কিলিমাঞ্জারো

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
কিলিমাঞ্জারো পর্বত
Mount Kilimanjaro
Mount Kilimanjaro.jpg
কিলিমঞ্জারো পর্বতের কিবো শীর্ষ
সর্বোচ্চ সীমা
উচ্চতা৫,৮৯৫ মিটার (১৯,৩৪১ ফুট)
সুপ্রত্যক্ষতা৫,৮৮৫ মিটার (১৯,৩০৮ ফুট) [১]
চতুর্থ স্থানে রয়েছে[২]
বিচ্ছিন্নতা[রূপান্তর: একটি সংখ্যা প্রয়োজন]
তালিকাসমূহ
স্থানাঙ্ক০৩°০৪′৩৩″ দক্ষিণ ৩৭°২১′১২″ পূর্ব / ৩.০৭৫৮৩° দক্ষিণ ৩৭.৩৫৩৩৩° পূর্ব / -3.07583; 37.35333স্থানাঙ্ক: ০৩°০৪′৩৩″ দক্ষিণ ৩৭°২১′১২″ পূর্ব / ৩.০৭৫৮৩° দক্ষিণ ৩৭.৩৫৩৩৩° পূর্ব / -3.07583; 37.35333
ভূগোল
কিলিমাঞ্জারো পর্বত Mount Kilimanjaro তানজানিয়া-এ অবস্থিত
কিলিমাঞ্জারো পর্বত Mount Kilimanjaro
কিলিমাঞ্জারো পর্বত
Mount Kilimanjaro
তানজানিয়ায় কিলিমঞ্জারোর অবস্থান
কিলিমাঞ্জারো পর্বত Mount Kilimanjaro আফ্রিকা-এ অবস্থিত
কিলিমাঞ্জারো পর্বত Mount Kilimanjaro
কিলিমাঞ্জারো পর্বত
Mount Kilimanjaro
তানজানিয়ায় কিলিমঞ্জারোর অবস্থান
অবস্থানকিলিমঞ্জারো অঞ্চল, তাঞ্জানিয়ার উত্তর-পূর্বে
মূল পরিসীমাপূর্ব রাইফট পর্বত
তোপ মানচিত্রKilimanjaro map and guide by Wielochowski[৩]
ভূতত্ত্ব
শিলার বয়স৩ মিলিয়ন বছর
পর্বতের ধরনস্ট্র্যাটোভলক্যানো
সর্বশেষ অগ্ন্যুত্পাতনিকট ইতিহাসে হয় নি।
আরোহণ
প্রথম আরোহণ৬ অক্টোবর ১৮৮৯ সালে হ্যান্স মায়ার, লুডভিগ পুর্টশিলার, ইয়োহানেস কিন্যালা লাউও
সহজ পথহাইকিং করে।
কিলিমানজারো পর্বতশৃঙ্গের ছবি

কিলিমানজারো (বা কিলিমান্‌জারো, সোয়াহিলি ভাষায় যার অর্থ "উজ্জ্বল পর্বত") [৪][৫] আফ্রিকা মহাদেশের সর্বোচ্চ পর্বত। এটি উত্তর-পূর্ব তানজানিয়াতে কেনিয়ার সাথে সীমান্তে অবস্থিত। কিলিমানজারো একটি মৃত আগ্নেয়গিরি। এর দুইটি শৃঙ্গ ১১ কিমি দূরত্বে অবস্থিত এবং একটি খাড়া ঢালের মাধ্যমে যুক্ত। উচ্চতর শৃঙ্গটির নাম কিবো এবং এটি সমুদ্র সমতল থেকে ৫,৮৯৫ মিটার উঁচুতে অবস্থিত। মাওয়েসি নামের অপর শৃঙ্গটি ৫,১৪৯ মিটার উঁচুতে অবস্থিত। যদিও কিলিমানজারো বিষুবরেখার মাত্র ৩ ডিগ্রী দক্ষিণ অক্ষাংশে অবস্থিত, কিবোর জ্বালামুখ সর্বদাই বরফে আবৃত থাকে। মার্কিন লেখক আর্নেস্ট হেমিংওয়ের বিখ্যাত গল্প "দ্য স্নোজ অফ কিলিমানজারো" (১৯৩৮) এই অঞ্চলের পটভূমিতে রচিত হয়েছে। কিলিমানজারোর খাড়া ঢালে বেশ কয়েকটি ভিন্ন প্রকৃতির উদ্ভিজ্জ অঞ্চল আছে। ঢালের নিম্ন অংশে কফি ও প্ল্যান্টেন চাষ করা হয়। ১৮৮৯ সালে জার্মান ভূবিজ্ঞানী হান্স মেয়ার এবং অস্ট্রীয় পর্বতারোহী লুডভিগ পুর্টশেলার প্রথম পর্বতটির শীর্ষে আরোহণে সক্ষম হন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Kilimanjaro"। Peakbagger.com। ১২ সেপ্টেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৬ আগস্ট ২০১২ 
  2. "World Peaks with 4000 meters of Prominence"Peakbagger.com। ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৮ নভেম্বর ২০১৫ 
  3. Kilimanjaro Map and tourist Guide (মানচিত্র) (4th সংস্করণ)। 1:75,000 with 1:20,000 and 1:30,000 insets। EWP Map Guides। EWP দ্বারা মানচিত্রাঙ্কন। EWP। ২০০৯। আইএসবিএন 0-906227-66-6। ১৭ জুলাই ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  4. "SRTM TANZANIA IMAGES" (Kilimanjaro or Kilima Njaro description), NASA, August 28, 2005, webpage: NASA-Tanzania.
  5. "Kilima-Njaro" (alternate name in 1907), The Nuttall Encyclopædia, 907, FromOldBooks.com, 2006, webpage: FOB-Njaro.