লানাক গিরিবর্ত্ম

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
লানাক গিরিবর্ত্ম
লানাক গিরিবর্ত্ম Jammu and Kashmir-এ অবস্থিত
লানাক গিরিবর্ত্ম
লানাক গিরিবর্ত্মের অবস্থান
উচ্চতা ৫,৪৬৬ মিটার (১৭,৯৩৩ ফুট)
অবস্থান Tibet, China
স্থানাঙ্ক ৩৪°২৩′৩৮″ উত্তর ৭৯°৩২′২১″ পূর্ব / ৩৪.৩৯৩৮° উত্তর ৭৯.৫৩৯১° পূর্ব / 34.3938; 79.5391স্থানাঙ্ক: ৩৪°২৩′৩৮″ উত্তর ৭৯°৩২′২১″ পূর্ব / ৩৪.৩৯৩৮° উত্তর ৭৯.৫৩৯১° পূর্ব / 34.3938; 79.5391

লানাক গিরিবর্ত্ম হিমালয় পর্বতশ্রেণীতে অবস্থিত একটি গিরিবর্ত্ম।

অবস্থান[সম্পাদনা]

কোংকা গিরিবর্ত্ম হিমালয় পর্বতশ্রেণীতে ৩৪°২৩′৩৮″ উত্তর ৭৯°৩২′২১″ পূর্ব / ৩৪.৩৯৩৮° উত্তর ৭৯.৫৩৯১° পূর্ব / 34.3938; 79.5391 স্থানাঙ্কে সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ৫,৪৬৬ মি (১৭,৯৩৩ ফু) উচ্চতায় অবস্থিত।

বিতর্কিত অঞ্চল[সম্পাদনা]

ভারত লানাক গিরিবর্ত্মকে চীনের সীমান্ত বলে দাবী করলেও চীন আরো পশ্চিমে ৩৪°২০′০৬″ উত্তর ৭৯°০২′০৭″ পূর্ব / ৩৪.৩৩৫০০° উত্তর ৭৯.০৩৫২৮° পূর্ব / 34.33500; 79.03528 স্থানাঙ্কে অবস্থিত কোংকা গিরিবর্ত্মকে সীমান্ত হিসেবে দাবী করে। [১] উনবিংশ শতাব্দীর শেষ থেকে বিংশ শতাব্দীর শুরুর দিক পর্যন্ত বিভিন্ন ব্রিটিশ অভিযাত্রীদল [২][৩][৪][৫] লানাক গিরিবর্ত্মকে ভারততিব্বতের মধ্যে সূমান্ত বলে উল্লেখ করেছেন। [৬][৭] ভারতীয়রা দাবী করেন যে, লানাক গিরিবর্ত্ম অঞ্চলে ১৯৫৮ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত ভারতীয় সেনাবাহিনী টহল দিত এবং সেখানে চীনের সেনাবাহিনী ছিল না। [৭][৮][৯][১০] ১৯৫৯ খ্রিষ্টাব্দের অক্টোবর মাসে কোংকা গিরিবর্ত্ম ও লানাক গিরিবর্ত্ম এলাকায় সেনা ছাউনী বানানোর উদ্দেশ্যে সেন্ট্রাল রিজার্ভ পোলিস ফোর্সের জওয়ানেরা গেলে চীনের সেনাবাহিনী তাঁদের ওপর আক্রমণ করে তাঁদের হত্যা ও বন্দী করেন। [১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. ১.০ ১.১ Maxwell, Neville (1970)। India's China War। New York: Pantheon। পৃ: 13। সংগৃহীত 29 August 2013 
  2. Wellby, M.S. (1898)। Through Unknown Tibet। Lippincott। পৃ: 78। আইএসবিএন 9788120610583 
  3. Carey, A. D. (1887)। "A Journey round Chinese Turkistan and along the Northern frontier of Tibet"। Proceedings of the Royal Geographic Society 9জেএসটিওআর 1801130 
  4. Bower, Hamilton, Diary of A Journey across Tibet, London, 1894
  5. Rawling, C. G., The Great Plateau Being An Account Of Exploration In Central Tibet, 1903, And Of The Gartok Expedition 1904-1905, p 38, London, 1905
  6. "Report of the Officials of the Governments of India and the Peoples’ Republic of China on the Boundary Question - Part 2"। Ministry of External Affairs, India, 1961। সংগৃহীত 30 August 2013 
  7. ৭.০ ৭.১ Verma, Virendra Sahai (2006)। "Sino-Indian Border Dispute At Aksai Chin - A Middle Path For Resolution"Journal of development alternatives and area studies 25 (3): 6–8। আইএসএসএন 1651-9728। সংগৃহীত 30 August 2013 
  8. Vivek Ahuja। "Unforgiveable Mistakes, The Kongka-La Incident, 21st October 1959"। সংগৃহীত 2011-11-02 
  9. Hudson, Geoffrey Francis (1963)। Far Eastern Affairs, Volume 3। St. Martin's Press। পৃ: 20। 
  10. "Notes, Memoranda and letters Exchanged and Agreements signed between The Governments of India and China - White Paper VIII"। সংগৃহীত 30 August 2013