কেন সানশাইন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
কেন সানশাইন
জন্ম (1948-03-12) ১২ মার্চ ১৯৪৮ (বয়স ৭৩)
জাতীয়তামার্কিনী
শিক্ষাবি. এ. কর্নেল ইউনিভার্সিটি
পেশাজনসংযোগ পরামর্শদাতা
পরিচিতির কারণসানশাইন স্যাকস কনসালট্যান্টসের প্রতিষ্ঠাতা
দাম্পত্য সঙ্গীন্যানসি হল্যান্ডার
সন্তান

কেন সানশাইন হলেন একজন আমেরিকান জনসংযোগ পরামর্শদাতা, সহ-সিইও (প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা) এবং সানশাইন স্যাশ কনসালট্যান্টসের প্রতিষ্ঠাতা। নিউ ইয়র্ক শহরে, রাজনীতি দিয়ে, তিনি তাঁর কর্মজীবন শুরু করেছিলেন। তিনি মেয়র ডেভিড ডিনকিন্সের কর্মী প্রধান হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন।[১]

প্রাথমিক জীবন[সম্পাদনা]

লং আইল্যান্ডে বড় হয়ে ওঠা সানশাইন ১৯৭০ সালে কর্নেল ইউনিভার্সিটির শিল্প ও শ্রম সম্পর্কীয় বিভাগ থেকে স্নাতক ডিগ্রি লাভ করেছিলেন। সেখানে তিনি সামাজিক এবং রাজনৈতিক পরিবর্তনের প্রচারের সঙ্গে জড়িত ছিলেন।[২]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

সানশাইন সম্প্রদায়ের সংগঠক হিসাবে কাজ শুরু করেছিলেন এবং জর্জ ম্যাকগভার্নের জেলা প্রতিনিধি হয়েছিলেন। এরপরে তিনি এএসসিএপিয়ের জনসংযোগ বিভাগ পরিচালনা করেছিলেন। সেখানে তিনি সংগীতের অনুষ্ঠানগুলির তদারকি করতেন। ১৯৭০য়ের দশকে, তিনি হ্যারল্ড হলজারের সাথে, বেলা আবজুগের সিনেট, মেয়র পরিষদীয় এবং মহাসভা সম্পর্কিত প্রচারে যোগ দিয়েছিলেন[৩]

১৯৯০ থেকে ১৯৯৩ সাল পর্যন্ত সানশাইন মেয়র ডেভিড ডিনকিন্সের কর্মী প্রধান হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। নিউ ইয়র্ক সিটির ভবিষ্যত মেয়র বিল ডি ব্লাজিওর ব্যবস্থাপক হিসাবে থাকা তাঁর কাজের অন্তর্ভুক্ত ছিল। [৪] ১৯৯৪ সালে, তিনি মারিও কুওমোর রাজ্যপালের অধিকারসংক্রান্ত প্রচারে কাজ করেছিলেন[৫] এবং তিনি নিউইয়র্কের রাজ্যপাল অ্যান্ড্রু কুওমোর পরামর্শদাতা।[৬] ২০১৩ সালে, তিনি মেয়র-নির্বাচিত বিল ডি ব্লাজিওর প্রগতি দলে দায়িত্ব পালন করেছিলেন।[৭]

সানশাইন স্যাশ কনসালট্যান্টস[সম্পাদনা]

১৯৯১ সালে, সানশাইন একটি জনসংযোগ সংস্থা চালু করেন, যার নাম দেওয়া হয়েছিল কেন সানশাইন কনসালট্যান্টস। শন স্যাশের অংশীদারত্ব প্রতিফলিত করার জন্য পরের বছর এই কোম্পানির নাম পরিবর্তন করা হয়েছিল। তাঁদের প্রাথমিক গ্রাহকদের মধ্যে নাম ছিল বারবারা স্ট্রাইস্যান্ড, ১১৯৯: জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা শ্রমিক ইউনিয়ন এবং ১৯৯২ গণতান্ত্রিক জাতীয় সম্মেলনের। তৎকালীন গণতান্ত্রিক দলের চেয়ারম্যান রন ব্রাউনের সঙ্গে তাঁরা কাজ করছিলেন।[২]

