পূর্ব গোলার্ধ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
পূর্ব গোলার্ধ

পূর্ব গোলার্ধ পৃথিবীর অর্ধেক অংশকে বোঝানোর জন্য একটি ভৌগোলিক পরিভাষা যা মূল মধ্যরেখার পূর্বে (যা অতিক্রম করে গ্রীনিচ, ইংল্যান্ড, যুক্তরাজ্য) এবং ১৮০° দ্রাঘিমাংশের পশ্চিমে।[১] এটি ইউরোপ, এশিয়া, আফ্রিকা, এবং অস্ট্রেলিয়াকে নির্দেশ করে, vis-à-vis পশ্চিম গোলার্ধ, যেখানে আমেরিকা অঞ্চল অন্তর্ভুক্ত। এই গোলার্ধকে "পূর্বদেশীয় গোলার্ধ" বলা হয়। উপরন্তু, এটা 'প্রাচীন বিশ্বের' জন্য একটি প্রতিশব্দ হিসেবে একটি সাংস্কৃতিক বা ভূ-রাজনৈতিক অর্থে ব্যবহার করা যেতে পারে।

পূর্ব ও পশ্চিম গোলার্ধের সীমানা নির্দেশকারী রেখা অবাধ প্রচলিত রীতি, বিষুবরেখার (পৃথিবীকে পরিবেষ্টিত করা একটি কল্পিত রেখা, মেরু থেকে সমদূরবর্তী) মত নয় যা উত্তর এবং দক্ষিণ গোলার্ধকে বিভক্ত করে। ০° দ্রাঘিমাংশ মূল মধ্যরেখায় এবং ১৮০° দ্রাঘিমাংশ বিপরীত মধ্যরেখায় প্রচলিতভাবে স্বীকৃত সীমানা, যখন থেকে তারা পশ্চিম দ্রাঘিমাংশ থেকে পূর্ব দ্রাঘিমাংশে বিভক্ত। এই প্রথা ওয়াশিংটন, ডি.সি.তে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক মধ্যরেখা সম্মেলনে ১৮৮৪ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়, কানাডীয় রেলপথ প্রকৌশলী স্যার স্যান্ডফোর্ড ফ্লেমিং মান সময়ের ধারণা গৃহীত হয়। এই সীমানা নির্ধারণ পশ্চিম ইউরোপের কিছু অংশ, আফ্রিকা ও পূর্ব রাশিয়াকে পশ্চিম গোলার্ধে রাখে, যখন ইউরেশিয়ার সব ও আফ্রিকাকে সাধারণত পূর্ব গোলার্ধে অন্তর্ভুক্ত করা হয়।ব্যবহার করে.

ফলস্বরূপ, ২০°প এবং সম্পূর্ণভাবে বিপরীত ১৬০°পূ মধ্যরেখা প্রায়ই ব্যবহৃত হয়,[২][৩] যেখানে ইউরোপীয় এবং আফ্রিকার মূল ভূখন্ড অন্তর্ভুক্ত, আরোও অন্তর্ভুক্ত গ্রিনল্যান্ডের উত্তরপূর্বের একটি ছোট অংশ (সাধারণত উত্তর আমেরিকার অংশ হিসেবে শ্রেণীভুক্ত করা হয়) এবং অধিকাংশ পূর্ব রাশিয়া ও ওশেনিয়াকে (যেমন,নিউজিল্যান্ড) বাদ দেয়া হয়। আন্তর্জাতিক মান সময় গ্রহণের আগে, অনেক মূল মধ্যরেখা বিভিন্ন দেশ দ্বারা স্থিরীকৃত হয়, যেখানে স্থানীয় দুপুর (যার ফলে, স্থানীয় মধ্যরেখা) দ্বারা সময়কে সংজ্ঞায়িত করা হয়। পূর্ব গোলার্ধের ভূমির আয়তন পশ্চিম গোলার্ধের চেয়ে বড় এবং বিভিন্ন ধরনের প্রজাতির আবাসস্থল।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Latitude and Longitude at britannica.com, accessed 2008-05-24
  2. Olson, Judy M. "Projecting the hemisphere", ch. 4 from Matching the map projection to the need; Robinson, Arthur H. & Snyder, John P., eds. 1997. Bethesda, MD: Cartography and Geographic Information Society, American Congress on Surveying and Mapping.
  3. "Eastern Hemisphere". Merriam-Webster's Geographical Dictionary, 3rd ed. 2001. Springfield, MA: Merriam-Webster, Inc., p. 340.