২০২০ সালের সুইডেন দাঙ্গা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
২০২০ সালের সুইডেন দাঙ্গা
স্থানমালমো, সুইডেন
তারিখ২৯ শে অগাস্ট ২০২০
হামলার ধরনদাঙ্গা
ব্যবহৃত অস্ত্রপাথর, অগ্নি সংযোগ, ধাতব দন্ড
অংশগ্রহণকারীর সংখ্যা
৩০০
রক্ষাকারীগণমালমো পুলিশ বিভাগ
ডেনিশ দাঙ্গা যানবাহন সমর্থন

২০২০ সালের ২৯ শে আগস্ট সুইডিশ মালমো শহরে দাঙ্গা শুরু হয়।[১][২][৩] ডেনিশ নেতার সভা বৈঠক করার অনুমতি প্রত্যাখ্যান ও ২ বছরের জন্য সুইডেনে প্রবেশ নিষিদ্ধ করার বিরুদ্ধে অভিবাসন বিরোধী অতি ডানপন্থী কর্মীদের দ্বারা কুরআন জ্বালানোর প্রতিবাদে ৩০০ জনের শক্তিশালী ভিড় বিক্ষোভ সমাবেশ করে।[৪][৫] দাঙ্গাকারীরা টায়ার জ্বালিয়ে দেয়, পাথর নিক্ষেপ করে ও কংক্রিটের অংশ পুলিশে ছুঁড়ে মারে এবং বাসের আশ্রয়কেন্দ্রগুলি ভেঙে দেয়; প্রত্যক্ষদর্শীরা 'আল্লাহু আকবর' এবং 'লা ইলাহা ইলাল্লাহ' চিৎকার শুনেছিল।[৬][৭]

ঘটনা[সম্পাদনা]

২৬ আগস্ট, ২০২০ তারিখে মালমোর পুলিশ ডেনমার্কের অতিদক্ষিণপন্থী রাজনীতিবিদ এবং ডেনমার্কের চরমপন্থী হার্ড লাইন পার্টির নেতা রাসমাস পালুদানের "নর্ডিক দেশগুলোতে ইসলামীকরণ" নামে একটি সভা করার অনুমতিকে প্রত্যাখ্যান করে।[৮] ২৮ আগস্ট তাকে নির্বাসিত করা হয় এবং সুইডেনে তার প্রবেশ নিষিদ্ধ করা হয়। [৫] তা সত্ত্বেও তার সমর্থকরা এই অনুষ্ঠানটি করে,[৯] তারা কুরআনের একটি অনুলিপি পুড়িয়ে দেয় এবং বিকালে[১০] মালমোর প্রধান চত্বরের কাছে কুরআনের আরেকটি অনুলিপিকে লাথি মারে।[৫] বিকেলে।

সন্ধ্যা ৭টার দিকে প্রায় ৩০০ লোক রোসেনগার্ড সেন্ট্রাল শপিং সেন্টারের দক্ষিণে মালমোর আমিরালস্গাতান সড়কে কুরআন জ্বালানোর বিরুদ্ধে একটি বিক্ষোভের জন্য জড়ো হয়,[১১] যা শীঘ্রই সহিংস আকার ধারণ করে।[১২]

দাঙ্গাকারীরা পুলিশের দিকে কংক্রিট ও পাথরের টুকরো নিক্ষেপ করে, বাস ভাংচুর করে, ল্যাম্পপোস্ট উল্টে দেয় এবং জিনিসপত্র পুড়িয়ে দেয়। ভোর ৩টা পর্যন্ত দাঙ্গা চলতে থাকে। প্রত্যক্ষদর্শীরা 'আল্লাহ্‌ হু আকবর' এবং "লা ইলাহা ইল্লাল্লাহ্‌" চিৎকার শুনতে পান।[১৩][১৪]

২৯ আগস্ট নরওয়ের অসলোতে ইসলাম বিরোধী এবং ইসলাম সমর্থকদের মধ্যে সহিংস বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়।[১৫]

পরিণতি[সম্পাদনা]

দাঙ্গায় প্রায় ১৫ জনকে গ্রেফতার করা হয় এবং বেশ কয়েকজন পুলিশ কর্মকর্তা আহত হন। [১৬]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Riot in Sweden amidst Quran-burning rally"nst.com.my। New Straits Time। আগস্ট ২৯, ২০২০। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ২৯, ২০২০ 
  2. "Sweden: Riots break out in Malmo after right-wing activists engage in 'anti-Islamic' activities"dnaindia.com। Daily News and Analysis। আগস্ট ২৯, ২০২০। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ২৯, ২০২০ 
  3. "সুইডেনে মুসলিম বিদ্বেষী মিছিল থেকে ছড়াল দাঙ্গা, বহিষ্কৃত ড্যানিশ নেতা"। হিন্দুস্থান টাইমস বাংলা। ২৯ অগাস্ট ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ২৯ অগাস্ট ২০২০ 
  4. "Riots in Sweden's Malmo after anti-Muslim Danish leader blocked from 'Quran-burning rally', given two-year ban"FirstpostAgence France-Presse। আগস্ট ২৯, ২০২০। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ২৯, ২০২০ 
  5. Orange, Richard (২৯ আগস্ট ২০২০)। "Riots rock Malmö after far-right Swedish activists burn Qur'an"The Observer। সংগ্রহের তারিখ ২৯ আগস্ট ২০২০ 
  6. "Riots in Malmö after far-right activists burn Koran"www.thelocal.se। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  7. World, Republic। "Sweden rocked by violence, stone pelting & vandalism after anti-islamic action: Reports"Republic World। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  8. "Explained: Why have violent riots broken out in the Swedish city of Malmo?"indianexpress.com। আগস্ট ২৯, ২০২০। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ২৯, ২০২০ 
  9. "Riots in Sweden's Malmo after anti-Muslim Danish leader blocked from 'Quran-burning rally', given two-year ban"FirstpostAgence France-Presse। আগস্ট ২৯, ২০২০। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ২৯, ২০২০ 
  10. "Riots in Sweden After Quran Burning by Far-Right Activists"New York TimesAssociated Press। আগস্ট ২৯, ২০২০। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ২৯, ২০২০ 
  11. "Våldsamt upplopp efter Koranbränning"www.expressen.se (সুইডিশ ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  12. "Malmö Koran riots: 'I don't think we will come back to normal'"www.thelocal.se। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  13. "Riots in Malmö after far-right activists burn Koran"The Local। ২০২০-০৮-২৯। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  14. Pritesh Kamath। "Sweden rocked by violence, stone pelting & vandalism after anti-islamic action: Reports"Republic World। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  15. "Norway Riots: Anti-Islam riots erupt in Norway after Sweden, copies of Quran torn"। ২০২০-০৮-৩০। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-৩০ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  16. "Riots in Sweden after Quran burning by far-right activists"AP NEWS। ২০২০-০৮-২৯। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]