সানশাইন স্যাশ বিশেষ দক্ষতা অর্জন করেছে নিগম (কর্পোরেট) সম্বন্ধীয় অনুষ্ঠান, সংকটকালীন যোগাযোগ, খ্যাতি পরিচালন ও সমস্যা ব্যবস্থাপনা,[৮] ভোক্তা ও জীবনচর্যা বিপণন, জনসম্পর্ক, গণ মাধ্যম সম্পর্ক, ইভেন্ট প্রচার এবং যোগাযোগ দক্ষতা প্রশিক্ষণে। ২০১৪ সালে, নিউইয়র্ক অবজারভার সানশাইন স্যাশকে নিউইয়র্কের এক নম্বর জনসংযোগ সংস্থা হিসাবে নাম দিয়েছিল।[৯]

তাঁর গ্রাহকদের মধ্যে আছেন জন থেইন, বারবারা স্ট্রাইস্যান্ড, বেন অ্যাফ্লেক, মাইকেল জ্যাকসনের তালুক এবং হার্ভে ওয়েইনস্টেইন[১০][১১][১২] ২০০৪ সালের ফেব্রুয়ারিতে, জেনেট জ্যাকসনের সঙ্গে জাস্টিন টিম্বারলেকের সুপার বোল ৩৮ খেলার অনুষ্ঠানে টিম্বারলেকের "পোশাক বিভ্রাটের" পর টিম্বারলেককে নিয়ে আসা তাঁর সর্বাধিক পরিচিত কাজের মধ্যে ছিল। ২০০৯ পর্যন্ত তাঁর গ্রাহকদের নয়-দশমাংশ কোন বিখ্যাত মানুষ ছিলেন না।

গ্রাহকদের জন্য উইকিপিডিয়া সম্পাদনা[সম্পাদনা]

২০১৫ সালের জুনে, সানশাইন স্বীকার করেন যে তাঁর সংস্থা গ্রাহকদের উইকিপিডিয়া পৃষ্ঠায় তাদের সম্পর্কে নেতিবাচক উপাদানগুলি সম্পাদনা করে সরিয়ে দেওয়ার জন্য অর্থপ্রাপ্ত সম্পাদকদের নিয়োগ করেছে। এই কাজটি উইকিপিডিয়া হাল নাগাদ করা পরিষেবার শর্তাদি লঙ্ঘন করেছিল। সানশাইন স্যাশ বলে যে তাদের কর্মীরা সম্পাদনা করার সময় ফার্মের সাথে তাদের সম্পর্ক প্রকাশ করতে পারেনি, এবং একজন প্রধান কর্মী অর্থের বিনিময়ে সম্পাদনায় উইকিপিডিয়ার নীতি সম্পর্কে জানতনা। সানশাইন জানান এখন থেকে উইকিপিডিয়া সম্পাদনায় নিযুক্ত সমস্ত কর্মচারী যথাযথভাবে লেখা প্রকাশ করে। সানশাইন স্যাশ যে সমস্ত বিখ্যাত ব্যক্তিদের উইকিপিডিয়া নিবন্ধ সম্পাদনা করেছে তাদের মধ্যে আছেন নেওমি ক্যাম্পবেল, মিয়া ফ্যারো এবং সারা ব্রাইটম্যান[১৩] খ্যাতিমান ব্যক্তিরা নিজেরা এই সম্পাদনা সম্পর্কে সচেতন ছিলেন কিনা তা স্পষ্ট নয়। [১৩]

দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস জানিয়েছে যে গ্রাহকদের কাছে একটি ইমেলে বলা হয়েছে "সানশাইন স্যাশেতে বেশ কয়েকজন অভিজ্ঞ সম্পাদক কর্মী রয়েছে যাদের উইকিপিডিয়ায় প্রোফাইল আছে," এবং “বিদ্যমান পৃষ্ঠাগুলিতে আমরা যে পরিবর্তনগুলি করেছি তা খুব কমই অভিযোগের মুখোমুখি হয়।” সানশাইন বলেছেন যে তিনি বিশ্বাস করেন যে উইকিপিডিয়ায় তাঁর ফার্মের করা সম্পাদনাগুলি ২০১৪ সালের জুন মাসের আগেকার, এরপরে উইকিপিডিয়া নীতি অনুসরণ করে নীতিমালায় পরিবর্তন করা হয়েছিল।[১৩]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

