দেবতাখুম

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
দেবতাখুম

দেবতাখুম বান্দরবান জেলার একটি প্রাকৃতিক সৌন্দর্যমণ্ডিত জায়গা। এখানে দুইপাশে উঁচু পাহাড়ের মাঝখানে স্বচ্ছ পানি প্রবাহিত হতে থাকে। এটি পর্যটকদের জন্য একটি আকর্ষণীয় স্থান।

অবস্থান[সম্পাদনা]

দেবতাখুম বান্দরবান জেলার রোয়াংছড়ি উপজেলায় অবস্থিত।

বর্ণনা[সম্পাদনা]

বান্দরবানের স্থানীয়দের মতে এটি প্রায় ৫০ ফুট গভীর এবং প্রায় ৬০০ ফুট দীর্ঘ।[১] এর কাছেই শীলবাঁধা ঝরনা। এই খুমের দুইপাশে রয়েছে বিশাল জঙ্গল। খাড়া পাহাড়ের কারণে খুমের ভিতর সরাসরি সূর্যের আলো পৌঁছায় না। তাই খুমের যত ভিতরে যাওয়া যায় ততই শীতল মনে হয়। জায়গাটি খুব শান্ত এবং কোলাহলমুক্ত। এর পানিও বেশ স্বচ্ছ। বাঁশের ভেলায় চেপে এই খুমের ভিতর যাওয়া পর্যটকদেরকে এক রোমাঞ্চকর অনুভূতি দেয়।

ভ্রমণপথ[সম্পাদনা]

বান্দরবান টাউন থেকে প্রথমে রোয়াংছড়ি আসতে হবে। রোয়াংছড়ি থেকে কচ্ছপতলী বাজার এসে লিরাগাঁও সেনানিবাসে অনুমতি নিতে হয়। সেখান থেকে ঘণ্টাখানেক ট্রেকিং করে শীলবাঁধা পাড়া যাওয়া যায়। শীলবাঁধা পাড়ার কাছেই দেবতাখুম। তবে দেবতাখুমের আগে পং সু আং নামের আরেকটি খুম পার হতে হয়।[১] বর্ষাকালে এই খুমের ট্রেকিং পথ কিছুটা দুর্গম হয়ে ওঠে। বর্ষার সময় বা অন্য কোন সময়ই গাইড ছাড়া এখানে যাওয়া নিরাপদ নয়। সাঁতার না জানা থাকলে খুমের ভিতর যাওয়ার আগে লাইফ জ্যাকেট পরে নেওয়া উচিত।

চিত্রশালা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ৫ জুন ২০২০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০২০