বাপু জাদুঘর, বিজয়ওয়াড়া

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

বাপু জাদুঘর (পূর্বতন: ভিক্টোরিয়া জুবিলি জাদুঘর) হল একটি প্রত্নতাত্ত্বিক জাদুঘর যা বিজয়ওয়াড়ার এম জি রোডে অবস্থিত৷[১] প্রখ্যাত চলচ্চিত্র পরিচালক, চিত্রকর, কার্টুনিস্ট এবং লেখক বাপুর স্মৃতিতে এটির নামকরণ করা হয়েছে।[২] ভারতীয় পুরাতত্ত্ব সর্বেক্ষণ দ্বারা জাদুঘরটি রক্ষণাবেক্ষণ করা হয় এবং এখানে হিন্দু এবং বৌদ্ধ ধর্মের প্রতীকগুলির ভাস্কর্য, চিত্র এবং নিদর্শনগুলির বিশাল সংগ্রহ রয়েছে, যার মধ্যে কয়েকটি দ্বিতীয় এবং তৃতীয় শতাব্দী সমকালীন পুরানো। দালানের কাঠামোটি ইন্দো-ইউরোপীয় স্থাপত্যে শৈলীর এবং এটি একশো বছরেরও বেশি পুরানো।[৩]

বাপু জাদুঘর
বাপু জাদুঘরে নাজভিদ জমিদারের মূর্তি৷

ইতিহাস[সম্পাদনা]

১৮৮৭ সালে রানী ভিক্টোরিয়ার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপনের অংশ হিসাবে এই সংগ্রহশালাটি তৈরি করা হয়েছিল। ১৮৮৭ সালের ২৭ শে জুন কৃষ্ণা জেলার জেলাশাসক রবার্ট সিওয়েল এটির ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেছিলেন।[৪] ১৯২১ সালে শ্রী পিংগালি ভেঙ্কাইয়া এই স্থানে গান্ধীজীকে  ত্রি-বর্ণের পতাকা উপহার দিয়েছিলেন৷ জাদুঘরটি প্রথমদিকে শিল্প প্রদর্শনী ছিল। ১৯৬২ সালে অন্ধ্র প্রদেশ সরকারের প্রত্নতত্ত্ব এবং জাদুঘর বিভাগের পৃষ্ঠপোষকতায় এটিকে প্রত্নতাত্ত্বিক যাদুঘরে রূপান্তরিত হয়েছিল। [৪]

চিত্র ও নিদর্শনসমূহ[সম্পাদনা]

জাদুঘরে ঐতিহাসিক গ্যালারী, পাথর খোদাই করা শিলালিপি, মুদ্রা, তরোয়াল, বর্ম, ঢাল, অস্ত্র , অলঙ্কার ইত্যাদি রয়েছে, যা রাজারা ব্যবহার করতেন। আল্লুরুর সাদা চুনাপাথরের এক দন্ডায়মান গৌতম বুদ্ধ (তৃতীয় – চতুর্থ শতাব্দী)[৫] , মহিষাসুরকে হত্যায় রত অবস্থায় দেবী দুর্গা ও ভগবান শিবের মূর্তি (দ্বিতীয় শতাব্দীর) এই জাদুঘরে রাখা আছে।[৬]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. শ্রীধরণ, জে.আর। "Vijayawada's Bapu Museum all set for a makeover"দ্য হিন্দু (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৫ জুন ২০১৭ 
  2. সাহিতি, পি.নাভ্যা। "Bapu museum to reopen with new frills"দ্য হিন্দু (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৬-১৪ 
  3. "etymology of museum"। মাইবিজয়ওয়াড়া। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুন ২০১৪ 
  4. "Museum info"। myvijayawada.org। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুন ২০১৪ 
  5. Tourist Guide to Andhra Pradesh। সুরা বুকস্। পৃষ্ঠা ৩৬। আইএসবিএন 9788174781765। সংগ্রহের তারিখ ২৪ জানুয়ারি ২০১৬ 
  6. "Museum features"। ডিসকভারড্ইন্ডিয়া.কম। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুন ২০১৪