পল ম্যাকগ্রাথ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
পল ম্যাকগ্রাথ
McGrath, Paul.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
উচ্চতা ১.৮৪ মি (৬' ০")
মাঠে অবস্থান ডিফেন্ডার
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব
অবসর গ্রহণ করেছেন
যুব পর্যায়
পিয়ার্স রোভারস
ড্যালকি ইউনাইটেড
জ্যেষ্ঠ পর্যায়*
সাল দল ম্যাচ (গোল)
১৯৮১-১৯৮২
১৯৮২-১৯৮৯
১৯৮৯-১৯৯৬
১৯৯৬-১৯৯৭
১৯৯৭-১৯৯৮
সেইন্ট প্যাট্রিক এথলেটিক
ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড
এস্টন ভিলা
ডার্বি কাউন্টি
শেফিল্ড ইউনাইটেড
00? (?)
১৬৩ (১২)
২৫২ (৯)
0২৪ (০)
00৭ (০)
জাতীয় দল
১৯৮৫-১৯৯৭ Ireland 0৮৩ (৮)
* শুধুমাত্র ঘরোয়া লীগে ক্লাবের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা গণনা করা হয়েছে

পল ম্যাকগ্রাথ (জন্ম ডিসেম্বর ৪, ১৯৫৯, লন্ডন, ইংল্যান্ড) একজন সাবেক আন্তর্জাতিক ফুটবল খেলোয়াড়, যিনি ডিফেন্ডার হিসেবে জাতীয় পর্যায়ে প্রজাতন্ত্রী আয়ারল্যান্ড দলে খেলেছেন। তিনিই প্রথম মিশ্র রক্তের আইরিশ ফুটবল তারকা।.

জীবনী[সম্পাদনা]

ম্যাকগ্রাথ আইরিশ মা এবং নাইজেরীয় পিতার সন্তান।[১] লেখক ডোনাল্ড ম্যাকরের মতে ম্যাকগ্রাথ গর্ভে আসার পর তার পিতা লাপাত্তা হয়ে যান। তার চার সপ্তাহ বয়সে তার মা তাকে দত্তক দেন। তার মা তিনি যে গর্ভবতী তা তার স্বামীর কাছ থেকে লুকাতে এবং মিশ্র রক্তের নিগ্রো সন্তান জন্ম দেয়ার ভয়ে গোপনে লন্ডনে চলে যান। যদিও তার মা পরে তাকে খুঁজে বের করেন, যিনি তখন পল নওবিলো নামে পরিচিত ছিলেন, ততদিনে কয়েকটি এতিমখানায় প্রতিপালিত হন।

ক্যারিয়ার[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

স্কুলে থাকার সময় তিনি পিয়ার্স রোভার্স দলে এবং পরে ড্যালকি ইউনাইটেড দলে খেলেন। তিনি স্বল্পকালের জন্য ধাতু কারখানায় শ্রমিক ও নিরাপত্তা রক্ষীর কাজ করেছেন। ১৯৮১ সালে সেইন্ট প্যাট্রিক এথলেটিকের পক্ষে তিনি পেশাদার ফুটবল শুরু করেন। এখনেই তিনি তার ডাকনাম "দ্য ব্লাক পার্ল অব ইঞ্চিকোর" লাভ করেন এবং আয়ারল্যান্ড পেশাদার ফুটবল এসোসিয়েশনের বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের খেতাব জেতেন।

১৯৮৫ সালে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের ম্যানেজার রন এটকিনসন তাকে দলে ভেড়ান। এখানে তিনি একমাত্র এফএ কাপ শিরোপা জেতেন ১৯৮৫ সালে। ম্যাকগ্রাথ দলের শ্রেষ্ঠ ডিফেন্ডার হলেও আহতথাকার কারণে তিনি অ্যালেক্স ফার্গুসনের দলে নিয়মিত স্থান পাননি। ম্যাকগ্রাথ ও ফার্গুসনের সম্পর্ক ভাল ছিলনা এবং ম্যাকগ্রাথ মদের নেশায় নেশাগ্রস্থ হয়ে পড়লে ইউনাইটেড তাকে প্রশংসা পত্রসহ ১০০'০০০ পাউন্ডের অবসর গ্রহণের চুক্তির প্রস্তাব দেয়। ম্যাকগ্রাথ তা প্রত্যাখ্যান করেন এবং পরে এস্টন ভিলারে যোগদেন ১৯৮৯ সালে। এখানে থাকাকালে ম্যাকগ্রাথ হাঁটুর আঘাত সত্ত্বেও তার ক্রীড়াজীবনের কিছু শ্রেষ্ঠ ম্যাচ খেলেন। ম্যাকগ্রাথ আসার প্রথম মৌসুমেই ভিলা লীগ রানার্স আপ হয়। এর পরের মৌসুম ভাল না গেলেও তার পরের মৌসুমে ভিলা আবার রানার্স আপ হয়। তিনি ছিলেন এসময় ভিলার রক্ষণব্যুহ্যের অতন্দ্র প্রহরী এবং তাকে অতিক্রম করে যোগ করতে দলগুলোর অনেক বেগ পেতে হয়েছে। এই কৃতিত্বপূর্ণ খেলার কারণে তাকে ১৯৯৩ সালের পিএফএ বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের সম্মানে ভূষিত করা হয়। এর পরে তিনি ডার্বি কাউন্টি (১৯৯৬-৯৭), এবং শেফিল্ড ইউনাইটেড (১৯৯৭-৯৮) দলের হয়েও খেলেছেন।

তিনি অতিরিক্ত মদ্যপানের কারণে প্রায়ই অনেক ম্যাচ খেলতে পারেননি। বিভিন্ন ইনজুরির কারণে তার হাটুতে আটবার অস্ত্রপোচার করতে হয়েছে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. গার্ডিয়ান পত্রিকার রিপোর্ট

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

পূর্বসূরী
গ্যারি প্যালিস্টার
পিএফএ প্লেয়ার্স প্লেয়ার অব দ্য ইয়ার
১৯৯৩
উত্তরসূরী
এরিক ক্যান্টোনা