অক্ষর (হরফ)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Jump to navigation Jump to search

হরফ বা অক্ষর (ইংরেজি: Glyph) বলতে লিখনের একটি মৌল উপাদানকে বোঝায়। দুই বা ততোধিক অক্ষর একই প্রতীককে নির্দেশ করলে তাদেরকে সহ-অক্ষর বলে; সহ-অক্ষরগুলি একে অপরের প্রতিস্থাপনীয় হতে পারে, কিংবা প্রতিবেশভদে আলাদাভাবে ব্যবহৃত হতে পারে। একাধিক সহ-অক্ষর যে বিমূর্ত এককের রূপভেদ, তাকে অক্ষরমূল বলা হয়। কম্পিউটিং-এর পরিভাষায় অক্ষরমূলকে ক্যারেক্টার নামেও ডাকা হয়।

কোন অক্ষর একাধিক ক্যারেক্টার তথা অক্ষরের সংযুক্ত রূপ হতে পারে। তখন একে যুক্তাক্ষর বলে। অক্ষরগুলি মুদ্রণে বা লেখায় ব্যবহৃত নির্দেশক চিহ্ন-ও হতে পারে।

মুদ্রণশৈলীতে অক্ষরের ধারণা[সম্পাদনা]

জাপফিনো নামের মুদ্রাক্ষর-ছাঁদে a ক্যারেক্টারটিকে প্রতিনিধিত্বকারী বিভিন্ন অক্ষর (অর্থাৎ a-এর সহ-অক্ষর)

কম্পিউটিং ও মুদ্রণশৈলীতে ক্যারেক্টার শব্দটি দিয়ে কোন লিখিত বিষয়বস্তু বা টেক্সটের অক্ষরমূল বা অক্ষর-মূল সদৃশ একককে বোঝানো হয়। ক্যারেক্টার বা অক্ষরমূল হল টেক্সটের বা লিখিত বিষয়বস্তুর একটি বিমূর্ত একক। আর অক্ষর হল এই ক্যারেক্টার বা অক্ষরমূলের দৃশ্যমান একক।

সুতরাং, মুদ্রণশৈলীতে অক্ষর বা গ্লিফ বলতে এক বা একাধিক ক্যারেক্টার বা অক্ষরমূলের একটি নির্দিষ্ট দৃশ্যমান রূপকে বোঝায়। এগুলিকে মুদ্রাক্ষর নামে ডাকা হয় এবং একই ধরনের বা শৈলীর আকৃতিবিশিষ্ট অনেকগুলি মুদ্রাক্ষরের একটি সেটকে মুদ্রাক্ষর-ছাঁদ বলে।

অনেকসময় একাধিক ক্যারেক্টার বা অক্ষরমূলকে একটি মাত্র দৃশ্যমান অক্ষর দিয়ে প্রকাশ করা যেতে পারে, যাকে যুক্তাক্ষর বলে। উদাহরণস্বরূপ, ffi তিনটি ক্যারেক্টারের সমষ্টি, কিন্তু এদেরকে একটিমাত্র অক্ষর দিয়ে প্রকাশ করা যায়। তিনটি ক্যারেক্টার এখানে একত্রিত হয়ে একটি যুক্তাক্ষর গঠন করেছে।

বিপরীতভাবে কিছু মুদ্রাক্ষরযন্ত্র বা টাইপরাইটারে অনেকগুলি অক্ষরের সাহায্যে একটিমাত্র ক্যারেক্টারকে নির্দেশ করা হয়। যেমন অনেকসময় দুইটি হাইফেন অক্ষর পাশাপাশি বসিয়ে এম-ড্যাশ ক্যারেক্টারটি নির্দেশ করা হয়।

বেশিরভাগ মুদ্রাক্ষর কোন না কোন মুদ্রাক্ষর-ছাঁদের অন্তর্ভুক্ত। একটি মুদ্রাক্ষর-ছাঁদে সাধারণত প্রতিটি ক্যারেক্টারের জন্য একটি মাত্র অক্ষর নির্দিষ্ট থাকে। কিন্তু এর ব্যতিক্রমও আছে। কোন ভাষার বর্ণমালার আকার বড় হলে কিংবা লিখন পদ্ধতি জটিল হলে একটি ক্যারেক্টারকে একাধিক অক্ষর দিয়ে কিংবা একাধিক ক্যারেক্টারকে একটি মাত্র অক্ষর দিয়ে নির্দেশ করা হতে পারে।

পরিভাষা (ইংরেজি বর্ণানুক্রমে)[সম্পাদনা]

  • Allograph - সহ-অক্ষর
  • Character - ক্যারেক্টার
  • Diacritic - নির্দেশক চিহ্ন
  • Glyph - হরফ, অক্ষর
  • Grapheme - অক্ষরমূল
  • Ligature - যুক্তাক্ষর
  • Text - টেক্সট
  • Typeface - মুদ্রাক্ষর-ছাঁদ
  • Typewriter - মুদ্রাক্ষরযন্ত্র, টাইপরাইটার
  • Typography - মুদ্রণশৈলী