ধানাড়া

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

ধানাড়া হল ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের বর্ধমান  বিভাগের অন্তর্গত পাঁচটি জেলার অন্যতম একটি জেলা বাঁকুড়া অন্তর্ভুক্ত একটি গ্রাম তথা একটি অঞ্চল। এর  উত্তরে ও পূর্বে বর্ধমান, দক্ষিণে পশ্চিম মেদিনীপুর, দক্ষিণ-পূর্ব হুগলি এবং পশ্চিমে পুরুলিয়া জেলা। এই অঞ্চল "পূর্বের বঙ্গীয় সমভূমি ও পশ্চিমের ছোটোনাগপুর মালভূমির মধ্যকার সংযোগসূত্র" বলে বর্ণনা করা হয়।  পশ্চিম ভাগের জমি ধীরে ধীরে উঁচু হয়েছে। এই অঞ্চলে স্থানে স্থানে ছোটোখাটো টিলা দেখতে পাওয়া যায়। alt=ধানাড়া|থাম্ব|ধানাড়া টেমপ্লেট:ধানাড়াদূত তথ্য

মধ্যযুগের শেষভাগে এই অঞ্চলেরত ঐতিহাসিক ও সাংস্কৃতিক গুরুত্ব বৃদ্ধি পায়। খ্রিষ্টীয় সপ্তদশ শতাব্দী এই ধর্মই এই অঞ্চলের সংস্কৃতির দিক-নির্ণায়ক হয়ে ওঠে। ১৭৬২সালে ব্রিটিশ ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি  রাজা দুর্গা চারণ সিংহের থেকে রাজ্য অধিকার করে নেয় এবং ১৮৮১ সালে ধানাড়া অঞ্চল প্রতিষ্ঠিত হয়। অঞ্চল নামকরণ করা হয় এর সদর গ্রামের নামানুসারে।

 

ইতিহাস[সম্পাদনা]

ধানাড়ার ইতিহাস বলতে বোঝায় পশ্চিমবঙ্গের অধুনা বাঁকুড়া জেলার খাতড়া ব্লকের অন্তর্ভুক্ত ধানাড়া নামে পরিচিত ভূখণ্ডের ইতিহাস।

প্রাচীন কালে এই অঞ্চল সুহ্মভূমি অঞ্চলের অন্তর্গত ছিল। মহাভারত-এ আছে, ভীম সুহ্মভূমির রাজাকে পরাজিত করেছিলেন। মহাভারত-এর টীকা রচয়িতা নীলকণ্ঠ সুহ্মভূমিকের "রাঢ়া" (রাঢ়) নামে চিহ্নিত করেছেন। জৈন ধর্মগ্রন্থ আচারাঙ্গ সূত্র-এ রাঢ় অঞ্চলকে বলা হয়েছে "লাঢ়"। ঐতিহাসিকদের মতে, খ্রিস্টীয় ষষ্ঠ শতাব্দীতে "সুহ্ম" শব্দটি থেকেই প্রথমে "লাঢ়" ও পরে "রাঢ়" শব্দটির উৎপত্তি হয়।

   

প্রশাসনিক বিভাগ[সম্পাদনা]

লোকালয়ের নাম: ধনাড়া

ব্লকের নাম: খাতড়া

জেলা: বাঁকুড়া

রাজ্য: পশ্চিমবঙ্গ

বিভাগ: বর্ধমান

ভাষা: বাংলা এবং ইংরেজি

বিধানসভা কেন্দ্র: রানীবাঁধ বিধানসভা

লোকসভা কেন্দ্র: বাঁকুড়া সংসদীয় আসন

পিন কোড: 722140

ডাকঘরের নাম: খাতড়া

ধানাড়া অঞ্চল মোট ১২টি গ্রামে বিভক্ত। এগুলি হল –

ধানাড়া সদর গ্রাম

ও অন্যান্য ১১টি গ্রাম।

গ্রাম পঞ্চায়েতর::ধানাড়া গ্রাম পঞ্চায়েত  

যা ধানাড়া গ্রাম থেকে ২.৩কিমি দূরে।

ভৌগোলিক অবস্থান::

