আলতাব আলী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
আলতাব আলী
জন্ম১৯৫৩
মৃত্যু৫ এপ্রিল ১৯৭৮(১৯৭৮-০৪-০৫) (২৫ বছর)
হোয়াইটচ্যাপেল, টাওয়ার হ্যামলেট্‌স, লন্ডন, ইংল্যান্ড
সমাধিটাওয়ার হ্যামলেট্‌স, লন্ডন, ইংল্যান্ড
জাতীয়তাবাংলাদেশী

আলতাব আলী (১৯৫৩– ৪ মে ১৯৭৮) একজন বাংলাদেশী নাগরিক ছিলেন, যিনি ১৯৭৮ খ্রিষ্টাব্দে ইংল্যান্ডে বর্ণবিদ্বেষীদের হামলায় নিহত হয়েছিলন। আলতাব আলী বাড়ি বাংলাদেশের সিলেট জেলায় ছিল। পেশায় তিনি একজন বস্ত্র শ্রমিক ছিলেন।

হত্যা[সম্পাদনা]

১৯৭৮ সালের ৪ঠা মে বৃহস্পতি বার, সন্ধ্যা অণুমানিক ৭.৪০ মিনিট কাজ শেষে রাতে বাসস্থানে ফেরার পথে পূর্ব লন্ডনের এডলার স্ট্রিটে বর্ণবাদীদের হাতে খুন হন।[১] তার মৃত্যুর পর লন্ডনের বাঙালি সম্প্রদায় বর্ণবাদবিরোধী প্রতিবাদে নামেন। এসময় বাঙ্গালিদের সাথে লন্ডনে বসবাসকারী আফ্রিকান এবং এশীয়রা প্রতিবাদে যোগ দেন। ফলে অল্পদিনের মধ্যেই আন্দোলন মারাত্মক আকার ধারণ করে। প্রশাসনের তরফে আলতাব আলীর তিন হত্যাকারীদের গ্রেপ্তার করা হয়। বিচারের পরে আদালত ১৯৭৯ সালের জানুয়ারি মাসে এদের একজনকে ছুরিকাঘাতের জন্যে সাত বছরের জেল এবং বাকি দুইজনকে সাহায্য করার জন্যে তিন বছর করে জেল দেয়। পরে ১৯৯৮ সালে আলতাব আলীর প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে সেন্ট মেরী পার্ক যেখানে আলতাব আলীকে খুন করা হয়েছিল তাকে আনুষ্ঠানিকভাবে আলতাব আলী পার্ক হিসেবে নামান্তর করা হয়।> এটি আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের তৎকালীন স্পিকার হুমায়ুন রশীদ চৌধুরী।

আলতাব আলী পার্কার শহীদ মিনার

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

তথ্যসুত্র[সম্পাদনা]