বাওবাব

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
বাওবাব
Baobab Adansonia digitata.jpg
Adansonia digitata in তানজানিয়া
বৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্য: Plantae
(শ্রেণীবিহীন): Angiosperms
(শ্রেণীবিহীন): Eudicots
(শ্রেণীবিহীন): Rosids
বর্গ: Malvales
পরিবার: Malvaceae
উপপরিবার: Bombacoideae
গণ: Adansonia
L.[১]
Species

See Species section

Adansonia grandidieri, মাদাগাস্কার

বাওবাব গাছটি Adansonia গণের অন্তর্ভুক্ত। এই গাছ মূলত পাওয়া যায় শুষ্কভূমিতে। বিশেষত আফ্রিকা এবং আরবের মরু অঞ্চলের বৃক্ষহীন তৃণভূমিতে এই গাছ দেখা যায়। আফ্রিকা, আরব এবং অস্ট্রেলিয়া এর আদি নিবাস।

বৈশিষ্ট্য
এই গাছের মূল বৈশিষ্ট্য হচ্ছে গাছটি একহারা গড়নের। মাটি থেকে বিশাল আকারের কাণ্ড লম্বা হয়ে সোজা উপরের দিকে উঠে গেছে। একেবারে মাথায় ঝোপঝাড়ের মতো কিছু ডালপালা ছড়ানো আছে। দেখে মনে হয় ছাতার মতো। তবে পাতাগুলো এমন যে দূর থেকে দেখে কেউ ভুল করে ভাবতে পারে গোড়া থেকে গাছটিকে উপড়ে নিয়ে মাথার দিকটা মাটিতে পুঁতে ফেলা হয়েছে এবং গাছের শিকড়বাকড়গুলো উপরের দিকে ছড়ানো। তবে বছরের বারো মাসের মধ্যে নয় মাসই এই গাছে কোনো পাতা থাকে না। তখন একে অনেকটা মরা গাছের মতো দেখায়।

এই গাছ উচ্চতায় প্রায় ৭৫ ফুট লম্বা হয়। মরু অঞ্চলের গাছ বলে খুব কম পানিতেই এর প্রয়োজন মিটে যায়। বর্ষাকালে এই গাছ তার দীর্ঘ কাণ্ডের মধ্যে পানি জমিয়ে রাখে। সবচেয়ে অবাক বিষয় হলো, এই গাছ কয়েক হাজার বছর বেঁচে থাকে।

উপকারিতা
বাওবাব গাছ মরু অঞ্চলের মানুষের অনেক উপকারে আসে। এই গাছের প্রতিটি অংশই মানুষের সরাসরি কাজে আসে। গাছের বাকল দিয়ে পোশাক ও শক্ত দড়ি তৈরি হয়। এই গাছের ফল খাওয়া যায় এবং পাতা থেকে চাটনি তৈরি করা যায়। এছাড়া এই গাছের পাতা থেকে বিভিন্ন ধরনের ওষুধও তৈরি হয়। গাছের কাণ্ড এতো বিশাল যে, এর গুড়ির গর্তে মানুষ বসবাস করতে পারে। মরু ঝড়ে মানুষ এই গাছের গুড়ির গর্তে আশ্রয় নিয়ে থাকে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Genus: Adansonia L."Germplasm Resources Information Network। United State Department of Agriculture। ২০০৮-১১-১২। সংগৃহীত ২০১১-০১-১৪