নাগপুর জংশন রেলওয়ে স্টেশন

স্থানাঙ্ক: ২১°০৯′১২″ উত্তর ৭৯°০৫′২০″ পূর্ব / ২১.১৫৩৪° উত্তর ৭৯.০৮৮৯° পূর্ব / 21.1534; 79.0889
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
নাগপুর জংশন
আঞ্চলিক রেল এবং হালকা রেল স্টেশন
Nagpur Railway Station Stitch.jpg
অবস্থানগোস্বামী তুলসীদাস রোড, নাগপুর, পিন - ৪৪০০০১, মহারাষ্ট্র
ভারত
স্থানাঙ্ক২১°০৯′১২″ উত্তর ৭৯°০৫′২০″ পূর্ব / ২১.১৫৩৪° উত্তর ৭৯.০৮৮৯° পূর্ব / 21.1534; 79.0889
উচ্চতা৩০৮.৬৬০ মিটার (১,০১২.৬৬ ফু)
মালিকানাধীনভারতীয় রেল
লাইনহাওড়া-নাগপুর-মুম্বাই লাইন
দিল্লি-চেন্নাই লাইন
নাগপুর-হায়দ্রাবাদ লাইন
নাগপুর–বিলাসপুর বিভাগ
নাগপুর-নাগভিড় ন্যারোগেজ
নাগপুর-ছিণ্ডওয়াড়া ন্যারোগেজ
প্ল্যাটফর্ম১০ (৮ টি ব্রডগেজ ও ২ টি ন্যারো গেজ)
রেলপথ১৩
নির্মাণ
গঠনের ধরনভূমিগত
পার্কিংহ্যাঁ
অন্য তথ্য
অবস্থাচালু
স্টেশন কোডNGP
অঞ্চল মধ্য রেল
দক্ষিণ পূর্ব মধ্য রেল
বিভাগ নাগপুর
ইতিহাস
চালু১৮৬৭; ১৫৬ বছর আগে (1867)
বৈদ্যুতীকরণ1988-89 (বল্লারশাহ-ওয়ার্ধা-নাগপুর)
1990-91 (নাগপুর-আমলা)
1991-92 (থার্সা-নাগপুর)[১]
আগের নামবেঙ্গল নাগপুর রেলওয়ে
যাতায়াত
যাত্রীসমূহআনু. ১.৬ লাখ প্রতিদিন
অবস্থান

নাগপুর জংশন রেলওয়ে স্টেশন ভারতের মহারাষ্ট্রের নাগপুরে অবস্থিত একটি রেলওয়ে স্টেশন ।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

নাগপুর জংশন রেলওয়ে স্টেশন, যা নাগপুরের একটি অন্যতম পুরাতন এবং ব্যস্ত রেলওয়ে স্টেশন, ১৯২৫ সালের ১৫ জানুয়ারী তৎকালীন গভর্নর স্যার ফ্রাঙ্ক এ স্টেশনটির উদ্বোধন করেন ।[২] নাগপুরের রেলওয়ে স্টেশনগুলো অনেক পূর্বেই স্থািত হয়েছিলো, ভারতের স্বাধীনতারও পূর্বকালীন সময়ে, যেহেতু তখনকার সময় হতে নাগপুর ভারতের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ শহর হিসাবে পরিচিত ছিল । ১৮৬৭ সালের শুরুর দিকে নাগপুর রেলওয়ে স্টেশন প্রতিষ্ঠা লাভ করতে শুরু কর । ১৮৮১ সালে, নাগপুর ছত্রিশগড় প্রদেশের মধ্য দিয়ে ভায়া হয়ে ভারতের অপর একটি গুরু্বপূর্ণ শহর কলকাতার সাথে সংযুক্ত হয় ।

মূল নাগপুর রেলওয়ে স্টেশন বর্তমান স্টেশনের অবস্থান হতে পূর্বদিকে ছিল । বর্তমানের নাগপুর রেলওয়ে স্টেশন অবশ্য ভারতের স্বাধীনতা লাভের পূর্ববর্তী সময়ে ১৯২৪ সালের দিকে প্রতিষ্ঠা লাভ করে ।

সার্ভিস[সম্পাদনা]

