লুন্ঠনাত্মক দাম নির্ধারণ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

লুন্ঠনাত্মক দাম নির্ধারণ (ইংরেজি: Predatory pricing) বলতে এক ধরনের দাম নির্ধারণ কৌশলকে বোঝায়, যাতে বাজারের কোনও আধিপত্য বিস্তারকারী ব্যবসা প্রতিষ্ঠান তার প্রতিযোগীদের তুলনায় ইচ্ছাকৃতভাবে কম দামে পণ্য বা সেবা বিক্রির পদ্ধতি প্রয়োগ করে, যার উদ্দেশ্য স্বল্প মেয়াদে লোকসানের শিকার হলেও দীর্ঘমেয়াদে বাজারে আধিপত্য বজায় রাখা বা বৃদ্ধি করা।[১] এর লক্ষ্য হল শিল্পখাতে বিদ্যমান কিংবা সম্ভাব্য প্রতিযোগীদের বাজার থেকে বেরিয়ে যেতে বাধ্য করা, কেননা তারা লোকসানের শিকার না হয়ে আধিপত্য বিস্তারকারী ব্যবসা প্রতিষ্ঠানটির সাথে প্রতিযোগিতায় এঁটে উঠতে পারে না। [২] যখন প্রতিযোগী প্রতিষ্ঠানগুলি বিলুপ্ত হয়ে যায়, তখন আধিপত্য বিস্তারকারী প্রতিষ্ঠানটি বাজারের আরও বড় অংশের অধিকারী হয় এবং তাদের পণ্য বা সেবার দাম দীর্ঘ মেয়াদে একচেটিয়া পর্যায়ে উন্নীত করে প্রাথমিক স্বল্পমেয়াদী ক্ষতি পুষিয়ে নেয়।[৩]

লুন্ঠনাত্মক দাম নির্ধারণ ও প্রতিযোগিতামূলক দাম নির্ধারণের মধ্যে পার্থক্য হল এই যে প্রথমোক্তটিতে আধিপত্য বিস্তারকারী ব্যবসাটি পুষিয়ে নেওয়ার দশাতে চড়া দাম হাঁকায় এবং যেহেতু বাজারে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা কমে যায়, সেহেতু ক্রেতাদের জন্য লভ্য পছন্দযোগ্য পণ্য বা সেবার সংখ্যাও হ্রাস পায়, ফলে ঐ চড়া দামেই ক্রেতারা পণ্য বা সেবা কিনতে বাধ্য হয়।[৪] লুন্ঠনাত্মক দাম  নির্ধারণের ফলে সাধারণত ভোক্তাদের ক্ষতি হয় এবং এটিকে বহু আইনি এখতিয়ারভুক্ত এলাকাতে প্রতিযোগিতা-বিরুদ্ধ হিসেবে গণ্য করা হয়। কিছু কিছু প্রতিযোগিতা আইনের অধীনে এটির চর্চা বেআইনি গণ্য করা হয়।

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Glossary of Statistical Terms"। OECD। জানুয়ারি ৩, ২০০২। সংগ্রহের তারিখ এপ্রিল ২২, ২০২০ 
  2. "Guidance on the Commission's Enforcement Priorities in Applying Article 82 of the EC Treaty to Abusive Exclusionary Conduct by Dominant Undertakings"। European Commission। ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০০৯। Paragraph 63। সংগ্রহের তারিখ এপ্রিল ২২, ২০২০ 
  3. "Predatory Pricing" (PDF)। OECD। ১৯৮৯। সংগ্রহের তারিখ এপ্রিল ২২, ২০২০ 
  4. FDIC Consumer Compliance Examination Manual (PDF)। জুন ২০১৯। পৃষ্ঠা II – 2.1।