উচ্চতা/উচ্চতা: 89 মিটার।  সিল স্তর উপরে

টেলিফোন কোড/স্ট্যান্ড কোড: 03243

জনমিতি[সম্পাদনা]

ধানাড়া ২০১১ সালের আদমশুমারির বিবরণ

ধনাড়ার স্থানীয় ভাষা বাংলা।  ধনাড়া গ্রামে মোট জনসংখ্যা ১৫৩৪৪ এবং বাড়ির সংখ্যা ৩১০ জন। মহিলা জনসংখ্যা ৪৯.১%।  গ্রাম সাক্ষরতার হার ৫৭.৪% এবং মহিলা সাক্ষরতার হার ২৩.৪%।

জনসংখ্যা

জনসংখ্যা ১৫৩৪

মোট ঘর সংখ্যা ৩১০

মহিলা জনসংখ্যা% ৪৮.১% (৭৫৩)

মোট সাক্ষরতার হার% ৫৭.৪% (৮৮০)

মহিলা সাক্ষরতার হার ২৩.৪% (৩৫৯)

জনসংখ্যা জনসংখ্যা% %২.৯% (৫০৪)

তফশিলী জাতের জনসংখ্যা% ৩৮.০% (৫৮৩)

কর্মসংস্থান% ৪৩.৮%

শিশু (০-৬) জনসংখ্যা ২০১১ এর মধ্যে ১৭৯

বালিকা শিশু (০-৬) জনসংখ্যা%% ২০১১, ৪৫.৩% (৮১)

ভাষা[সম্পাদনা]

ধানাড়ার  ভাষাসমূহ::

  বাংলা (৯০.৬৭%)

  কুরমালী (০.৮২%)

  সাঁওতালি (৭.৯৬%)

  হিন্দী (০.৩৫%)

  অন্যান্য (০.২০%)

ধানাড়ার সম্পর্কে[সম্পাদনা]

ধনাড়া ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের বাঁকুড়া জেলার খাতড়া ব্লকের একটি গ্রাম।  এটি বর্ধমান বিভাগের অন্তর্গত।  এটি জেলা সদর বাঁকুড়া থেকে দক্ষিণে ৩০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত।  খাতড়া -৩ কিলোমিটার।  রাজ্যের রাজধানী কলকাতা থেকে ১৮১ কিমি

ধনারা পিন কোডটি 722140 এবং ডাকের প্রধান কার্যালয় খাতড়া।

বৈদ্যনাথপুর (৩ কিলোমিটার), সুপুর (৮ কিলোমিটার), পারসোলা (১০ কিলোমিটার), হারমাসড়া (১২ কেমি), বহরমপুর (১২ কিমি) হ'ল ধনরার নিকটবর্তী গ্রামগুলি।  ধনাড়ার পশ্চিমে হিড়বাঁধ ব্লক, পূর্বে সিমলাপাল ব্লক, পূর্বে তালদাঙ্গরা ব্লক, পশ্চিমে রণিবাঁধ ব্লক।

বাঁকুড়া, ঝাড়গ্রাম, ঘাটশিলা, আদ্রা, পুরুলিয়া শহরগুলি  ধানাড়ার কাছাকাছি অবস্থিত

শিক্ষা ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

রায়পুর ব্লক মহাবিদ্যালয়

ঠিকানা: খুরিগেরিয়া, মণ্ডলকুলি, রায়পুর -১, বাঁকুড়া, ডাব্লু বি

কে। এন। ইঞ্জিনিয়ারিং ইনস্টিটিউট

ঠিকানা:

