জলঢাকা সরকারি কলেজ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(জলঢাকা কলেজ থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

জলঢাকা সরকারি কলেজ (জলঢাকা ডিগ্রি কলেজ) হল বাংলাদেশের নীলফামারী জেলার জলঢাকা উপজেলা শহরে অবস্থিত একটি সরকারি মহাবিদ্যালয়। কলেজটি ১৯৭২ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। এ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে উচ্চ মাধ্যমিক, স্নাতক (পাশ ও সম্মান) পর্যায়ে শিক্ষাদান করে থাকে। এটি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, দিনাজপুর এবং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অধিভুক্ত। জলঢাকা কলেজ মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর ও কলেজ পরিচালনা কমিটি দ্বারা পরিচালিত হয়। বর্তমানে এ কলেজে ৯৮ জন শিক্ষক ও ১৭ জন কর্মচারী রয়েছে।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

জলঢাকা কলেজটি ১৯৭২ সালের ১লা জানুয়ারি প্রতিষ্ঠিত হয়। ২০১৪ সালে এ কলেজে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে স্নাতক সম্মান কোর্স চালু হয়।[১] ২০১৬ সালে সরকার প্রতিটি উপজেলার একটি করে কলেজ সরকারিকরণ করার ঘোষণা দেয়,[২] পরে ২০১৮ সালের ৮ আগষ্টে প্রকাশিত প্রজ্ঞাপনে জলঢাকা কলেজকে সরকারিকরণ করা হয়।[৩] এবং নামের সাথে সরকারি যোগ হয়ে জলঢাকা সরকারি কলেজ হয়।

ক্যাম্পাস[সম্পাদনা]

জলঢাকা কলেজটি নীলফামারী জেলার জলঢাকা উপজেলার প্রানকেন্দ্রে অবস্থিত। কলেজটি শহরের উত্তর প্রান্তে কেন্দ্রীয় ষ্টেডিয়াম সংলগ্ন ১১.০২ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। কলেজটির ৩ তলা বিশিষ্ট ভবন সংখ্যা ৩ টি, ১ তলা বিশিষ্ট ভবন ৩টি (প্রশাসনিক ভবন সহ) ও টিন শেট ভবন ৩ টি। এ ছাড়াও কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের আদলে একটি মনোমুগ্ধকর শহীদ মিনার, জামে মসজিদ, খেলার মাঠ, ছাত্র/ছাত্রীদের কমনরুম, একটি সু-বিশাল পুকুর, সাইকেল গ্যারেজ ও কলেজের বনজ, ফলজ ও ঔষধি গাছের বাগান রয়েছে।

শিক্ষা কার্যক্রম[সম্পাদনা]

দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডে অধীনে এইচ.এস.সি, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ডিগ্রী (পাশ) ও ১১ টি বিষয়ে অনার্স কোর্সে পাঠদান করা হয়। এইচ.এস.সি , ডিগ্রী (পাশ) ও অনার্স কোর্সে প্রায় ৪৫০০ শিক্ষার্থী রয়েছে। কলেজে সহশিক্ষামুলক কার্যক্রম রোভার স্কাউট, বি.এন.সি.সি, বিতর্ক পরিষদ সহ বিভিন্ন সাংস্কৃতিকমুলক কর্মকান্ড ব্যাপকভাবে পালন করা হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "জলঢাকা ডিগ্রি মহাবিদ্যালয়ে অনার্স ক্লাশের যাত্রা শুরু"উত্তর বাংলা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০৯-২৫ 
  2. "সরকারি হচ্ছে ১৯৯ কলেজ"বাংলাদেশ প্রতিদিন। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০৯-২৫ 
  3. "সরকারি হলো ২৭১ কলেজ"The Daily Ittefaq। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০৯-২৫