আর্নে মাইয়ার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
আর্নে মাইয়ার
Arne Maier.jpg
২০১৭ সালে হের্টার হয়ে মাইয়ার
ব্যক্তিগত তথ্য
জন্ম (1999-01-08) ৮ জানুয়ারি ১৯৯৯ (বয়স ২২)
জন্ম স্থান লুডভিগসফেল্ডে, জার্মানি
উচ্চতা ১.৮৬ মিটার (৬ ফুট ১ ইঞ্চি)
মাঠে অবস্থান মধ্যমাঠের খেলোয়াড়
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব
হের্টা
জার্সি নম্বর ২৬
যুব পর্যায়
0000–২০০৭ লুডভিগসফেল্ডার
২০০৭–২০১৭ হের্টা
জ্যেষ্ঠ পর্যায়*
বছর দল ম্যাচ (গোল)
২০১৭ হের্টা ২ (০)
২০১৭– হের্টা ৫৮ (০)
২০২০–২০২১আরমিনিয়া বিলেফেল্ড (ধার) ১৬ (০)
জাতীয় দল
২০১৩ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৫ (০)
২০১৪–২০১৫ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৬ (০)
২০১৫–২০১৬ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৭ ১৬ (৪)
২০১৭ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৮ (১)
২০১৭–২০১৮ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৯ (৩)
২০১৮– জার্মানি অনূর্ধ্ব-২১ ১৮ (১)
২০২১ জার্মানি অনূর্ধ্ব-২৩ (০)
* শুধুমাত্র ঘরোয়া লীগে ক্লাবের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা গণনা করা হয়েছে এবং ১৬:১৭, ২৯ জুলাই ২০২১ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সকল তথ্য সঠিক।
‡ জাতীয় দলের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা ১৬:১৭, ২৯ জুলাই ২০২১ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

আর্নে মাইয়ার (জার্মান উচ্চারণ: [ˈaʁnə ˈmaɪ̯ɐ], জার্মান: Arne Maier; জন্ম: ৮ জানুয়ারি ১৯৯৯) হলেন একজন জার্মান পেশাদার ফুটবল খেলোয়াড়[১][২] তিনি বর্তমানে জার্মানির পেশাদার ফুটবল লীগের শীর্ষ স্তর বুন্দেসলিগার ক্লাব হের্টা এবং জার্মানি অনূর্ধ্ব-২১ দলের হয়ে একজন মধ্যমাঠের খেলোয়াড় হিসেবে খেলেন। তিনি মূলত একজন রক্ষণাত্মক মধ্যমাঠের খেলোয়াড় হিসেবে খেললেও মাঝেমধ্যে কেন্দ্রীয় মধ্যমাঠের খেলোয়াড় হিসেবে খেলে থাকেন।

জার্মান ফুটবল ক্লাব লুডভিগসফেল্ডারের যুব পর্যায়ের হয়ে খেলার মাধ্যমে মাইয়ার ফুটবল জগতে প্রবেশ করেছেন এবং পরবর্তীকালে হের্টার যুব দলের হয়ে খেলার মাধ্যমে তিনি ফুটবল খেলায় বিকশিত হয়েছেন। ২০১৬–১৭ মৌসুমে, জার্মান ক্লাব হের্টা ২-এর হয়ে খেলার মাধ্যমে তিনি তার জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের খেলোয়াড়ি জীবন শুরু করেছেন, যেখানে তিনি মাত্র ১ মৌসুম অতিবাহিত করেছেন; হের্টা ২-এর হয়ে তিনি ৯ ম্যাচে অংশগ্রহণ করেছেন। ২০১৬–১৭ মৌসুমেই তিনি হের্টার মূল দলে অন্তর্ভুক্ত হয়েছেন। ২০২০–২১ মৌসুমে তিনি ১ মৌসুমের জন্য আরমিনিয়া বিলেফেল্ডে ধারে খেলেছেন।

২০১৩ সালে, মাইয়ার জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৫ দলের হয়ে জার্মানির বয়সভিত্তিক পর্যায়ে অভিষেক করেছিলেন। ব্যক্তিগতভাবে, মাইয়ার বেশ কিছু পুরস্কার জয়লাভ করেছেন, যার মধ্যে ২০১৮ সালে ফ্রিৎস ভাল্টার রৌপ্য পদক জয় অন্যতম। দলগতভাবে, রাউম এপর্যন্ত ১টি শিরোপা জয়লাভ করেছেন, যা তিনি জার্মানির বয়সভিত্তিক দলের হয়ে জয়লাভ করেছেন।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

আর্নে মাইয়ার ১৯৯৯ সালের ৮ই জানুয়ারি তারিখে জার্মানির লুডভিগসফেল্ডেতে জন্মগ্রহণ করেছেন এবং সেখানেই তার শৈশব অতিবাহিত করেছেন।

আন্তর্জাতিক ফুটবল[সম্পাদনা]

