গোর্খা জনমুক্তি মোর্চা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
গোর্খা জনমুক্তি মোর্চা
সভাপতিবিমল গুরুং
মহাসচিবরোশন গিরি
প্রতিষ্ঠা২০০৭
সদর দপ্তরনর্থ পয়েন্ট, সিঙ্গামারি, দার্জিলিং
ওয়েবসাইট
http://www.gorkhajanmuktimorcha.org
ভারতের রাজনীতি
রাজনৈতিক দল

গোর্খা জনমুক্তি মোর্চা (জিজেএম) ভারতের একটি নথিবদ্ধ রাজনৈতিক দল।[১] এই দল পশ্চিমবঙ্গের দার্জিলিং পার্বত্য অঞ্চল ও ডুয়ার্স নিয়ে পৃথক গোর্খাল্যান্ড রাজ্য গঠনের দাবি জানাচ্ছে। ২০০৭ সালের ৭ অক্টোবর এই দল প্রতিষ্ঠিত হয়।[২]

দার্জিলিং পার্বত্য অঞ্চলের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ নেতা বিমল গুরুং দার্জিলিংকে ষষ্ঠ তফসিলভুক্ত করার বিরোধিতা করে গোর্খা ন্যাশানাল লিবারেশন ফ্রন্ট নেতা সুবাস ঘিসিঙের সঙ্গে বিবাদে জড়িয়ে পড়েন।[৩][৪] এই বিবাদের ফলে তিনি দল ভেঙে ২০০৭ সালের ৭ অক্টোবর পৃথক গোর্খাল্যান্ড রাজ্যের দাবিতে জিজেএম প্রতিষ্ঠা করেন।[২]

গোর্খাল্যান্ড রাজ্যের দাবিতে ১৯৮০-এর দশকে দার্জিলিং পার্বত্য অঞ্চলে হিংসাত্মক আন্দোলন হয়। কিন্তু জিজেএম অহিংস আন্দোলন চালানোর সিদ্ধান্ত নেয়।[৫] প্রথম দিকে তারা বনধ, অনশন ধর্মঘট ও পরিষেবা বিল না দিয়ে আন্দোলন চালাতে থাকে।[৬] রাজ্য সরকার এরপর তাদের আলোচনার জন্য ডাকেন। কিন্তু রাজ্য সরকার গোর্খাল্যান্ডের দাবি মেনে না নেওয়ায়, আলোচনা ভেস্তে যায়।[৭] পরে ভারত সরকার, রাজ্য সরকার ও জিজেএম-এর মধ্যে ত্রিপাক্ষিক বৈঠক শুরু হয়।[৮] এখনও এই বিষয়ে কোনো মীমাংসাসূত্র পাওয়া যায়নি।

পাদটীকা[সম্পাদনা]

  1. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ১৯ মার্চ ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১০ 
  2. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ৩ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১০ 
  3. http://www.indianexpress.com/news/redrawing-the-map-of-gorkhaland/321606/
  4. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ৩ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১০ 
  5. GJM places demands, Buddhadeb says no division of West Bengal
  6. GJM to stage hunger strikes from Thursday
  7. West Bengal: GJM rejects talks offer
  8. "Tripartite talks for Gorkhaland begins today"। ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১০