  জে.বি.টি কলেজ

ঠিকানা: গ্রাম এবং পোস্ট-ছান্দার, ডিস্ট-বাঁকুড়া পিন-722203

কালীসেন মহাবিদ্যালয়

ঠিকানা: কালীসেন ওন্দা বাঁকুড়া

কোটুলপুর বালিকা কলেজ

ঠিকানা: কোটুলপুর, বাঁকুড়া, ডব্লিউবি

ধানাড়ার নিকটবর্তী স্কুল

একলব্য মডেল আবাসিক স্কুল

ঠিকানা: গোড়াবাড়ী/iii, খাতড়া  -১, বাঁকুড়া, পশ্চিমবঙ্গ।  পিন- 722135, পোস্ট - গোড়াবাড়ি

বৈদ্যনাথপুর(এইচ এস)

ঠিকানা: বৈদ্যনাথপুর/আইভ, খাত্র -১, বাঁকুড়া, পশ্চিমবঙ্গ।  পিন- 722101, পোস্ট - বাঁকুড়া

কোংসাবতী শিশু বিদ্যালয়। (এইচএস)

ঠিকানা: খাতড়া -১, বাঁকুড়া, পশ্চিমবঙ্গ।  পিন- 722140, পোস্ট - খাতড়া

গোড়াবাড়ী (এইচ এস)

ঠিকানা: গোডড়াবাড়ী/আইভ, খাতড়া -১, বাঁকুড়া, পশ্চিমবঙ্গ।  পিন- 722135, পোস্ট - গোড়াবাড়ি

    ধনাড়ার কলেজ, খাতড়া -১

খাতড়া আদিবাসী মহাবিদ্যালয়

খাতড়া; বাঁকুড়া;  পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

7.0 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

বীরশা মুন্ডা মেমোরিয়াল কলেজ

   পাইড়াখালী - হিড়বাঁধ - মনবাজার - বড়ভূম - বলরামপুর আরডি;  হালুদ কানালি;  পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

14.1 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

রানিবাঁধ গভর্মেট আইটিআই

পশ্চিমবঙ্গ 722134;  ভারত

ধানাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়

ধানাড়া, পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

০.৭কিমি দুরত্ব বিশদ

বেনা প্রাথমিক বিদ্যালয়

বেনা,;  পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

1.3 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

চাকা প্রাথমিক বিদ্যালয়

আছে চাকা;  পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

1.9 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

চাকা এন হাই স্কুল (এইচএস)

আছে চাকা;  পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

1.9 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

গোপিসাগর প্রাথমিক বিদ্যালয়

ভিল: গোপিসাগর;  পি.ও: আরকামা;  পি.এস: খাতড়া;  জেলা: বাঁকুড়া;    পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

1.9 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

চাকা নির্মালানন্দ উচ্চ বিদ্যালয় (এইচএস)

আছে চাকা,  পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

 সাাস্থ্য পরিষেবা

ধনরার নিকটে সরকারি স্বাস্থ্য কেন্দ্রসমূহ

২.১ কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

সিমলা প্রাথমিক স্বাস্থ্য কেন্দ্র

কেশিয়া আরডি;  গোপিসাগর;  পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

২ খাতড়া সাব ডিভিশনাল হাসপাতাল, খাতড়া এসডি হাসপাতাল, হাসপাতাল রোড, খাতড়া

২) পখুরিয়া এসসি, পখুরিয়া এসসি, সিমলাপাল থেকে খাতড়া রোড, হাইস্কুলের কাছে

ধানাড়া
ধানাড়া

পরিবহন ও যোগাযোগ

ধানাড়া, খাতড়া -১ এ বাস স্টপ 3.5 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

সবুবাইদ বাস স্টপ

পারসলা গ্রামীণ ;  মাধবপুর;  পশ্চিমবঙ্গ 722160;  ভারত

৩.৯ কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

দহোলা

পার্সোলা গ্রামীণ আরডি;  বাহাদুরপুর;  পশ্চিমবঙ্গ 722160;  ভারত

4.8 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

সুপুর বাস স্টপ

  পশ্চিমবঙ্গ 722145;  ভারত

8.2 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

11.4 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

মাচাটোড়া বাজার

সিমলাপাল - মাচাটোড়া আরডি;   পশ্চিমবঙ্গ 722151;  ভারত

13.8 কিলোমিটার দূরত্ব।

মন্দির[সম্পাদনা]