মাইয়ার জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৫, জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৬, জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৭, জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৮, জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৯ এবং জার্মানি অনূর্ধ্ব-২১ দলের হয়ে খেলার মাধ্যমে জার্মানির প্রতিনিধিত্ব করেছেন। ২০১৩ সালের ৫ই নভেম্বর তারিখে তিনি দক্ষিণ কোরিয়া অনূর্ধ্ব-১৫ দলের বিরুদ্ধে এক প্রীতি ম্যাচে জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৫ দলের হয়ে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অভিষেক করেছেন। জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৭ দলের হয়ে তিনি ২০১৫ ফিফা অনূর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করেছেন, তবে তার দল উক্ত প্রতিযোগিতায় শুধুমাত্র ১৬ দলের পর্ব পর্যন্ত অংশগ্রহণ করতে সক্ষম হয়েছিল; উক্ত প্রতিযোগিতায় তিনি ৪ ম্যাচে অংশগ্রহণ করেছিলেন। ২০২১ সালে জার্মানি অনূর্ধ্ব-২১ দলের হয়ে তিনি ২০২১ উয়েফা ইউরোপীয় অনূর্ধ্ব-২১ চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা জয়লাভ করেছেন,[৩][৪] যেখানে তিনি দলের অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করার পাশাপাশি ৬টি ম্যাচে অংশগ্রহণ করেছেন।[৫] রাউম জাপানে অনুষ্ঠিত ২০২০ গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকের জন্য ২০২১ সালের জুলাই মাসে প্রকাশিত জার্মানি অনূর্ধ্ব-২৩ দলে স্থান পেয়েছেন।[৬][৭] মাইয়ার জাপানে অনুষ্ঠিত ২০২০ গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকের জন্য ২০২১ সালের জুলাই মাসে প্রকাশিত জার্মানি অনূর্ধ্ব-২৩ দলে স্থান পেয়েছেন।[৮][৯] তিনি ২০১৫ সালের ১১ই সেপ্টেম্বর তারিখে এক প্রীতি ম্যাচে ইসরায়েল অনূর্ধ্ব-১৭ দলের বিরুদ্ধে জার্মানির বয়সভিত্তিক দলের হয়ে প্রথমবারের মতো গোল করেছেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Dudenredaktion; Kleiner, Stefan; Knöbl, Ralf (২০১৫) [First published 1962]। Das Aussprachewörterbuch [The Pronunciation Dictionary] (জার্মান ভাষায়) (7th সংস্করণ)। Berlin: Dudenverlag। পৃষ্ঠা 200, 574। আইএসবিএন 978-3-411-04067-4 
  2. Krech, Eva-Maria; Stock, Eberhard; Hirschfeld, Ursula; Anders, Lutz Christian (২০০৯)। Deutsches Aussprachewörterbuch [German Pronunciation Dictionary] (জার্মান ভাষায়)। Berlin: Walter de Gruyter। পৃষ্ঠা 330, 718। আইএসবিএন 978-3-11-018202-6 
  3. "Kuntz mit vier Neulingen zur EM-Gruppenphase nach Ungarn"। dfb.de। সংগ্রহের তারিখ ১৫ মার্চ ২০২১ 
  4. "Germany-Portugal - Under-21: Stadion Stožice - Ljubljana"UEFA.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৭-২৮ 
  5. Played, Minutes (২০২০-১১-২৭)। "Germany [U21] - AppearancesU21 EURO 2021"worldfootball.net। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৭-২৮ 
  6. "Squad list - Men's Olympic Football Tournament Tokyo 2020" [দলের তালিকা - পুরুষদের অলিম্পিক ফুটবল প্রতিযোগিতা টোকিও ২০২০] (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ফিফা। ৭ জুলাই ২০২১। পৃষ্ঠা ৭। 
  7. "Olympia-Kader: Kuntz kann mit Müller, Raum und Stach planen" [অলিম্পিক দল: মুলার, রাউম এবং স্টাখকে ঘিরে কুনৎসের পরিকল্পনা]। dfb.de (জার্মান ভাষায়)। জার্মান ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন। ৪ জুলাই ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুলাই ২০২১ 
  8. "Squad list - Men's Olympic Football Tournament Tokyo 2020" [দলের তালিকা - পুরুষদের অলিম্পিক ফুটবল প্রতিযোগিতা টোকিও ২০২০] (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ফিফা। ৭ জুলাই ২০২১। পৃষ্ঠা ৭। 
  9. "Olympia-Kader: Kuntz kann mit Müller, Raum und Stach planen" [অলিম্পিক দল: মুলার, রাউম এবং স্টাখকে ঘিরে কুনৎসের পরিকল্পনা]। dfb.de (জার্মান ভাষায়)। জার্মান ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন। ৪ জুলাই ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুলাই ২০২১ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]