ফিফটিন (একক সংগীত)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
"ফিফটিন"
A light black and white photograph 3/4 portrait of a woman leaning her head against a small tree on the right side of the frame. Yellow and aqua swirls border the left side of the frame. Below the woman's chin are the words "Taylor Swift" and "Fifteen" in green lettering.
টেইলর সুইফট এর একক
Fearless অ্যালবাম থেকে
বি-সাইড"You Belong with Me"
মুক্তিআগস্ট ৩০, ২০০৯ (২০০৯-০৮-৩০)[১]
ফরম্যাট
রেকর্ড২০০৮
ধরনCountry
সময়4:55
লেবেলBig Machine
গীতিকারটেইলর সুইফট
প্রযোজক
টেইলর সুইফট একক কালানুক্রম
"You Belong with Me"
(2009)
"ফিফটিন"
(2009)
"Two Is Better Than One"
(2009)
সঙ্গীত ভিডিও
ইউটিউবে "Fifteen"

ফিফটিন একটি কান্ট্রি পপ গান যা পরিবেশন করেছিলেন মার্কিন গায়িকা টেইলর সুইফট। গানটি তিনি নিজেই লিখেছিলেন এবং নাথান চ্যাপম্যান কে সাথে নিয়ে প্রযোজনাও করেন। "ফিফটিন" অবমুক্ত হয় ৩০শে আগস্ট,২০০৯ বিগ মেশিন রেকর্ড এর মাধ্যমে, যা ছিল টেইলর সুইফটের দ্বিতীয় স্টুডিও অ্যালবাম ফিয়ারলেস (২০০৮) এর চতুর্থ একক। সুইফটের  হাইস্কুল জীবনে, হেন্ডারসনভিল হাইস্কুলের প্রথম বছরের স্মৃতি নিয়ে গানটি অনুপ্রাণিত। সেখানেই তার প্রথম প্রেম-বিরহের সম্মুখীন হবার সাথে সাথে, প্রিয় বান্ধবী অ্যাবিগেইল এন্ডারসন এর সাথে পরিচিত হন। গানটি লিখে তিনি অ্যাবিগেইল এন্ডারসন এর সাথে আলাপ করে অনুমতি নিয়ে নেন (কারণ ব্যাক্তিগত জীবনের কথা উল্ল্যেখ ছিল)। "ফিফটিন" একটি বিরহ ধাঁচের গান, যেখানে টেইলর সুইফট তাঁর ও তাঁর বান্ধবীর জীবনে পনেরো বছর বয়সে ঘটে যাওয়া নানা ঘটনার স্মৃতিচারণ করেন এবং অল্পবয়সী বালিকাদের সহজেই প্রেমে না জড়াতে সতর্ক করে দেন।

গানটি প্রচুর প্রশংসায় ভূষিত হয় এবং ব্যবসায়িক সাফল্য পায়। এটি বিলবোর্ড হট হান্ড্রেড  এ ২৩তম স্থান পায় এবং দশলক্ষের বেশি বার ডিজিটাল ডাউনলোড করা হয়। এর মিউজিক ভিডিও টি নির্মাণ করেন রোমান হোয়াইট। মিউজিক ভিডিওতে গ্রিনস্ক্রিন  কৌশল ও স্পেশাল ইফেক্ট কাজে লাগানো হয়। ভিডিওতে দেখা যায় সুইফট তার বান্ধবীর সাথে বাগানে হাটছেন ও বিভিন্ন ঘটনা ঘটছে। এটি ২০১০ সালে "সেরা নারী চলচ্চিত্র" শ্রেনীতে এমটিভি ভিডিও মিউজিক এ্যাওয়ার্ড মনোনয়ন পায়, কিন্তু লেডি গাগা'র "ব্যাড রোমান্স" এর পিছনে পড়ে হেরে যায়। ফিফটিন গানটি বিশ্বব্যাপী ফিয়ারলেস (২০০৯-১০) এবং স্পিক নাউ ওয়ার্ল্ড টুর - লাইভ (২০১১-১২)  ট্যুর গুলোতে সরাসরি দেখানো হয়। তিনি @15 অনুষ্ঠানে বেস্ট বাই নামক ইলেক্ট্রনিক্স পণ্য বিক্রেতা প্রতিষ্ঠানের সাথে যুক্ত হয়ে কিভাবে দাতব্য অর্থ বিতরণ করা যায় তা নিয়ে তরুণদের উদ্বুদ্ধ করেন।


