স্পর্শ ব্রেইল প্রকাশনা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
স্পর্শ ব্রেইল প্রকাশনা
অবস্থাসক্রিয়
প্রতিষ্ঠাকাল২০০৮; ১৩ বছর আগে (2008)
প্রতিষ্ঠাতানাজিয়া জাবীন
দেশবাংলাদেশ
সদরদপ্তরঢাকা, বাংলাদেশ
প্রকাশনাদৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের বই[১]
ওয়েবসাইটhttps://sporsho.org/

স্পর্শ ব্রেইল প্রকাশনা ব্রেইল বইয়ের একটি বাংলাদেশী প্রকাশক। দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের জন্য বিনামূল্যে বই বিতরণ করে।[২][৩]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

সংস্থাটি ২০০৮ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল।[৪] শিশু লেখক নাজিয়া জাবীন, তার নিকটাত্মীয়ের সড়ক ট্র্যাফিক দুর্ঘটনায় দৃষ্টিশক্তি হারানোর পরে অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন।[৫][৬][৭] ২০০৯ সালে স্পর্শ দ্বারা প্রকাশিত প্রথম বইটি ছিল জাবীনের নিজের ছড়ার তালে মনটা দোলে।[৮] প্রথমদিকে বাংলাদেশের কয়েকটি ব্রেইল প্রেসের পরিষেবাদি সুরক্ষিত করতে অক্ষম, প্রথম মুদ্রণ ছিল একটি ব্রেইল টাইপরাইটারে ২৬ টি কপি হাতে-টাইপ করা। এগুলি দুটি স্কুলে ত্রিশ জনকে বিতরণ করা হয়েছিল

একটি ব্রেইল বই

কার্যক্রম[সম্পাদনা]

২০১১ সালে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশের বইয়ের একুশে বইমেলায় প্রকাশকের একটি স্টল নিয়েছিল, তখন হতে নিয়মিতভাবে তাদের স্টল থাকে।[৯] দৃষ্টি প্রতিবন্ধী দর্শনার্থীদের সারাদিন স্টলে পড়ার অনুমতি দেওয়া হয়[১০] এবং নিবন্ধের বিনিময়ে বিনামূল্যে বই দেওয়া হয়।[১১] স্কুল এবং গ্রন্থাগারগুলিতেও বই দান করা হয়।

২০২০ পর্যন্ত, স্পর্শ ব্রেইলে ৬৮ টি বই প্রকাশ করেছে।[১২] তাদের মধ্যে হুমায়ূন আহমেদ, মুহাম্মদ জাফর ইকবাল এবং ইমদাদুল হক মিলন এর জনপ্রিয় কল্পকাহিনী অন্তর্ভুক্ত রয়েছে শিশুসাহিত্যিক লুৎফর রহমান রিটন সৈয়দ শামসুল হক রচিত কবিতা এবং বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে মফিদুল হকনীলিমা ইব্রাহিম লেখক বই প্রকাশ করে। স্পার্শ মার্গারেট ডেভিডসনের ১৯৭১ সালের জীবনী লুই ব্রেইল ১৯৯৮ সালে প্রকাশ করেছিলেন, বাংলাদেশে প্রকাশিত পাঠ্যপুস্তক ব্যতীত প্রথম ইংরেজি ভাষার ব্রেইল বই।[৫][৬]

পুরস্কার[সম্পাদনা]

  • সমাজসেবার জন্য প্রতিষ্ঠাতা নাজিয়া জাবীন ২০১৭ সালে অনন্যা শীর্ষ দশ পুরস্কার পায়।[১৩]
  • দৃষ্টি প্রতিদ্বন্দ্বিতাগুলি উপকারের জন্য তাঁর অবদানের জন্য জাবীন ২০১০ সালে উইমেন ইন লিডারশিপ থেকে "অনুপ্রেরণামূলক মহিলা স্পিরিট" পুরস্কার পেয়েছিলেন।[১৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "স্পর্শ দৃষ্টিপ্রতিবন্ধীদের প্রকাশনী"। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  2. "নাজিয়া জাবীনের স্পর্শ ব্রেইল"। ৪ জুন ২০২০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  3. "দৃষ্টিজয়ীদের বন্ধু নাজিয়া"। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  4. "Sporsho launches 14 Braille books"The Daily Star। ৭ জানুয়ারি ২০১৮। 
  5. "Sporsho's Journey of Conquering Vision"The Daily Star। ১২ জানুয়ারি ২০১৮। 
  6. দৃষ্টিজয়ীদের বন্ধু নাজিয়া [Eyesight Friend Nazia]। Kaler Kantho। ৮ মার্চ ২০১৯। 
  7. "দৃষ্টিজয়ীদের বাতিঘর"। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  8. "Blind boy travels from Narayanganj daily to read braille books"Dhaka Tribune। ৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯। 
  9. "First ever Braille books at SUST Central Library" (PDF)The Librarian Times। খণ্ড 3 নং 7। Dhaka। ১৮ মার্চ ২০১৮। 
  10. "মনের আলোয় বই পড়েন তারা"। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  11. "মেলায় বিনামূল্যে ব্রেইল বই পাচ্ছেন দৃষ্টিহীনরা"। ৪ জুন ২০২০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  12. "আমাদের জন্য দুই-একটা বই করলে ক্ষতি হতো না"। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  13. "অনন্যা শীর্ষ দশ সম্মাননা পেলেন ১০ কৃতী নারী"। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুন ২০২০ 
  14. "Women's contribution to social progress recognised"The Daily Star। ১০ মার্চ ২০১৯।