প্রয়াগ ঝাঁ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

প্রয়াগ ঝাঁ চিল্লার, যিনি প্রয়াগ ঝাঁ নামেও পরিচিত, সমসাময়িক ভারতীয় শিল্পী, তিনি নকশাকাটার ক্ষেত্রে বিশেষজ্ঞ। তাঁর কাজগুলি দিল্লির ন্যাশনাল গ্যালারী অফ মডার্ন আর্ট সহ পুরো ভারত জুড়ে ছড়িয়ে রয়েছে। ঝাঁ এর কাজসমূহ ১৯৭১ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত একক প্রদর্শনী হিসেবে জাহাঙ্গীর আর্ট গ্যালারী, তাজ আর্ট গ্যালারী, বাজাজ আর্ট গ্যালারী এবং আর্ট হেরিটেজ নয়াদিল্লিতে প্রদর্শন করা হয়েছিল। তাঁর শিল্পকর্মসমূহ প্রাচীন ভারতীয় মহাকাব্য মেঘদূত ("দ্য মেসেঞ্জার ক্লাউডস ") এর দৃশ্যকে চিত্রিত করে এবং ঘাস ও পাতার মতো প্রাকৃতিক বস্তুসমূহ দ্বারা অনুপ্রাণিত। ঝাঁ এর প্রথম দিকের কাজগুলি প্রাথমিকভাবে একরঙা ছিল, তবে শক্তিশালী রঙগুল অন্তর্ভুক্ত হবার মাধ্যমে পরবর্তীতে তাঁর কাজ আরো বিকশিত হয়েছে।

ঝাঁ তাঁর ব্যাচেলর হাউজ শিরোনামের শিল্পকর্মটির জন্য ৭ম ত্রৈমাসিক আন্তর্জাতিক পুরষ্কার জিতেছেন। অন্যান্য সম্মানসূচক অর্জনগুলো হল প্রাদেশিক স্তরের পুরষ্কার এবং ভারতের রাষ্ট্রপতি কর্তৃক প্রদত্ত জাতীয় পুরষ্কার।

প্রথম জীবন[সম্পাদনা]

তিনি ১৫ মার্চ, ১৯৪৫ সালে উত্তরপ্রদেশের আগ্রায় জন্মগ্রহণ করেন। ঝাঁ ১৯৭১ সালে নয়াদিল্লির কলেজ অব আর্ট থেকে প্রথম শ্রেণিতে জাতীয় ডিপ্লোমা (চিত্রাঙ্কন) অর্জন করেন। ঝাঁ ১৯৭৩ সালে এন বি জোগলেকরের অধীনে এম.এস. ইউনিভার্সিটি অব বরোদার ফ্যাকাল্টি অব ফাইন আর্টস থেকে প্রথম শ্রেণিতে গ্রাফিক আর্টে পোস্ট ডিপ্লোমা পান।

১৯৭৩ থেকে ১৯৭৫ সাল পর্যন্ত ঝাঁ বোম্বেতে একটি ফ্রিল্যান্স আর্টিস্ট হিসাবে কলমচিত্র আঁকেন এবং নকশা করেন।

কালিদাস মেঘদূত এচিং প্রকল্পের জন্য ভারতের মানবসম্পদ ও উন্নয়ন মন্ত্রণালয় থেকে ১৯৯৫ থেকে ১৯৯৭ সাল পর্যন্ত তিন বছরের সিনিয়র ফেলোশিপের জন্য তাকে নির্বাচিত করা হয়েছিল।

কর্ম[সম্পাদনা]

ঝাঁ এর শিল্পকর্মের প্রদর্শনী আর্ট হেরিটেজ গ্যালারী, ন্যাশনাল গ্যালারী অব মডার্ন আর্ট এবং অন্যান্য গ্যালারীগুলিতে প্রায়শই অনুষ্ঠিত হয়।[১]

ঝাঁ এর উল্লেখযোগ্য শিল্পকর্মগুলির মধ্যে রয়েছে ক্রোজ, দ্য ব্যাচেলর হাউস, হাউস উইদাউট দ্য ওমেন, ইন ফ্রন্ট অব দ্য হাউজ, দ্য ফ্লাইট সিরিজ, স্ক্যাটারড লাইফ অ্যান্ড অ্যালোন। কাক তার অনেকগুলি কাজে একাকীত্ব ও নির্জনতার প্রতীক হিসেবে উপস্থিত রয়েছে।

২০০৭ সালে, অপ্রয়োজনীয় ধাতু চোরেরা তাঁদের কারঘরের স্টুডিও থেকে দশ বছর ধরে সঞ্চিতমেঘদূতের নকশাসমূহ সহ আশিটি জিংক প্লেট চুরি করে। প্লেটগুলি আর পুনরুদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।[২]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

প্রয়াগ ঝাঁ চিল্লার ১৯৭১ সালের জুলাই মাসে জে. কে. চিল্লারের সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন।[৩] বর্তমানে এই দম্পতি ভারতের নবি মুম্বাইয়ে বসবাস করছেন।[৪]