সিংহ পাড়া দুর্গা মন্দির

০.৭ কিমি দূরে

ধানাড়া, পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

0.7 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

ধানাড়া শিব মন্দির

ধানাড়া,পশ্চিমবঙ্গ 722140;  ভারত

0.7 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

8.1 কিলোমিটার দূরত্ব বিশদ

পখুরিয়া দুর্গা মেলা

পুকুরিয়া

   

ধানাড়ার রাজ বংশ[সম্পাদনা]

১৭১২  সালে  রাজা দুর্গা চরণ সিংহ ধানাড়ায় রাজ বংশ প্রতিষ্ঠা করেন।

ধানাড়া
ধানাড়া

তিনি এই অঞ্চলে রাজা ছিলেন।

  তারপরে তিনি এই অঞ্চলটির নাম দিলেন ধানাড়া রাজ। যেটি গ্রামের ১২ গ্রাম নিয়ে গঠিত ছিল-

   

১)ধানাড়া

২)আড়কামা

৩)চাকা

৪)বেনা

৫)কাশিপুর

৬)সইবুবাদ

৭)সিমলা

ও আর ও ৫টি গ্রাম।

রাজা দুর্গা চরণ সিংহের প্রতিষ্টিত রাজ্যের নাম হল ধানাড়া রাজ।

        এখন এই এলাকার নাম ধানাড়া অঞ্চল।

ধানাড়ার দুর্গা মন্দির[সম্পাদনা]

রাজা দুর্গা চরণ সিংহ ১৭২৫ সালে একটি দুর্গা মন্দির প্রতিষ্ঠা করেন।

ধানাড়া
ধানাড়া

      এক কালীন রাজা সংকটের মুখে পড়েন।       

           কিন্তু এই দুর্গা পূজা বন্ধ করেননি তাঁর পরিবারের সদস্যরা।  

ধানাড়া
ধানাড়া

     

১৭৬৯সালে রাজা দুর্গা চরণ সিংহ মারা গিয়েছিলেন।

         তাঁর মৃত্যুর পরে তাঁর পুত্র রাজা দুর্গা চরণ সিংহ ধানাড়া রাজ শোভা'র দায়িত্ব নেন।

       তিনি এই দুর্গা মন্ডিরকে ধানাড়া সিংহ পাড়া দুর্গা মন্ডির বলেছিলেন।

ধাানাড়া রাজ বাড়ি[সম্পাদনা]

       ধানাড়া রাজ বাড়ি ১৭৩৪সালে তৈরি করেছিলেন রাজা দুর্গা চারণ  সিংহ।

    এই রাজ প্রাসাদটি নির্মাণের জন্য তিনি প্রচুর টাকা বিনিয়োগ করেছিল। এবং তিনি এক টি বাঁধ নির্মাণ করেন। যার নাম ধানাড়া বড় বাঁধ।

   এবং পরবর্তী কালে তিনি এক টি পুকুর নির্মাণ করেন যার নাম ধানাড়া কালি পুকুর।

   ১৭৬২সালে ব্রিটিশ ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি  রাজা দুর্গা চারণ সিংহের থেকে রাজ্য অধিকার করে নেয় এবং ১৮৮১ সালে ধানাড়া অঞ্চল প্রতিষ্ঠিত হয়।

    ১৮৮৮সালে  এই রাজ প্রাসাদটি  সম্পূর্ণ ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। এবং এর কোনো অস্তিত্ব পাওয়া যায় নি।

রাজনীতি[সম্পাদনা]

এআইটিসি,সিপিএম, ভারতীয় জনতা পার্টি, সিপিআই (এম), জেকেপি (এন),  আইএনসি এই অঞ্চলের প্রধান রাজনৈতিক দল।

ধনার কাছে ভোটকেন্দ্র/বুথ

১) নুতনডিহি প্রথমিক বিদ্যালয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]