বিভিন্ন স্থান হতে আগত সর্বমোট প্রায় ২৪২ [৩] টি ট্রেন নাগপুর স্টেশনে থামে, এগুলোর মধ্য রয়েছে প্যাসেঞ্জার, এক্সপ্রেস, মেইল, দুরন্ত, রাজধানী, গরীব রথ ট্রেন ইত্যাদি । এগুলোর মধ্যে, প্রায় ৫৩ টি ট্রেন প্রতিদিন চলাচল করে থাকে এবং ২৬টি ট্রেন নাগপুর হতে ছাড়ে । প্রয় ১.৬ লক্ষ যাত্রী নাগপুর স্টেশনের মাধ্যমে যাতায়াত করে থাকে ।[৪]

গুরুত্ব[সম্পাদনা]

নাগপুর রেলওয়ে স্টেশন শুধুমাত্র মহারাষ্ট্র প্রদেশের দ্বিতীয় রাজধানী শহর কিংবা দেশের অন্যতম দর্শনীয় স্হানগুলোর গন্তব্যের জন্যই নয়, বরং এর অন্যতম অবস্থানের জন্য ব্যাপকভাবে গুরুত্বপূর্ণ । স্টেশনটি দেশের কেন্দ্রস্থলে অবস্থিত এবং সেই কারণে শুধুমাত্র মহারাষ্ট্র প্রদেশের জন্য নয়, সারা ভারতীয় উপমহাদেশের জন্যই নাগপুর স্টেশন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি স্টেশন ।[৫]

উন্নয়ন[সম্পাদনা]

ভারতের যে ২২টি স্টেশন আন্তর্জাতিক মানে উন্নীতকরণের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, তার মধ্যে নাগপুর রেলওয়ে স্টেশন অন্যতম ।পাবলিক-প্রাইভেট পার্টনারশিপের মাধ্যমে স্টেশনটিতে উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালিত হয়েছে এবং স্টেশনটিতে নিরাপত্তা, সাবধানতা এবং পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ইত্যাদি সহ নানাবিধ সুবিধার উপর গুরুত্ব আরোপ করা হয় ।[৬]

নাগপুর স্টেশনের কাছে অবস্থিত অজনি স্টেশনটিকে একটি টার্মিনাস হিসাবে ব্যবহার করার মাধ্যমে নাগপুর থেকে অধিক যাত্রীর চাপ কমানোর পরিকল্পনা রয়েছে । এছাড়া অজনিকে একটি কোচিং কমপ্লেক্স হিসাবে গড়ে তোলার পরিকল্পনাও রয়েছে ।[৭]

শহরের অন্যান্য স্টেশন[সম্পাদনা]

প্রধান স্টেশনের পাশাপাশি শহরের অন্যান্য রেলওয়ে স্টেশন হচ্ছে অজনি, ইটওয়ারি, কালামনা এবং গোধানি ইত্যাদি । নাগপুর রেলওয়ে স্টেশন হতে অজনি স্টেশনের দূরত্ব ৩ কিলোমিটার । এটি ইন্ডিয়ান রেলওয়ের সবচেয়ে সংক্ষিপ্ত চলাচল পথ, যেখানে ক্রুরা নাগপুর স্টেশন হতে অজনি স্টেশনের ওয়ার্কশপে চলাচল করে থাকে ।[৮]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Electrification History"। সংগ্রহের তারিখ ৩১ মার্চ ২০০৪ 
  2. "90 years of Nagpur station Building"। nagpurtoday.in। ১৪ জানুয়ারি ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ৬ অক্টোবর ২০১৬ 
  3. "Arrivals at NGP/Nagpur Junction"। indiarailinfo.com। সংগ্রহের তারিখ ৬ অক্টোবর ২০১৬ 
  4. "Nagpur Railway Station Services"। cleartrip.com। সংগ্রহের তারিখ ৬ অক্টোবর ২০১৬ 
  5. "Travel to Nagpur"mapsofindia.com। ৯ ফেব্রুয়ারি ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ অক্টোবর ২০১৬ 
  6. "Nagpur to get model railway station"The Times of India। ২২ অক্টোবর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ অক্টোবর ২০১৬ 
  7. "Nagpur railway station to be developed into world class terminal"। সংগ্রহের তারিখ ৬ অক্টোবর ২০১৬ 
  8. "Indian Railways – 10 Interesting Facts"। zeenews.india.com। ২৫ জুলাই ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ৬ অক্টোবর ২০১৬