তিনি ন্যানসি হল্যান্ডারের সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন এবং তাঁদের দুটি সন্তান রয়েছে।[১৪] তাঁর পুত্র জেসন হল্যান্ডার সানশাইন, একজন কলম্বিয়া - প্রশিক্ষিত আইনজীবী এবং তাঁর পুত্রবধূ সামান্থা হেলেন লন্ডন একজন বার্নার্ড কলেজ স্নাতক। সামান্থার বাবা ব্যারি লন্ডন প্যারামাউন্ট পিকচার্সের মোশন পিকচার গ্রুপের উপ সভাপতি এবং অধ্যক্ষ ছিলেন।[১৫][১৬][১৭]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Hawkins, Andrew। "PR pros tell mayor how to recover"Crains.com। Crains। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ডিসেম্বর ২০১৪ 
  2. Weiss, Rebecca (অক্টোবর ২৪, ২০০৭)। "The Cornell Connection: Ken Sunshine '70"। Cornell Sun। সংগ্রহের তারিখ ৮ জুলাই ২০১৫ 
  3. Smith, Elizabeth (১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৪)। "Ken Sunshine joins The Met's board of trustees"Page Six। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ডিসেম্বর ২০১৪ 
  4. Campbell, Colin (৬ ডিসেম্বর ২০১২)। "Bill De Blasio For NYC Mayor: Can The Public Advocate Go From Master Strategist To Mister Mayor?"www.huffingtonpost.com। Huffington Post। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ডিসেম্বর ২০১৪ 
  5. "Mario Cuomo Advisor Remembers the Former Governor"NY1। ১ জানুয়ারি ২০১৫। ৬ জানুয়ারি ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ জানুয়ারি ২০১৫ 
  6. Nagourney, Andrew; Craig, Susanne (২ জানুয়ারি ২০১৫)। "One Last Confluence for Mario and Andrew Cuomo, Proud Rivals"New York Times। সংগ্রহের তারিখ ৬ জানুয়ারি ২০১৫ 
  7. Taylor, Bill (নভেম্বর ২১, ২০১৩)। "Bill De Blasio's Two New Rabbinical Allies"Tablet 
  8. n/a, n/a। "The Influentials: Media"www.nymag..com। New York Magazine। সংগ্রহের তারিখ ১১ জুলাই ২০১৪ 
  9. Kaminer, Michael (১৯ নভেম্বর ২০১৪)। "New York's Top 50 Public Relations Agencies"New York Observer। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ডিসেম্বর ২০১৪ 
  10. Bernstein, Jacob (১২ সেপ্টেম্বর ২০১৪)। "Barbra Streisand, a Voice to Be Reckoned With"www.nyt.comNew York Times। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ডিসেম্বর ২০১৪ 
  11. WEISMAN, ALY। "Meet The 20 Most Powerful Publicists In Hollywood [Ranked]"www.businessinsider.com। Business Insider। সংগ্রহের তারিখ ১১ জুলাই ২০১৪ 
  12. Twohey, Megan (১৫ অক্টোবর ২০১৭)। "How Weinstein Used Lawyers and Money To Evade 2015 Case"www.nyt.comNew York Times। সংগ্রহের তারিখ ১৫ অক্টোবর ২০১৭ 
  13. Cieply, Michael (জুন ২২, ২০১৫)। "Wikipedia Pages of Star Clients Altered by P.R. Firm"The New York Times। সংগ্রহের তারিখ জুন ২৩, ২০১৫ 
  14. Politico: "De Blasio ally to hold Clinton fundraiser" by Annie Karni June 5, 2015
  15. "Samantha London, Jason Sunshine"The New York Times (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৯-১২-০৮। আইএসএসএন 0362-4331। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-১১ 
  16. Harmetz, Aljean; Times, Special To the New York (১৯৮৮-১১-২২)। "President of the Film Group At Paramount Steps Down"The New York Times (ইংরেজি ভাষায়)। আইএসএসএন 0362-4331। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-১১ 
  17. Eller, Claudia (১৯৯৬-০৯-১০)। "Paramount Veteran Barry London Resigns"Los Angeles Times (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-১১ 

.

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]