লিলিমুর আর্ভিডসন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
লিলিমুর আর্ভিডসন
গটল্যান্ডের ৩৪তম গভর্নর
কাজের মেয়াদ
১৯৯৮ – ২০০৪
প্রধানমন্ত্রীজোরান পের্শোন
পূর্বসূরীথর্স্টেন অ্যান্ডারসন
উত্তরসূরীমারিয়েন স্যামুয়েলসন
সুইডিশ মিউনিসিপাল ওয়ার্কার্স ইউনিয়নের
প্রেসিডেন্ট
কাজের মেয়াদ
১৯৮৮ – ১৯৯৫
পূর্বসূরীসিগভার্ড মার্জাসিন
উত্তরসূরীযালবা থর্ন
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম(১৯৪৩-০৫-০১)১ মে ১৯৪৩
স্করা, সুইডেন
মৃত্যু২৩ এপ্রিল ২০১২(2012-04-23) (বয়স ৬৮)
স্টকহোম, সুইডেস
রাজনৈতিক দলসোস্যাল ডেমোক্রাটস
জীবিকানার্স

মাজ লিলিমুর আর্ভিডসন (১ মে ১৯৪৩ - ২৩ এপ্রিল ২০১২) একটি সুইডিশ ট্রেড ইউনিয়ন নেতা গভর্নর। তিনি ১৯৯৮ থেকে ২০০৪ সাল পর্যন্ত গটল্যান্ডের গভর্নর ছিলেন।.[১][২][৩]

প্রাথমিক জীবন ও ক্যারিয়ার[সম্পাদনা]

আর্ভিডসন নার্স হিসাবে প্রশিক্ষিত এবং পরবর্তীতে উদ্বেবাল্লা হাসপাতালের নার্সিং সহকারী হিসেবে কাজ করেন। আর্ভিডসন নার্সিং এর পাশাপাশি ট্রেড ইউনিয়নের সাথে যুক্ত হন। ১৯৭২ সালে সুইডিশ মিউনিসিপাল ওয়ার্কার্স ইউনিয়নে একাডেমিক ন্যায়পাল হিসাবে কর্মরত ছিলেন। ১৯৮২ সালে তিনি ন্যায়পাল হিসেবে নিযুক্ত হন এবং ১৯৮৩ সালে উপ-রাষ্ট্রপতি হিসেবে নিযুক্ত হন।

জুন ১৯৮৮ সালে তিনি সুইডিশ মিউনিসিপাল ওয়ার্কার্স ইউনিয়নের সভাপতি নিযুক্ত হন। তিনি ইউনিয়নের প্রথম মহিলা রাষ্ট্রপতি। এছাড়াও, তিনি সুইডিশ ট্রেড ইউনিয়ন কনফেডারেশনের (এলও) যেকোনো সংস্থার প্রথম মহিলা রাষ্ট্রপতি হন।[৪] ১৯৯০ থেকে ১৯৯১ সাল পর্যন্ত তিনি সুইডিশ সোশ্যাল ডেমোক্র্যাটিক ওয়ার্কার্স পার্টির নির্বাহী বোর্ডের সদস্য ছিলেন।

১৯৯৫ সালে, তিনি পাকস্থলীল আলসারের কারণে সুইডিশ মিউনিসিপাল ওয়ার্কারস ইউনিয়নের প্রেসিডেন্ট পদ থেকে অবসর নেন। তিনি ভক্সজো বিশ্ববিদ্যালয়ের বোর্ডের এবং এস্তোনিয়ার দুর্যোগ বিশ্লেষণ গোষ্ঠীর সদস্য ছিলেন।

১৫ জানুয়ারী ১৯৯৮ সালে সুইডিশ সরকার আর্ভিডসনকে গোটল্যান্ডের গভর্নর হিসেবে নিয়োগ দেন।গভর্নর হিসাবে দায়িত্ব পালনের সময় তিনি বিশেষ করে দ্বীপ থেকে মূল ভূমিতে পরিবহন ব্যবস্থার উন্নয়ন করেন। ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০০৪ এ তিনি গভর্নরের পদ থেকে অবসর গ্রহণ করেন।২০০৩ সালে আর্ভিডসন সুইডিশ ন্যাশনাল মেরিটাইম জাদুঘরের চেয়ারম্যান হিসেবে নিযুক্ত হন, তবে ২০০৪ সালের শেষদিকে চাকুরী ছেড়ে দেন। ২০১২ সালের ২৩ এপ্রিলে তিনি রোগাক্রান্ত অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন।

২০০৩ সালে আর্ভিডসন সুইডিশ ন্যাশনাল মেরিটাইম জাদুঘরের চেয়ারম্যান হিসেবে নিযুক্ত হন, তবে ২০০৪ সালের শেষদিকে চাকুরী ছেড়ে দেন।[৫]

২০১২ সালের ২৩ এপ্রিলে তিনি রোগাক্রান্ত অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন।[৬]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Lillemor Arvidsson is dead Aftonbladet, 23 April 2012.
  2. "Lillemor Arvidsson död"। ১০ মে ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৭ 
  3. Hakeberg, Anna Sofia (২৩ এপ্রিল ২০১২)। "Minns henne som folklig"। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৭ 
  4. "Svenska Kommunalarbetarförbundet 2012-04-23: Kommunals fd ordförande Lillemor Arvidsson har avlidit"। ২৩ জুলাই ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৭ 
  5. tobias.brandel@svd.se, Tobias Brandel। "Kulturchef i nytt blåsväder"। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৭ 
  6. "Lillemor Arvidsson är död"। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৭