁকির ব্যাপারে দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। বেশির ভাগ দেশে মোটরযান, জাহাজ ও রেলগাড়িতে ভেঁপু স্থাপন করা ও সতর্কতার প্রয়োজনে এর ব্যবহার আইনগতভাবে বাধ্যতামূলক। সাইকেলে বা রিকশায় ভেঁপুর পরিবর্তে অন্য ধরনের শ্রবণযোগ্য সতর্কতামূলক শব্দসৃষ্টিকারী যন্ত্র, যেমন ঘণ্টার ব্যবহার বাধ্যতামূলক।

উন্নত দেশগুলিতে যত্রতত্র যখন তখন ভেঁপু (হর্ন) বাজানো নিষেধ ও সাধারণত কাজটিকে প্রবলভাবে নিরুৎসাহিত করা হয়, এবং এর পরিবর্তে পার্শ্বদর্শী দর্পণ (side view mirror) বা পশ্চাতদর্শী দর্পণ (rear view mirror) ব্যবহার করার ব্যাপারে জোর দেওয়া হয়। কেবলমাত্র সড়কের নিরাপত্তা বজায় রাখার স্বার্থে ভেঁপু বাজানো আইনগতভাবে সিদ্ধ। এর বাইরে অন্য যেকোনও কারণে যেমন বিরক্তি প্রকাশের জন্য ভেঁপু বাজানোকে অত্যন্ত খারাপ চোখে দেখা হয়। গভীর রাতে ভেঁপু বাজানো অনেক দেশে নিষেধ। এছাড়া এসব দেশে গাড়ি থেমে থাকা অবস্থায় ভেঁপু বাজানো আইনত নিষেধ। হাসপাতাল এলাকাতেও সাধারণত জোরে ভেঁপু বাজাতে নিরুৎসাহিত করা হয়।

গাঠনিকভাবে ভেঁপু (হর্ন) একটি সরল বিদ্যুৎচালিত যন্ত্র যাতে বিদ্যুৎচুম্বকীয় কুণ্ডলী ও স্প্রিং ব্যবহার করে একটি গোল চ্যাপ্টা পাতলা ধাতব পর্দাতে কম্পন সৃষ্টি করে নির্দিষ্ট কম্পাঙ্কের শব্দ সৃষ্টি করা হয় এবং সেটিকে চোঙের মাধ্যমে বিবর্ধিত করা হয়। সাধারণত যানবাহন আকারে যত বড় হয়, তার ভেঁপুর শব্দ ততো নিচুস্বরের (নিম্ন কম্পাঙ্কের) ও গভীর করে প্রস্তুত করা হয়ে থাকে। ফলে শ্রোতা ভেঁপুর শব্দ শুনে যানবাহনের আকার অনুমান করতে পারে।