চার্টে স্থান প্রাপ্তি[সম্পাদনা]

ফিয়ারলেস (২০০৯) ট্যুরে প্রদর্শন করছেন টেইলর সুইফট

২৯শে নভেম্বর,২০০৮ সালে মুক্তির পরের সপ্তাহে গানটি, বিলবোর্ড হট হান্ড্রেড এ ৭৯তম স্থান নিয়ে নেয়। [২] এর সাথে তার অন্য ছয়টি গান নিয়ে মাইলি সাইরাস এর সাথে (হানা মন্টানা অ্যালবামের জন্য) বিলবোর্ড হট হান্ড্রেড তালিকায় যৌথভাবে সর্বোচ্চ গানের জন্য স্থান দখল করেন,[৩]২০১০ সালে তার রেকর্ড এগারটি গান সেখানে জায়গা ধরে রাখে।[৪] ফিফটিন গানটি  ৩রা অক্টোবর, ২০০৯ সালে, একক ভাবে অবমুক্ত হবার পর ৯৪তম স্থান থেকে যাত্রা করে। [৫] ডিসেম্বর মাসেই এটি ২৩তম স্থানে চলে আসে,[৬] পরে এটি সর্ব শেষ বারের মত চল্লিশতম স্থানে থেকে,[৭] টানা একুশ সপ্তাহ চার্টে জায়গা ধরে রেখেছিল।[৬] এ তালিকায় সেরা চল্লিশে তার ফিয়ারলেস অ্যালবাম হতে মোট চারটি গান জায়গা পায় যা ছিল বাকি সবার মধ্যে সর্বোচ্চ।[৮] এই এককটি সার্টিফাইড ডাবল প্লাটিনাম সম্মাননা পায় রেকর্ডিং ইন্ডাস্ট্রি অফ আমেরিকা নামক সংস্থা হতে।[৯] ২০১৪ সালের নভেম্বর পর্যন্ত, গানটি শুধু যুক্তরাষ্টেই ১,৩২৩,০০০ টি কপি বিক্রিত হয়।[১০][১১]

বিলবোর্ড হট কান্ট্রি সং চার্টে গানটি ৪১তম  স্থান থেকে যাত্রা করে। [১২] ২য় সপ্তাহে এটি ৩১ তম স্থানে চলে আসে এবং সপ্তাহ শেষে ৭ই নভেম্বর,২০০৯ সালে শীর্ষ দশের মধ্যে ছিল। [১২][১৩] ছয় সপ্তাহ পরে এটি সপ্তম স্থান দখল করে।[১৪] "ফিফটিন" বিলবোর্ড গানটি পপ সং চার্টে প্রথম হয়, বিলবোর্ড এডাল্ট কনটেম্পোরারি চার্টে ১২তম, বিলবোর্ড এডাল্ট পপ সং চার্টে চৌদ্দতম স্থানে ছিল।

কানাডাতে এটি উনিশতম স্থানে ছিল ২০১০ সালের ২৩শে জানুয়ারীতে।[৬] এই এককটি সার্টিফাইড গোল্ড  সম্মাননা পায় মিউজিক কানাডা  নামক সংস্থা হতে ৪০,০০০ বার ডাউনলোড হয়ে বিক্রির জন্য।[১৫] অস্ট্রেলিয়াতে এটি ৪৮তম স্থানে ছিল।[১৬]

