মারি এলিন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মারি এলিন
Marie Eline - Thanhouser Kid 1910.jpg
১৯১০ সালে মারি এলিন
স্থানীয় নাম
Marie Eline
জন্ম
আনা মারি এলিন

(1902-02-27) ফেব্রুয়ারি ২৭, ১৯০২ (বয়স ১১৭)
মৃত্যু৩ জানুয়ারি ১৯৮১(1981-01-03) (বয়স ৭৮)
মৃত্যুর কারণহার্ট অ্যাট্যাক
অন্য নামদ্য থানহাউসার কিড
জাতিসত্তামার্কিন
নাগরিকত্বমার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
পেশাশিশু অভিনেতা
কার্যকাল১৯১০–১৯১৪
দাম্পত্য সঙ্গীজুনিয়র মিল্টন এডওয়ার্ড বেইসার (বি. ১৯২২)
সন্তানমারি এলিজাবেথ (মেয়ে)
পিতা-মাতা
  • চার্লস এলিন (পিতা)
  • গ্রেস এলিন (মাতা)
আত্মীয়গ্রেস এলিন (বোন)

আনা মারি এলিন (ফেব্রুয়ারি ২৭, ১৯০২ – জানুয়ারি ৩, ১৯৮১) ছিলেন মার্কিন নির্বাক চলচ্চিত্র শিশু অভিনেত্রী। তিনি অভিনেত্রী গ্রেস এলিনের বোন।[১] দ্য থানহাউসার কিড ছদ্মনামে তিনি আট বছর বয়স থেকেই নিউ রোশেল, নিউ ইয়র্কের থানহাউসার কোম্পানির চলচ্চিত্রে অভিনয় শুরু করেন এবং ১৯১০ থেকে ১৯১৪[২] সালের মধ্যে ঠিক একশটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন। তার প্রথম মুক্তিপ্রাপ্ত চলচ্চিত্র অ্যা টোয়েন্টিনাইন-সেন্ট রবারি (১৯১০), যেখানে তিনি একটি প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন।

জীবনী[সম্পাদনা]

১৯১৩ সালে এলিন

আনা মারি এলিন ফেব্রুয়ারি ২৭, ১৯০২ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মিলওয়াকি, উইসকনসিন অঙ্গরাজ্যে জন্ম নেন। তার বাবা চার্লস এলিন এবং মা গ্রেস এলিন। মারি ১৯১০ সালে তার সাত বছর বয়সের শুরুতেই থানহাউসার কোম্পানির অ্যা টোয়েন্টিনাইন-সেন্ট রবারি চলচ্চিত্রে এডনা রবিনসন চরিত্রে অভিনয় করেন। কয়েকজন অভিনেত্রীদের মধ্যে তিনি একজন যিনি তার প্রথম চলচ্চিত্রে প্রধান চরিত্রে অভিনয়ের সুযোগ পেয়েছিলেন। মারি সহজেই ছেলে ও মেয়ে শিশু চরিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে নিজের বহুমুখী পারদর্শীতা প্রমাণ করেছিল, এমনকি দ্য জাজেস স্টোরি (১৯১১) চলচ্চিত্রে তিনি একটি কৃষ্ণাঙ্গ ছেলের চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। তিনি সমানভাবে সমালোচক এবং দর্শকদের কাছ থেকে জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন। থানহউসারের অন্যান্য শিশু অভিনেতাদের থেকে আলাদাভাবে শুধুমাত্র মারি "থানহাউসার কিড" নামে পরিচিত হয়ে ওঠেন।[২][৩]

১৯১৩ সালে ১১ বছর বয়সে, তিনি অন্তত একটি নাটকে উপস্থিতির মাধ্যমে নিজেকে প্রসারিত করার সিদ্ধান্ত নেন। সেই বছরই থানহউসার "শিশু" চরিত্রের বাইরে তাকে মর্যাদাপূর্ণ "প্রিন্সেস ফিল্মস" বিভাগে কাজ করার সুযোগ দেন। সে সময়ে দুর্ভাগ্যবশত, জনপ্রিয়তা হ্রাস পাবার কারণে তার চলচ্চিত্রের সংখ্যা কমছে। অবশেষে ১৯১৪ সালে তিনি থানহউসার থেকে বেড়িয়ে আসেন। পরর্তীতে তিনি ওয়ার্ল্ড ফিল্মসের সঙ্গে আঙ্কেল টম'স কেবিন (১৯১৪) চলচ্চিত্রের জন্য চুক্তিবদ্ধ হন। তিনি কয়েক বছরের জন্য থিয়েটারে কাজ করেছেন, এরপর ১৯১৯ সালে লস অ্যাঞ্জেলেসের কম বাজেটেের ন্যাশনাল ফিল্ম কর্পোরেশনের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হন।[২][৩]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

মারি এলেন ১৯২২ সালে রিভারসাইড, ক্যালিফোর্নিয়ায় জুনিয়র মিল্টন এডওয়ার্ড বেইসারকে বিয়ে করেন। মার্চ ৪, ১৯২৪ সালে লস এঞ্জেলেসের ক্লারা বার্টন হাসপাতালে তাদের একমাত্র মেয়ে মারি এলিজাবেথ জন্ম নেয়।[২]

মারি এলিন জানুয়ারি ৩, ১৯৮১ সালে লংভিউ, ওয়াশিংটনে মারা যান।[২]

চলচ্চিত্রতালিকা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Marie Eline Obituary"। Variety। ২৮ জানুয়ারি ১৯৮১। আইএসএসএন 0042-2738 
  2. "ELINE, Marie (The Thanhouser Kid)"http://thanhouser.org (ইংরেজি ভাষায়)। থানহউসার কোম্পানি। ৩ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ২৪, ২০১৫  |ওয়েবসাইট= এ বহিঃসংযোগ দেয়া (সাহায্য)
  3. "'মারি এলিন - জীবনী"imdb.com (ইংরেজি ভাষায়)। আইএমডিবি। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ২৪, ২০১৫ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]