স্বীকৃতি[সম্পাদনা]

  • বিজু সাদওয়ালকার পুরষ্কার, ২০০৩।
  • ২০০৩ সালে জাহাঙ্গীর আর্ট গ্যালারী থেকে এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার।
  • ১৯৯১ সালে ললিত কলা একাডেমি, নয়াদিল্লি দ্বারা পরিচালিত ৭ম ত্রৈমাসিক ভারতে (৮০ টিরও বেশি অংশগ্রহণকারী দেশের সমন্বয়ে বিশ্বশিল্পের প্রদর্শনী) গ্রাফিক আর্টস-এ আন্তর্জাতিক স্বর্ণপদক পুরষ্কার লাভ, প্রথম ভারতীয় হিসেবে তিনি এই পুরষ্কার লাভ করেন।
  • ১৯৯০ সালের ডিসেম্বর মাসে মুম্বাইয়ে মহারাষ্ট্র সরকার থেকে মহারাষ্ট্র গৌরব পুরস্কার।
  • ১৯৮৫ সালে ললিত কলা একাডেমী নয়াদিল্লি আয়োজিত ন্যাশনাল একাডেমি অফ আর্ট থেকে জাতীয় পুরষ্কার লাভ
  • ১৯৭৬, ১৯৭৮, ১৯৮৮ সালে আর্ট সোসাইটি অফ ইন্ডিয়া, বোম্বাই থেকে গ্রাফিক আর্টে তিনটি সম্মানসূচক উপাধি লাভ।
  • ১৯৭৬ সালে আর্টিস্ট সেন্টার, বোম্বেতে অনুষ্ঠিত মেম্বার্স আর্ট প্রদর্শনীতে দ্বিতীয় পুরস্কার।
  • ১৯৭৪ সালে আর্টিস্টস সেন্টার অব বোম্বে থেকে ভারতের একমাত্র আর্ট ক্রিটিক অ্যাওয়ার্ড।
  • ১৯৭১ থেকে ১৯৭৩ সাল পর্যন্ত গুজরাট রাজ্যের গান্ধী নগরে অবস্থিত ললিত কলা একাডেমিতেঅনুষ্ঠিত গ্রাফিক আর্টস বার্ষিক প্রদর্শনীতে টানা তিনটি প্রথম পুরষ্কার।

সংগ্রহ[সম্পাদনা]

  • ললিত কলা একাডেমি, নয়াদিল্লি
  • ন্যাশনাল গ্যালারী অফ মডার্ন আর্ট, নয়াদিল্লি এবং ন্যাশনাল গ্যালারী অব মডার্ন আর্ট, মুম্বাই
  • গুজরাট রাজ্য ললিত কলা একাডেমি, গান্ধী নগর
  • ইউপি রাজ্য ললিত কলা একাডেমি, লখনউ
  • চারুকলা একাডেমি, কলকাতা
  • সতে ললিত কলা একাডেমি, হায়দরাবাদ
  • চণ্ডীগড় জাদুঘর
  • আর্ট কলেজ, নয়াদিল্লি
  • চারুকলা অনুষদ, বরোদা
  • পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, নয়াদিল্লি
  • দিল্লির প্রয়াত গভর্নর শ্রী এল জে ঝাঁ
  • বোম্বের প্রাক্তন শেরিফ, এস এইচ দায়া

শিল্প বিচারক[সম্পাদনা]

  • জাতীয় ললিত কলা একাডেমি নয়াদিল্লি দ্বারা পরিচালিত জাতীয় শিল্প প্রদর্শনীতে বিচারকমণ্ডলীর সদস্য (১৯৯২)
  • লখনউতে ইউপি রাজ্য ললিত কলা একাডেমি দ্বারা আয়োজিত অল ইন্ডিয়া প্রদর্শনীতে বিচারকমণ্ডলীর সদস্য (১৯৯৫)
  • বোম্বে আর্ট সোসাইটি (১৯৯৪) শিল্পের নিখিল ভারত প্রদর্শনীতে বিচারকমণ্ডলীর সদস্য (১৯৯৪)
  • মহারাষ্ট্র রাজ্য প্রদর্শনী, মুম্বাইয়ে বিচারকমণ্ডলীর সদস্য (১৯৯৬)
  • নাগপুরে এন জেড সি সি আয়োজিত অল ইন্ডিয়া প্রদর্শনীর জন্য বিচারকমণ্ডলীর সদস্য (১৯৯৬)

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "ART India Bazaar"। ১০ ডিসেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৮ ডিসেম্বর ২০১৫ 
  2. "Scrap metal thieves loot art works"। The Times of India। ১৮ জুলাই ২০০৭। সংগ্রহের তারিখ ৮ ডিসেম্বর ২০১৫ 
  3. "J. K. Chillar"জেহাংগীর নিকলসন আর্ট ফাউন্ডেশন 
  4. "Prayag Jha Chillar , Indian Painter"ইন্ডিয়া নেট জোন