লুংচিয়াং সেতু

স্থানাঙ্ক: ২৪°৫০′২০″ উত্তর ৯৮°৪০′২০″ পূর্ব / ২৪.৮৩৮৮° উত্তর ৯৮.৬৭২২° পূর্ব / 24.8388; 98.6722
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
লুংচিয়াং সেতু

龙江特大桥
龙江特大桥1.jpg
স্থানাঙ্ক২৪°৫০′২০″ উত্তর ৯৮°৪০′২০″ পূর্ব / ২৪.৮৩৮৮° উত্তর ৯৮.৬৭২২° পূর্ব / 24.8388; 98.6722
বহন করেএস১০ বাওটেং এক্সপ্রেসওয়ে
অতিক্রম করেলং নদী (ইউন্নান)
স্থানবৌশান, ইউনান, চীন
বৈশিষ্ট্য
নকশাসাসপেনশন
উপাদানইস্পাত
মোট দৈর্ঘ্য২,৪৭১ মি (৮,১০৭ ফু)
প্রস্থ৩৩.৫ মি (১১০ ফু)
উচ্চতা১৬৯.৭ মি (৫৫৭ ফু)
দীর্ঘতম স্প্যান১,১৯৬ মি (৩,৯২৪ ফু)
নিন্মে অনুমোদিত সীমা২৮০ মি (৯২০ ফু)
ইতিহাস
নির্মাণ শুরু২ আগস্ট, ২০১১ [১]
নির্মাণ শেষ৫ এপ্রিল, ২০১৬
চালু১ মে, ২০১৬
অবস্থান

লুংচিয়াং সেতু বা লুং নদীর সেতু (龙江 特 大桥) চীনের ইউন্নান প্রদেশের পাওশান শহরের কাছে অবস্থিত একটি ঝুলন্ত সেতু। সেতুটির প্রধান খাম্বা-পরিসরটি ১,১৯৬ মিটার (৩,৯২৪ ফুট) দীর্ঘ, যা এযাবৎ কালের সবচেয়ে দীর্ঘতম। [২][৩] নিচের নদী থেকে ২৮০ মিটার (৯২০ ফুট) উচুতে নির্মিত এই সেতুটি বিশ্বের সর্বোচ্চ ঝুলন্ত সেতু। ২০১৬ সালের এপ্রিল মাসে সেতুটির নির্মাণকাজ সম্পন্ন হয়।

ভূগোল উপাত্ত[সম্পাদনা]

সেতুটি পাওশান-থেংচুং মহাসড়কের একটি অংশ যা দক্ষিণ পশ্চিম চীনের পাওশান এবং থেংচুং নগরী দুইটির মধ্যে সংযোগ স্থাপন করেছে, এবং মায়ানমার থেকে সরাসরি যোগাযোগ ঘটাবে। এটি লং নদী উপত্যকা অতিক্রম করে, বোটেং এক্সপ্রেসওয়ের বৃহত্তম প্রাকৃতিক বাধা।বৌশান থেকে টেন্চং পর্যন্ত যাবার জন্য আগে সেতু না থাকার জন্য ১৩.৫ কিমি (৮.৪মাইল) পর্বতমালার মধ্য দিয়ে চলাচল করতে হত এবং বর্তমানে সেতু তৈরিতে যাত্র পথ ২৪৭১ মিটার (৮,১০৭ ফুট) এর মধ্যে সম্পূর্ণ হয়ে যায়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]