আলিয়া বিনতে আহমেদ আল থানি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
আলিয়া বিনতে আহমেদ আল থানি
عليا بنت احمد آل ثاني
Special event - Panel discussion, Mainstreaming Sustainability into Trade and Development Policies Towards the Rio+20 Summit (7112264733).jpg
জাতিসংঘ কাতার এর স্থায়ী সদস্য
দায়িত্বাধীন
অধিকৃত কার্যালয়
২৪ অক্টোবর ২০১৩
পূর্বসূরীমেশাল হামাদ এম.জে. আল থানি
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্মদোহা, কাতার
প্রাক্তন শিক্ষার্থীএসওএএস, লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয় এবং কাতার বিশ্ববিদ্যালয়

আলিয়া বিনতে আহমেদ আল থানি, একজন কাতারি কূটনৈতিক যিনি বর্তমানে জাতিসংঘে কাতারের স্থায়ী প্রতিনিধি হিসাবে কাজ করছেন। [১]

ব্যক্তি জীবন[সম্পাদনা]

তার পিতা আহমেদ বিন সাইফ আল থানি একজন সাবেক কূটনীতিবিদ। এছাড়া তার চাচাও একজন কূটনীতিবিদ হিসাবে সেবা করেছেন।[২] তিনি কাতার বিশ্ববিদ্যালয়ে অর্থনীতিতে স্নাতক ডিগ্রি (বি.এস) অর্জন করেন এবং ২০০৬ সালে লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয়ের এসওএএস (স্কুল অব অরিয়েন্টাল এন্ড আফ্রিকান স্টাডিজ) থেকে আন্তর্জাতিক গবেষণা ও কূটনীতিতে এমএ ডিগ্রী অর্জন করেন।[৩]

কর্ম জীবন[সম্পাদনা]

২০০৪ সালের জুন থেকে ২০০৭ সালের মার্চ মাস পর্যন্ত আল থানি সুপ্রিম কাউন্সিল ফর ফ্যামিলি অ্যাফেয়ার্সের শিশু অধিকার বিভাগের পরিচালক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন। [১] ২০০৯ সালের জুনে জাতিসংঘের দূত হওয়ার আগে তিনি এপ্রিল ২০০৭ থেকে মে ২০০৯ পর্যন্ত জাতিসংঘ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপদেষ্টা হিসেবে কাজ করেছিলেন। তিনি মে ২০১০ থেকে জুলাই ২০১১ পর্যন্ত জাতিসংঘে কাতারের অতিরিক্ত স্থায়ী প্রতিনিধি হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। ২৪ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে তাকে জাতিসংঘ কাতারের স্থায়ী প্রতিনিধি হিসাবে ঘোষণা করা হয়।[১]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "New permanent representative of Qatar presents credentials"। United Nations। ২৪ অক্টোবর ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১৭ মার্চ ২০১৫ 
  2. "Qatar's UN ambassador looks to break barriers"। Al Monitor। ৮ মার্চ ২০১৫। ২০১৫-০৩-১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ মার্চ ২০১৫ 
  3. "Curriculum vitae" (PDF)। Office of the High Commissioner for Human Rights। সংগ্রহের তারিখ ১৭ মার্চ ২০১৫