তালিকাসমূহ[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. http://gfa.radioandrecords.com/publishGFA/GFANextPage.asp?sDate=08/30/2009&Format=4
  2. "Hot 100 - Week of November 29, 2008"Billboard। Nielsen Business Media, Inc। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ১৫, ২০১১ 
  3. Cohen, Jonathan (নভেম্বর ২০, ২০০৮)। "Taylor Swift Notches Six Hot 100 Debuts"Billboard। Nielsen Business Media, Inc। সংগ্রহের তারিখ জুলাই ২৮, ২০১০ 
  4. Pietroluongo, Silvio (নভেম্বর ৪, ২০১০)। "Taylor Swift Debuts 10 'Speak Now' Songs on Hot 100"Billboard। Nielsen Business Media, Inc। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ১৫, ২০১১ 
  5. "Hot 100 - Week of October 3, 2009"Billboard। Nielsen Business Media, Inc। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ১৮, ২০১১ 
  6. using Billboard ID with invalid artist%5d%5d/%5b%5b:টেমপ্লেট:BillboardEncode/T%5d%5d/chart "Fifteen - Taylor Swift" |url= এর মান পরীক্ষা করুন (সাহায্য)Billboard। Nielsen Business Media, Inc। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ১৮, ২০১১ 
  7. "Hot 100 - Week of February 6, 2010"Billboard। Nielsen Business Media, Inc। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ১৮, ২০১১ 
  8. Pietroluongo, Silvio (নভেম্বর ১২, ২০০৯)। "Rihanna's 'Roulette' Lands In Hot 100's Top 10"Billboard। Nielsen Business Media, Inc। সংগ্রহের তারিখ জানুয়ারি ৩, ২০১০ 
  9. "RIAA - Gold & Platinum: "Taylor Swift songs""RIAA.comRecording Industry Association of America। সংগ্রহের তারিখ জুলাই ৫, ২০১০ 
  10. Paul Grein (মে ৮, ২০১৩)। "Week Ending May 5, 2013. Songs: Macklemore Pulls A Gaga"Yahoo Music (Chart Watch)। সংগ্রহের তারিখ মে ১৬, ২০১৩ 
  11. Trust, Gary (নভেম্বর ১১, ২০১৪)। "Ask Billboard: All-Taylor Swift Edition"BillboardPrometheus Global Media। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১১, ২০১৪ 
  12. Billboard.com (সেপ্টেম্বর ১৯, ২০০৯)। "Billboard Hot Country Songs: week-ending September 19, 2009"। Billboard.com। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ১৯, ২০০৯ 
  13. Billboard.com (নভেম্বর ৭, ২০০৯)। "Billboard Hot Country Songs: week-ending November 7, 2009"। Billboard.com। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ৭, ২০০৯ 
  14. Billboard.com (ডিসেম্বর ১২, ২০০৯)। "Billboard Hot Country Songs: week-ending December 12, 2009"। Billboard.com। সংগ্রহের তারিখ ডিসেম্বর ১২, ২০০৯ 
  15. "Gold and Platinum"Musiccanada.comMusic Canada। সংগ্রহের তারিখ জুলাই ১১, ২০১১ 
  16. "Taylor Swift - Fifteen (Song)"Australian-charts.comAustralian Recording Industry Association। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ১৮, ২০১১ 
  17. "Adult Contemporary Songs: 2010 Year-End Charts"BillboardPrometheus Global Media। সংগ্রহের তারিখ জুলাই ২৮, ২০১৫ 
  18. "Canadian single certifications – Taylor Swift – Fifteen"Music Canada 
  19. "American single certifications – Taylor Swift – Fifteen"Recording Industry Association of America  If necessary, click Advanced, then click Format, then select Single, then click SEARCH
  20. "RIAA Adds Digital Streams To Historic Gold & Platinum Awards"Recording Industry Association of America। মে ৯, ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ মে ৯, ২০১৩ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]