খুনাইস ইবনে হুজাইফা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

খুনাইস ইবনে হুজাইফা (خنيس بن حذيفة) (মৃত্যু ২ AH/৬২৪) ইসলামের নবী মুহাম্মদ স. এর একজন সাহাবা ছিলেন।

জীবনী[সম্পাদনা]

খুনাইস মক্কার বনু কুরাইশ বংশের বনু শাহম গোত্রের হুজাফা ইবনে কায়েসের পুত্র ছিলেন। তার মা দাইদা বিনতে হিজ্যামও ছিলেন শাহম গোত্রের মেয়ে।[১] তার দুই ভাই আব্দুল্লাহ ইবনে হুজাফা আস-সাহমি এবং কায়েস।[২]

আবু বকরের দ্বারা প্রভাবিত হয়ে খুনাইস ইসলাম গ্রহণ করেন[৩] "আল্লাহর নবী আল আকরামের গৃহে প্রবেশের" কিছুদিন আগে।[৪]

তিনি তার দুই ভাই, সাত চাচাতো ভাই এবং শাহম গোত্রের অন্য চারজন সদস্য নিয়ে ৬১৬ খ্রিস্টাব্দে আবিসিনিয়ায় গমণের অংশ নেন।[৫] খুনাইস ৬১৯ খ্রিস্টাব্দে মক্কায় ফিরে আসেন।[৬] এরপরে তিনি হাফসা বিনতে উমার কে বিয়ে করেন।[৭] হাফসার তখন ১৪ বছর বয়স।[৮]

৬২২ সালে যখন উমর মদিনায় হিজরত করেন তখন হাফসা এবং খুনাইস তার দলের সঙ্গে যোগ দেয়।[৭] প্রথম দিকে তারা রিফা ইবনে আবদালমুন্দির এর সঙ্গে থাকতেন।[৯] যখন মুহাম্মদ স. প্রতিজন মুসলমানকে একজন ভাই নির্বাচন করতে নির্দেশ দেন তখন তিনি আবু আবস ইবনে জাবিরের সঙ্গে ভাই পাতান[১০] যে মুহাম্মদ ইবনে মাসলামার শ্যালক ছিলেন।[১১]

খুনাইস শাহম গোত্রের একমাত্র ব্যক্তি যিনি ৬২৪ খ্রিস্টাব্দে সংঘটিত বদরের যুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন।[১২]

তিনি মুহাম্মদ স. এর মদিনায় হিজরতের ২৫ তম মাসের শুরুর দিকে মৃত্যুবরণ করেন। তাকে আল-বাকী কবস্থানে দাফন করা হয়। মুহাম্মদ স. তার শেষকৃত্য পরিচালনা করেন।[৪] তার কোন উত্তরসূরী ছিলো না। [৪] বিধবা হাফসা পরবর্তীতে মুহাম্মদ স. কে বিবাহ করেন[১৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Muhammad ibn Saad, Tabaqat vol. 3. Translated by Bewley, A. (2013). The Companions of Badr, p. 307. London: Ta-Ha Publishers.
  2. Muhammad ibn Ishaq, Sirat Rasul Allah. Translated by Guillaume, A. (1955). The Life of Muhammad, pp. 147-148. Oxford: Oxford University Press.
  3. Ibn Ishaq/Guillaume p. 116.
  4. Ibn Saad/Bewley vol. 3 p. 307.
  5. Ibn Ishaq/Guillaume pp. 147-148.
  6. Ibn Ishaq/Guillaume p. 168.
  7. Ibn Ishaq/Guillaume p. 218.
  8. Muhammad ibn Saad, Tabaqat vol. 8. Translated by Bewley, A. (1995). The Women of Madina, p. 56. London: Ta-Ha Publishers.
  9. Ibn Ishaq/Guillaume p. 218. Ibn Saad/Bewley vol. 3 p. 307.
  10. Ibn Saad/Bewley vol. 3 pp. 307, 353.
  11. Ibn Saad/Bewley vol. 3 p. 352.
  12. Ibn Ishaq/Guillaume p. 329.
  13. Ibn Hisham note 918.

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]