গ্লোরিয়া মোহান্তি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
গ্লোরিয়া মোহান্তি
গ্লোরিয়া মোহান্তি.jpg
জন্ম(১৯৩২-০৬-২৭)২৭ জুন ১৯৩২
মৃত্যু১১ ডিসেম্বর ২০১৪(2014-12-11) (বয়স ৮২)
পেশাঅভিনেত্রী
কর্মজীবন১৯৪৯-২০০৯
দাম্পত্য সঙ্গীকমলা প্রসাদ মোহন্তী
সন্তান

গ্লোরিয়া মোহান্তি (২৭ জুন ১৯৩২ - ১১ ডিসেম্বর ২০১৪), একজন নাট্যশালা, ধারাবাহিক এবং ওড়িশা চলচ্চিত্র জগতের অভিনেত্রী ছিলেন। [১] ১৯৯৪ সালে ওড়িয়া সিনেমায় অবদানের জন্য তিনি রাজ্যের সর্বোচ্চ সম্মান ''জয়দেব পুরস্কার'' এবং ১৯৯২ সালে ''ওড়িশা সংগীত নাটক অকাদেমি পুরস্কার'' লাভ করেছিলেন। সাংস্কৃতিক সংগঠন শ্রীজান ২০১১ সালে তাকে ''গুরু কেলুচরণ মহাপাত্র পুরস্কার'' [২] এবং সাংস্কৃতিক সংগঠন ঘুঙ্গুর তাকে ''আজীবন সম্মাননা'' দিয়েছিলেন ২০১২ সালে। [৩][৪]

জীবনের প্রথমার্ধ[সম্পাদনা]

খুব অল্প বয়সেই, মোহান্তি তার খালা এবং অভিনেত্রী অনিমা পেদিনীর নাচ এবং সংগীতের সাথে পরিচিত হন। তিনি গুরু কেলুচরণ মহাপাত্রের অধীনে ওড়িশি নৃত্য শিখেছিলেন। কটকের জাতীয় সংগীত সমিতি থেকে তিনি সংগীতের প্রশিক্ষণ পান। তিনি খ্যাতিমান গায়ক বালকৃষ্ণ দাশ এবং ভুবনেশ্বর মিশ্রের দিক নির্দেশনা পেয়েছিলেন। [৫] অল্প বয়সে তার আগ্রহ এবং প্রতিভা তাকে দীর্ঘ ক্যারিয়ারের দিকে নিয়ে যায়। [৬]

মোহান্তি একজন ক্রীড়াবিদও ছিলেন এবং ১৯৫৭ থেকে ১৯৬০ সাল পর্যন্ত রাজ্য মহিলা ভলিবল দলের প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন। [৫][৭]

পেশা[সম্পাদনা]

মোহান্তি অল ইন্ডিয়া রেডিওতে গায়ক হিসাবে তাঁর কেরিয়ার শুরু করেছিলেন এবং ২০ বছরেরও বেশি সময় ধরে এই সংস্থার একটি অংশ হিসাবে অবিরত ছিলেন। [৫] ১৯৪৪ সালে, তিনি নাটকের সাথে সম্পৃক্ত হন এবং 'ভাটা' নাটকের প্রধান অভিনেত্রীর ভূমিকায় অভিনয় করেছিলেন। [৭] ১৯৪৯ সালে, তাকে ওড়িশা চলচ্চিত্র শ্রী জগন্নাথে একটি চরিত্রে অভিনয় করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল। গোপাল ঘোষের বিপরীতে ললিতার ভূমিকায় তিনি খ্যাতি এনেছিলেন এবং শীর্ষস্থানীয় অভিনেত্রী হিসাবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিলেন। [১][৮]

প্রায় ১৮ বছর চলচ্চিত্র থেকে দূরে থাকার পরে, তিনি বর্ষা মাই ডার্লিং (২০০৪), প্রথম প্রেম (২০০৫), শসূরা চালিজিবি (২০০৫), প্রেমি নং ১ (২০০৫) এর মতো ধারাবাহিক সিনেমায় ফিরে এসেছিলেন। ওহ মাই লাভ (২০০৫), মহানায়ক (২০০৭), নেইজারে মেঘা মেট (২০০৮)। সর্বশেষ ছবিগুলোতে তিনি দাদির ভূমিকায় অভিনয় করে খ্যাতি অর্জন করেছিলেন।

