গান্ডু (চলচ্চিত্র)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
গান্ডু
গান্ডু (চলচ্চিত্র) ২০১০ এর পোস্টার.jpg
প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পোস্টার
পরিচালককৌশিক মুখোপাধ্যায়, 'কিউ' নামে পরিচিত
প্রযোজকওভারডোজ জয়েন্ট
রচয়িতা
শ্রেষ্ঠাংশে[১]
সুরকার
চিত্রগ্রাহককিউ
সম্পাদক
প্রধান
  • মানস মিত্তাল
  • কিউ
  • সুরজিৎ সেন

পরামর্শক

  • রাজশ্রী বসু
মুক্তি
দৈর্ঘ্য৮৫ মিনিট[২]
দেশভারত
ভাষাবাংলা

গান্ডু (ইংরেজি: Gandu) ২০১০ সালের ভারতীয় সাদা-কালো বাংলা চলচ্চিত্র। এটি পরিচালনা করেছেন কৌশিক মুখোপাধ্যায়, যিনি এই চলচ্চিত্রকে "র‌্যাপ সঙ্গীতধর্মী" হিসেবে বর্ণিত করেন।[৩] সুরজিৎ সেন এবং কিউ রচিত এই চলচ্চিত্রের অভিনয়ে ছিলনে, অনুব্রত বসু, জয়রাজ ভট্টাচার্য, কমলিকা ব্যানার্জী, শিলাজিৎ মজুমদার এবং রাই সেন। ওভারডোজ জয়েন্ট প্রযোজিত চলচ্চিত্রের সংগীত পরিচালনা করেছে বিকল্প রক সংগীতদল ফাইভ লিটল ইন্ডিয়ানস[৪]

গান্ডু নিউ ইয়র্ক সিটিতে সাউথ এশিয়ান আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে অক্টোবর ২৯, ২০১০ সালে আন্তর্জাতিক প্রদর্শনীর পূর্বে ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রদর্শিত হয়েছে।[৩] এই চলচ্চিত্র ২০১১ বার্লিন আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে আনুষ্ঠানিকভাবে নির্বাচন করা হয়েছিলো। এছাড়াও এটি স্লামড্যান্স চলচ্চিত্র উৎসবে প্রদর্শিত হয়েছে।[৫]

গান্ডু সমালোচকদের কাছ থেকে প্রধানত ইতিবাচক সমালোচনা পেয়েছে। জন রেইস বলেন, "এটি একটি অত্যাশ্চর্য চাক্ষুষ এবং আখ্যান উৎসব"।[৬] অন্যদিকে ভ্যারাইটি বলে, "এটি একটি আনন্দের সাথে আইন অমান্যকারী ছন্দ-প্রসারের দৌড়ঝাঁপ"।[১] চলচ্চিত্রটি ভাষা, নগ্নতা এবং যৌনদৃশ্যের জন্যে কিছু বিতর্কের সম্মুখিন হয়। অনেক দর্শক যৌনমিলনের দৃশ্যের সময় চলচ্চিত্র ছেড়ে উঠে গেছেন।[৭] এইসব বিতর্কের কারণে এই চলচ্চিত্র ২০১২ এশীয় চলচ্চিত্র উৎসবের পূর্ব পর্যন্ত ভারতে প্রদর্শন করা হয় নি।[৮] প্রধান চরিত্র অনুব্রত বসু একটি প্রেমের দৃশ্যে তার যৌনাঙ্গ সম্পূর্ণরূপে প্রদর্শন করে।[৯]

কাহিনীসংক্ষেপ[সম্পাদনা]

গান্ডু কলকাতার আশপাশে বাস করা একজন দরিদ্র-হতাশ অথচ একজন উচ্চাকাঙ্ক্ষী রাপার। সে তার বন্ধুর রিকশায় ভ্রমনের অর্থ যোগানের জন্যে মায়ের প্রেমিকার কাছ থেকে প্রতিনিয়ত টাকা হাসিল করে নেয়। পরবর্তীতে লটারী জিতে সে তার মাকে টাকা দেয়।

অভিনয়ে[সম্পাদনা]

উৎপাদন[সম্পাদনা]

গান্ডু শুধুমাত্র আটজন কলাকুশলী নিয়ে সীমিত বাজেটের মধ্যে কলকাতায় ধারণ করা হয়েছে। এটি একটি দৃশ্য রঙিন ব্যতীত বাকি দৃশ্য সাদাকালো রঙে দৃশ্যায়িত হয়েছে এবং এর কোন আনুষ্ঠানিক স্ক্রিপ্ট ছিলো না। কিউ দৃশ্যধারণে হাই-ডেফিনেশন ক্যানন ইওএস ৭ডি একক-লেন্স রিফ্লেক্স ক্যামেরা ব্যবহার করেছেন। নগ্ন দৃশ্যে কুশলীদের প্রস্তুত করার জন্যে, কিউ তাদের বিভিন্ন কর্মশালায় ব্যবহৃত বোল কৌশল ব্যবহার আবশ্যক করেন। চলচ্চিত্রে বিভিন্ন ভূমিকায় অভিনয়কারী ঋ সেন বাস্তব জীবনে পরিচালক কিউয়ের বান্ধবী।[১০]

সংগীত[সম্পাদনা]

গান্ডু চলচ্চিত্রের সংগীত সঞ্চালনা করেছে কলকাতা-ভিত্তিক বিকল্প রক সংগীতদল ফাইভ লিটল ইন্ডিয়ানস এবং যা লন্ডন-ভিত্তিক প্রযোজক মিতি অধিকারী কর্তৃক মিশ্রিত হয়েছে।

পুরস্কার এবং মনোনয়ন[সম্পাদনা]

পুরস্কার এবং মনোনয়ন তালিকা
শিরোনাম অনুষ্ঠানের তারিখ বিভাগ প্রাপক ফলাফল
সাউথ এশিয়ান আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব ২০১০ শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্রের জন্য জুরি পুরস্কার কৌশিক মুখোপাধ্যায় বিজয়ী[১১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. John Anderson (জানুয়ারি ৩০, ২০১১)। "Gandu"Variety। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 
  2. "গান্ডু (২০১০)"আইএমডিবি। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৬-১০ 
  3. Priyanka Dasgupta (নভেম্বর ১৯, ২০১০)। "'Why this shame about sexuality?'"Times of India। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 
  4. "Gandu Finds Its Groove"Times of India। ফেব্রুয়ারি ৭, ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 
  5. Shamik Bag (ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১১)। "Tradition with a twist"Mint। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 
  6. John Reiss (জানুয়ারি ২৯, ২০১১)। "Exciting times in Park City"Huffington Post। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 
  7. Shalini Langer (ফেব্রুয়ারি ২০, ২০১১)। "Berlin buzz: Meet Q, Kolkata director who doesn't mind his Ps"Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 
  8. Ganguly, Ruman (জুলাই ২৭, ২০১২)। "Rituparno's Chitrangada to premiere at film festival"Times of India। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ৫, ২০১২ 
  9. "GANDU: An Explosive Film that Melds I STAND ALONE with 8 MILE in the Ghetto Hood of Calcutta" Hammer to Nail.com. Published 30 January 2011. Retrieved 21 May 2014.
  10. Sudhish Kamath (ডিসেম্বর ৩০, ২০১০)। "A telling tale"The Hindu। Chennai, India। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 
  11. Meenakshi Shedde (ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০১১)। "'G--- will win over fans exhausted with the tried and true'"Daily News and Analysis। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১১ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]