গুলশান লেক

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
গুলশান লেকের দৃশ্যাবলী

গুলশান লেক (গুলশান হ্রদ) বাংলাদেশের ঢাকার একটি হ্রদ, এটি গুলশান, শাহজাদপুর এবং বারিধারা কূটনৈতিক অঞ্চলের সীমানা ঘেঁষে অবস্থিত।[১][২]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

২০১৫ সালে গুলশান-বনানী-বারিধারা লেক উন্নয়ন প্রকল্প হাতে নেয় রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ-রাজউক। পরিকল্পনা অনুযায়ী ২০২১ সালে এ প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়ার কথা। উন্মুক্ত প্রতিযোগিতা ছাড়াই বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) স্টাডি রিপোর্টের ভিত্তিতে প্রকল্পের বিশাল এ আকার বাড়ানোর উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। ২০১০ সালের ৬ জুলাই একনেকে লেক উন্নয়ন প্রকল্প অনুমোদন করে। শুরুতে প্রকল্পের মেয়াদকাল নির্ধারণ করা হয় ২০১০ সালের জুলাই থেকে ২০১৩ সালের জুন পর্যন্ত।[৩][৪][৫][৬]

বাস্তুসংস্থান[সম্পাদনা]

২০০১ সালে সিটি কর্পোরেশন এই হ্রদটিকে "বাস্তুগতভাবে সমালোচনামূলক অঞ্চল" হিসাবে ঘোষণা করেছে। নান্দনিক রূপে সাজছে গুলশান-বনানী-বারিধারার লেক। যেখানে স্বস্তির নিঃশ্বাস নেওয়ার সুযোগ পাবে যানজট–দূষণে হাঁসফাঁস নগরবাসী। একইসঙ্গে ১৬ কিলোমিটার দীর্ঘ পানিপথ থাকবে লেকে। এই পথে ওয়াটার বাস ছাড়াও চলবে ওয়াটার ট্যাক্সি। মগবাজার মোড় এলাকায় হাতিরঝিল থেকে গুলশানের ইউনাইটেড হাসপাতালের পেছনে কালাচাঁদপুর যাওয়া যাবে নৌপথে।[৭][৮]

চিত্রশালা[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Evictions around Gulshan Lake"bdnews24.com। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭ 
  2. "Eviction drive in Gulshan"www.dhakatribune.com। Dhaka Tribune। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭ 
  3. "Book Gulshan lake encroachers: HC"The Daily Star (ইংরেজি ভাষায়)। ২২ জুন ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭ 
  4. "Security for the rich costs the poor"dhakatribune.com। Dhaka Tribune। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭ 
  5. "Water-taxi"dhakatribune.com। Dhaka Tribune। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭ 
  6. "Rajuk recovers land to build walkway near Gulshan Lake"The Daily Star (ইংরেজি ভাষায়)। ২৪ এপ্রিল ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭ 
  7. "HC moved to protect Gulshan lakes"The Daily Star (ইংরেজি ভাষায়)। ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭ 
  8. "Gulshan Lake: An ecologically critical area"The Daily Star (ইংরেজি ভাষায়)। ১৯ অক্টোবর ২০০৭। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৭