নাট্যশালার কর্মজীবনের সময় তিনি ওড়িয়া, হিন্দি, বাংলা, উর্দু এবং ইংরেজিতে শতাধিক নাটকে অভিনয় করেছিলেন এবং এই নাটকগুলি ভারতের বিভিন্ন শহরে মঞ্চস্থ হয়েছিল। [৭] মোহান্তি জিবাকু দেবী নাহি, ঠাকুর ঘর, সারা আকাশ এবং পানতা কানির মতো ওড়িয়া টেলিভিশন ধারাবাহিকেও অভিনয় করেছিলেন। [৯]

পুরস্কার[সম্পাদনা]

  • ১৯৫২ সালে প্রজাতন্ত্র প্রচার সমিতি কর্তৃক সেরা মঞ্চ অভিনেত্রী পুরস্কার
  • ১৯৯২ সালে ওড়িশা সংগীত নাটক আকাদেমি পুরস্কার
  • ১৯৯২ সালে জয়দেব সম্মান
  • ২০১১ সালে গুরুকেলুচরণ মহাপাত্র পুরস্কার

চলচ্চিত্রের তালিকা[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্র / নাটক বছর ভূমিকা
শ্রী জগন্নাথ ১৯৫০ ললিতা
কেদার গৌরী ১৯৫৪ গ্লোরিয়া রাউট
মা
সীতারতি ১৯৮১
তাপই
তপস্যা
উল্কা ১৯৮১
উদয় বানু ১৯৮৩
জননী
ছমন আতাগুন্তা
আদি মিমনসা ১৯৯১
শসূঘরা চালিজিবি ২০০৬

শেষ বছর এবং মৃত্যু[সম্পাদনা]

একজন বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী, যিনি খেলাধুলা, গান, নাচ এবং অভিনয়ে দক্ষ মোহান্তি একটি বেসরকারি হাসপাতালে মস্তিষ্কের স্ট্রোকের জন্য চিকিৎসাধীন ছিলেন। তিনি ১১ ডিসেম্বর ২০১৪ এ শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছিলেন। [১] মৃত্যুকালে তিনি স্বামী কমলা প্রসাদ মোহন্তী এবং দুই ছেলে সহ চার সন্তান রেখে গেছেন। [১০] তাঁর শেষকৃত্য ওড়িশার কটকের সতীচৌরা শ্মশানে করা হয়েছিল।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. India, Press Trust of (২০১৪-১২-১২)। "Veteran artiste Gloria Mohanty passes away"Business Standard India। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-০৯ 
  2. "Noted Odissi danseuse Kumkum Mohanty and veteran artist Gloria Mohanty will get the prestigious 17th Guru Kelucharan Mohapatra Award for 2011. - Times of India"The Times of India। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-০৯ 
  3. "Odia veteran actress Gloria Mohanty passed away"Odia Songs l Oriya Films | New Oriya Film News | Latest Oriya Films। ২০১৭-১১-১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-০৯ 
  4. "Gloria Mohanty Oriya Actress Biography, Movies, Wiki, Videos, Photos"Oriya Films (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১২-০৮-১৮। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-০৯ 
  5. "Gloria's era comes to an end"The Telegraph। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-১০ 
  6. "Gloria Mohanty | Ollywood | | Odialive.com"odialive.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-১০ 
  7. "Gloria Mohanty Odia Oriya Film Star Celebrity Ollywood Biography | Gallery"www.nuaodisha.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-১০ 
  8. "Gloria Mohanty passed away : Odia veteran actress - Ollywood"Incredible Orissa (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৪-১২-১২। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-১০ 
  9. Bureau, Odisha Sun Times। "Veteran Odisha actress Gloria Mohanty is dead | OdishaSunTimes.com"odishasuntimes.com (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৭-১১-১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-১১-১০ 
  10. "Veteran artiste Gloria Mohanty passes away"business-standard.com। সংগ্রহের তারিখ ১৩ মার্চ ২০২০