নাদিয়া আলী (সঙ্গীত শিল্পী)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
নাদিয়া আলী
Nadia Ali
গায়ক-গীতিকার নাদিয়া আলী
নাদিয়া আলী ২০০৯
প্রাথমিক তথ্য
জন্ম নামনাদিয়া আলী
জন্ম (1980-08-03) ৩ আগস্ট ১৯৮০ (বয়স ৩৯)
লিবিয়া
উদ্ভবকুইন্স, নিউ ইয়র্ক, যুক্তরাজ্য
ধরনইডিএম, ট্রান্স, হাইজ
পেশাগায়ক-গীতিকার
বাদ্যযন্ত্রসমূহকন্ঠ
কার্যকাল২০০১–বর্তমান
লেবেলস্মাইল ইন বেড, অর্মডা, স্ট্রিক্টলি রাইম, স্পিনিন
সহযোগী শিল্পীআয়ো, আর্মিন বান বুরেন, মর্গান পেজ, সুলতান & নেড শিপার্ড, স্টার্কিলার
ওয়েবসাইটnadiaali.com

নাদিয়া আলী (উর্দু: نادیہ علی‎‎) (জন্ম: ৩ আগস্ট ১৯৮০) একজন পাকিস্তানী বংশোদ্ভূত আমেরিকান গায়ক এবং গীতিকার। আলী ২০০১ সালে আইয়ো ব্যান্ডের সাথে সম্পৃক্ত হয়ে নারী শিল্পী এবং গীতিকার হিসেবে মর্যাদা লাভ করেন। এরপর তার প্রথম একক অ্যালবাম র‌্যাপচার মুক্তি পায় যেটি আমেরিকার একক অ্যালবামের টপচার্টের ২য় তালিকায় অবস্থান করে ব্যাপকভাবে পরিচিতি লাভ করেন।[১] এছাড়াও গানটি ইউরোপের বিভিন্ন দেশেও শীর্ঘ তালিকায় জায়গা করে নেয়।[২] এরপর ২০০৬ সালের একক অ্যালবাম ইজ ইট লাভ? বিলবোর্ড হট ড্যান্স ক্লাব প্লে চার্টের তালিকায় শীর্ষস্থান লাভ করে।[৩]

প্রাথমিক এবং কর্মজীবন[সম্পাদনা]

নাদিয়া আলী ১৯৮০ সালের ৩ আগস্ট তারিখে লিবিয়ায় ত্রিপোলিতে পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত পিতা-মাতার ঘরে জন্মগ্রহণ করেন।[৪][৫] মাত্র ৫ বছর বয়সে তিনি পরিবার নিয়ে স্থানান্তরিত হন এবং এরপর তিনি নিউইয়র্কের কুইন্স এলাকায় শৈশবকাল পার করেন।[৬]

আলী ১৭ বছর বয়সে ভার্সেসের নিউ ইয়র্কের একটি অফিসে প্রাথমিকভাবে কর্মজীবন শুরু করেন। ভার্সেসের একজন সহকর্মী তাকে প্রযোজক মার্কাস মোজারের সাথে পরিচয় করিয়ে দিয়েছিলেন, যিনি জার্মানির মেয়েদের একটি দলবদ্ধ গোষ্ঠীর জন্য তার মূল প্রযোজনা সংস্থাগুলির সহযোগিতা করার জন্য একজন মহিলা গায়িকা খুজছিলেন।[৭] এরপর তিনি মোসের এর সাথে ২টি প্রযোজনা করার সুযোগ লাভ করেন, যেখানে আলী নিজেই একটি গানের কথা লেখেন এবং কণ্ঠ প্রদান করেন।

পুরস্কার এবং মনোনয়ন[সম্পাদনা]

বছর মনোনয়নীত কাজ পুরস্কার ফলাফল


২০১০ "লাভ স্টোরি" বেস্ট প্রগ্রেসিভ / টেক হাউস গান ২৫তম আন্তর্জাতিক ড্যান্স মিউজিক পুরস্কার মনোনীত
২০১১ "ফান্টাসি" শ্রেষ্ঠ রিমিক্স রেকর্ডিং, নন ক্লাসিক্যাাল - ৫৩তম গ্রামি পুরস্কার মনোনীত
২০১২ "ফিল সো গুড" শ্রেষ্ঠ ট্রান্স ট্র্যাক - ২৭তম আন্তর্জাতিক ড্যান্স মিউজিক পুরস্কার বিজয়ী
"প্রেসার (আলেসো রিমিক্স)" বেস্ট প্রগ্রেসিভ ট্র্যাক - ২৭তম আন্তর্জাতিক ড্যান্স মিউজিক পুরস্কার বিজয়ী
২০১৩ "মাস্ট বি দ্যা লাভ" শ্রেষ্ঠ ট্রান্স ট্র্যাক - ২৮তম আন্তর্জাতিক ড্যান্স মিউজিক পুরস্কার মনোনীত
নাদিয়া আলী বিশ্বের সেরা নারী শিল্পী - বিশ্ব সঙ্গীত পুরস্কার মনোনীত
নাদিয়া আলী শ্রেষ্ঠ মনোরঞ্জক - বিশ্ব সঙ্গীত পুরস্কার মনোনীত
"র‌্যাপচার" (এভিকি রিমিক্স) শ্রেষ্ঠ গান - বিশ্ব সঙ্গীত পুরস্কার মনোনীত

ডিস্কোগ্রাফি[সম্পাদনা]

নাদিয়া আলী ২০০৬ সালে বস্টনের এভলনে সঙ্গীত পরিবেশন করছেন।
স্টুডিও অ্যালবাম
সংকলন

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; OCC নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  2. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; iiO নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  3. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; BB নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  4. "Nadia Ali"Discogs। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০১৮ 
  5. Samantha (১০ নভেম্বর ২০১০)। "Q&A with dance music diva Nadia Ali: "I was a rebellious little teenage girl""MTV Desi। ১৬ আগস্ট ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০১৮ 
  6. "Nadia Ali talks about new album"Submerge Magazine। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০১৮ 
  7. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; BT নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]