প্রবোধ চন্দ্র ভরদ্বাজ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
লেঃ জেনারেল

প্রবোধ চন্দ্র ভরদ্বাজ

পিভিএসএম এভিএসএম ভিসি এসসি ভিএসএম
The Vice Chief of Army Staff, Lt Gen. P.C. Bhardwaj, paying homage, at Amar Jawan Jyoti on the occasion of Infantry Day, in New Delhi on October 27, 2010 (cropped).jpg
২০১০ সালের ২৭ই অক্টোবর ভারতীয় সেনাবাহিনীর 'পদাতিক দিবস' এ দিল্লীর 'অমর জাওয়ান জ্যোতি'তে স্যালুটরত জেনারেল প্রবোধ
আনুগত্য ভারত
সার্ভিস/শাখা ভারতীয় সেনাবাহিনী
কার্যকাল১৯৭০-২০১০
পদমর্যাদাLieutenant General of the Indian Army.svg লেঃ জেনারেল
সার্ভিস নম্বরআইসি-২৪১৭৮[১]
ইউনিটপ্যারা স্পেশাল ফোর্সেস
নেতৃত্বসমূহIA Northern Command.jpg নর্দার্ন কমান্ড
১৪তম কোর
১৭তম মাউন্টেন ডিভিশন
যুদ্ধ/সংগ্রামভারত-পাকিস্তান যুদ্ধ ১৯৭১
অপারেশন পবন
কার্গিল যুদ্ধ
পুরস্কারParam Vishisht Seva Medal ribbon.svg পরম বিশিষ্ট সেবা পদক
Ati Vishisht Seva Medal ribbon.svg অতি বিশিষ্ট সেবা পদক
Vir Chakra ribbon bar.svg বীর চক্র
Shaurya Chakra ribbon.svg শৌর্য চক্র
Vishisht Seva Medal ribbon.svg বিশিষ্ট সেবা পদক

প্রবোধ চন্দ্র ভরদ্বাজ ভারতীয় সেনাবাহিনীর একজন উর্ধ্বতন জেনারেল ছিলেন। লেফটেন্যান্ট জেনারেল হিসেবে অবসরগ্রহণকারী প্রবোধ ২০০৯ সালের ১ই অক্টোবর ভারতীয় সেনাবাহিনীর দ্বিতীয় প্রধান কর্মকর্তা অর্থাৎ উপ সেনাপ্রধান হিসেবে নিয়োগ পেয়েছিলেন।[২] ভারতীয় সেনাবাহিনীর অন্যতম সবচেয়ে পদকপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের একজন প্রবোধ নর্দার্ন কমান্ড (উত্তরাঞ্চলীয় সেনা কমান্ড) এর অধিনায়কও ছিলেন যে কমান্ড প্রতিবেশী দেশ পাকিস্তানের সঙ্গে যুদ্ধ করার জন্য সবসময় প্রস্তুত থাকে।[৩]

সামরিক কর্মজীবন[সম্পাদনা]

১৯৭০ সালের ১৪ই জুন প্রবোধ ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্যারাশুট রেজিমেন্টের ১ম ব্যাটেলিয়নে কমিশনপ্রাপ্ত হন। তিনি ন্যাশনাল ডিফেন্স একাডেমী, ভারতীয় সামরিক একাডেমী, তামিলনাড়ু প্রদেশের ওয়েলিংটনের ডিফেন্স সার্ভিসেস স্টাফ কলেজ এবং ন্যাশনাল ডিফেন্স কলেজ (ভারত) এ অধ্যায়ন করেন। সেনাবাহিনীর স্পেশাল অপারেশন্স এর একজন স্পেশালিস্ট ছিলেন প্রবোধ এবং ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্রথম কর্মকর্তা তিনি যিনি নৌবাহিনীর ডুবুরী কোর্স কৃতিত্বের সাথে সম্পন্ন করেন। ভারতীয় সেনাবাহিনীর সৈনিকদের ডুবুরী কোর্সের ইন্সট্রাক্টরও ছিলেন তিনি। যুক্তরাষ্ট্রের ফোর্ট ব্র্যাগে তিনি স্পেশাল ফোর্সেস অফিসার্স কোর্স ও তিনি করেন।

তার কমিশনপ্রাপ্তির ইউনিট ১ প্যারা কমান্ডোর অধিনায়কত্বও করেন তিনি। নাগাল্যান্ডে তিনি একটি মাউন্টেন ব্রিগেডের অধিনায়কত্ব এবং এলিট প্যারাশুট ব্রিগেডের অধিনায়ক হিসেবেও তিনি দায়িত্ব পালন করেন। একটি পদাতিক ব্রিগেডের অধিনায়ক হিসেবেও তিনি কাজ করেন এবং সেনাবাহিনী সদর দপ্তরে ডিজিএমও (মিলিটারি অপারেশন্স পরিদপ্তরের মহাপরিচালক) হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৯৪ থেকে ১৯৯৭ মেয়াদে তিনি মিয়ানমারে সামরিক এ্যাটাশে হিসেবে ছিলেন। মেজর জেনারেল পদবীতে তিনি দিল্লী এরিয়ার এরিয়া কমান্ডার হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। লেঃ জেনারেল পদবীতে তিনি চতুর্দশ কোরের অধিনায়ক হন। ২০০৮ এর ১ মার্চ তিনি নর্দার্ন কমান্ডের প্রধান অধিনায়ক হন।[৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]