জুন জি হিয়ন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
জুন জি হিয়ন
Jun Ji-hyun in 2012 02.jpg
জন্ম
ওয়াং জি হিয়ন

(1981-10-30) ৩০ অক্টোবর ১৯৮১ (বয়স ৩৭)
অন্য নামজিয়ান্না জুন [১]
যেখানের শিক্ষার্থীথোংগুক বিশ্ববিদ্যালয়
(থিয়েটার ও চলচ্চিত্র)
পেশাঅভিনেত্রী
কার্যকাল১৯৯৭-বর্তমান
নিযুক্তককালচার ডিপোট
দাম্পত্য সঙ্গীছোই জুন হিয়ক (বি. ২০১২)
সন্তান২ ছেলে
কোরীয় নাম
হাঙ্গুল
হাঞ্জা
সংশোধিত রোমানীকরণJeon Ji-hyeon (জন জি হিয়ন)
ম্যাক্কিউন-রাইশাওয়াChŏn Chihyŏn (ছন জি হিয়ন)
জন্মের নাম
হাঙ্গুল
হাঞ্জা
সংশোধিত রোমানীকরণWang Ji-hyeon (ওয়াং জি হিয়ন)
ম্যাক্কিউন-রাইশাওয়াWang Chihyŏn
ওয়েবসাইটwww.facebook.com/JunJiHyunBangladesh/
স্বাক্ষর
Jun Ji-hyun's signature 20150811.jpg

}}

জুন জি হিয়ন (আসল নাম-ওয়াং জি হিয়ন, জন্ম-৩০ অক্টোবর,১৯৮১), একজন দক্ষিণ কোরিয়ান অভিনেত্রী- যিনি জিয়ান্না জুন নামেও পরিচিত।তিনি কোরিয়ার সর্বকালের সবচেয়ে হিট কমেডি মুভির অন্যতম "মাই স্যাসি গার্ল" [কোরিয়ান টাইটেল-엽기적인 그녀-"অদ্ভুতুড়ে সেই মেয়েটি"] (২০০১) চলচ্চিত্রে অনামা 'মেয়েটির' ভূমিকায় অভিনয় করে খ্যাতির শীর্ষে আরোহণ করেন। তার অন্যান্য উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রের মধ্যে রয়েছে ইল মারে (২০০০), "উইন্ডস্ট্রাক" (কোরিয়ান টাইটেল-내 여자친구를 소개합니다-"আমার বান্ধবীর সাথে পরিচয় করিয়ে দিই") (২০০৪),"ডেইজি" (২০০৬), হলিউড মুভি "ব্লাড-দ্যা লাস্ট ভ্যাম্পায়ার"(২০০৯),"দ্যা থিভস"(কোরিয়ান টাইটেল-도둑들-"চোরের দল") (২০১২), দ্যা বার্লিন ফাইল (২০১৩) এবং অ্যাসাসিনেশন(কোরিয়ান টাইটেল-암살-গুপ্তহত্যা)(২০১৫)

জুন জি হিয়ন তুমুল জনপ্রিয় টেলিভিশন সিরিজ "মাই লাভ ফ্রম দ্যা স্টার" (কোরীয় টাইটেল-별에서 온 그대- "তারা থেকে এলে তুমি") (২০১৩-১৪) এবং "দ্যা লিজেন্ড অফ দ্যা ব্লু সি" (কোরীয় টাইটেল-푸른 바다의 전설-"নীল সাগরের কিংবদন্তি") (২০১৬-১৭)-তে অভিনয়ের মধ্য দিয়েও টিভি ড্রামা জগতে নতুন তারকাখ্যাতি পান। চলচ্চিত্র ও টিভি ড্রামা জগতে তার এ অনবদ্য সাফল্য তাকে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে একজন প্রথম সারির হালিয়ু তারকা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছে।

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

২০১২ সালের ১৩ এপ্রিল জুন জি হিয়ন সিউলের শিলা হোটেলে ব্যাংকার ছোই জুন হিয়কের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। সেলিব্রেটি, বন্ধুবান্ধব ও পরিবার-পরিজন মিলিয়ে ৬০০-র বেশি অতিথি তার বিয়েতে উপস্থিত ছিলেন। [২][৩][৪] ছোই হিয়ক বিশিষ্ট হানবোক ডিজাইনার লি ইয়ং-হি-র নাতি, ফ্যাশন ডিজাইনার লি জং-উ-র পুত্র এবং ব্যাংক অফ আমেরিকার উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা। [৫][৬] জুন ২০১৬ সালের ১০ ফেব্রুয়ারি প্রথম পুত্রসন্তানের জন্ম দেন। [৭] ২০১৮ সালের ২৬ জানুয়ারি, বাংলাদেশ সময় বিকেল ৩ টা নাগাদ তার দ্বিতীয় পুত্রসন্তান জন্ম নেয়।

চলচ্চিত্র তালিকা[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্র[সম্পাদনা]

সাল ইংরেজি টাইটেল কোরীয় টাইটেল চরিত্রের নাম
১৯৯৯ White Valentine (হোয়াইট ভ্যালেন্টাইন) 화이트 발렌타인 ( হোয়াইট ভ্যালেন্টাইন) জং মিন
২০০০ Il Mare (ইল মারে) 시월애 (সিওর‌্যা) ঊন জু
২০০১ My Sassy Girl (মাই স্যাসি গার্ল) 엽기적인 그녀 (উদ্ভট সেই মেয়েটি) অনামা মেয়ে
২০০৩ The Uninvited (দ্যা আনইনভাইটেড) 4인용 식탁 (৪ জনের টেবিল) জং ইয়ন
২০০৪ Windstruck ( উইন্ডস্ট্রাক) 내 여자친구를 소개합니다 (আমার বান্ধবীর সাথে পরিচয় করিয়ে দিই) ইয়ো কিয়ংজিন
২০০৬ Daisy( ডেইজি) 데이지 (ডেইজি) হিয়ে ইয়ং
২০০৮ A Man Who Was Superman ( এক যে ছিল সুপারম্যান) 슈퍼맨이었던 사나이 (সুপারম্যান ছিল যে মানুষটি) সোং সুজং
২০০৯ Blood: The Last Vampire (ব্লাডঃ দ্যা লাস্ট ভ্যাম্পায়ার) 블러드 (ব্লাড) সায়া ওতোনাশি
২০১১ Snow Flower and the Secret Fan ( স্নো ফ্লাওয়ার অ্যান্ড দ্যা সিক্রেট ফ্যান) 설화와 비밀의 부채 ( সলহোয়া আর গোপন পাখা) সোফিয়া/ স্নো ফ্লাওয়ার (সলহোয়া)
২০১২ The Thieves (দ্যা থিভস) 도둑들 (চোরের দল) ইয়েনিকল
২০১৩ The Berlin File (দ্যা বার্লিন ফাইল) 베를린 (বার্লিন) রিয়ন জং-হি
২০১৫ Assassination (অ্যাসাসিনেশন) 암살(গুপ্তহত্যা) আন ওক ইউন/ মিতসুকো

টেলিভিশন[সম্পাদনা]

সাল ড্রামা সিরিজের ইংরেজি নাম ড্রামা সিরিজের কোরিয়ান নাম চরিত্র
১৯৯৮ Fascinate My Heart aka Steal My Heart (ফ্যাসিনেট মাই হার্ট) 내 마음을 뺏어봐 (আমার মন কেড়ে নাও) কাইয়ং
১৯৯৯ Happy Together 해피 투게더 (হ্যাপি টুগেদার) স-ইউন জু
২০১৩-১৪ My Love from the Star ( মাই লাভ ফ্রম দ্যা স্টার) 별에서 온 그대 ( তারা থেকে এলে তুমি) চেওন সং ঈ
২০১৬-১৭ The Legend of the Blue Sea (দ্যা লিজেন্ড অফ দ্যা ব্লু সি) 푸른 바다의 전설 ( নীল সাগরের কিংবদন্তি) সিমচং / সে হোয়া

মিউজিক ভিডিও[সম্পাদনা]

সাল গানের নাম শিল্পী
১৯৯৭ "Will You Understand (이해할께) (বুঝে কি নেবে)" ছো গিউ মান
১৯৯৯ "The Beginning of Love (사랑의 시작) (ভালোবাসার সূচনা)" লিওন লাই (চাইনিজ শিল্পী)
2000 "Hey Girl" (হেই গার্ল) জাং হিয়ক (টি.জে. প্রজেক্ট)
"Love of the Sun and the Moon (일월지애) (সূর্য আর চাঁদের অনুরাগ)"
২০০২ "Love Is Always Thirsty (사랑은 언제나 목마르다) (ভালোবাসা সবসময় তৃষ্ণার্ত)" ইউমি

রেফারেন্স[সম্পাদনা]

  1. জিয়ান্না জুন এটি তার স্টেজে ব্যবহার করা নাম
  2. Cho, Chung-un (১৩ এপ্রিল ২০১২)। newsMLId=20120413001038 "Actress Jun Ji-hyun ties the knot" |ইউআরএল= এর মান পরীক্ষা করুন (সাহায্য)The Korea Herald। সংগ্রহের তারিখ ১৮ নভেম্বর ২০১২ 
  3. "Today's Photo: April 14, 2012"The Chosun Ilbo। ১৪ এপ্রিল ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ১৮ নভেম্বর ২০১২ 
  4. "Jeon Ji Hyun marries Choi Jun Hyuk in lavish ceremony"Channel NewsAsia। ১৬ এপ্রিল ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ১৮ নভেম্বর ২০১২ 
  5. Sunwoo, Carla (২৩ মার্চ ২০১২)। "Designer talks about actress granddaughter-in-law Jun Ji hyun"Korea JoongAng Daily। ১০ জুলাই ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ নভেম্বর ২০১২ 
  6. Kwon, Mee-yoo (১৩ এপ্রিল ২০১২)। "Actress Jun ties knot with designer's grandson"The Korea Times। ১৮ জুন ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ নভেম্বর ২০১২ 
  7. Kim, Hyang-min (১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৬)। "Jun Ji-hyun gives birth to a boy"Korea JoongAng Daily। সংগ্রহের তারিখ ১০ মে ২০১৬