বিষয়বস্তুতে চলুন

নিকোলে স্ক্লিফোসভস্কি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
নিকোলে স্ক্লিফোসভস্কি
Николай Склифосовский
১৮৯৯ সালে নিকোলে স্ক্লিফোসভস্কি
জন্ম(১৮৩৬-০৩-২৫)২৫ মার্চ ১৮৩৬[১]
দুবাসারী, খেরসন গভর্নরেট, রুশ সাম্রাজ্য[১]
মৃত্যু৩০ নভেম্বর ১৯০৪(1904-11-30) (বয়স ৬৮)[১]
পোল্টাভা শহরের কাছে, রুশ সাম্রাজ্য[১]
শিক্ষাডক্টর অব সায়েন্স (১৮৬৩)[১]
মাতৃশিক্ষায়তনইম্পেরিয়াল মস্কো বিশ্ববিদ্যালয় (১৮৫৯)
পরিচিতির কারণঅস্ত্রোপচারে অ্যাসেপটিক পদ্ধতির প্রথম প্রয়োগ;
লোকাল অ্যানেস্থেসিয়ার প্রথম ব্যবহার
বৈজ্ঞানিক কর্মজীবন
কর্মক্ষেত্রমেডিসিন
প্রতিষ্ঠানসমূহইম্পেরিয়াল মস্কো বিশ্ববিদ্যালয়
অভিসন্দর্ভের শিরোনামরক্তাক্ত পেরিউট্রিকাল টিউমার সম্পর্কে (О кровяной околоматочной опухоли)[১]

নিকোলাই ভ্যাসিলিভিচ স্ক্লিফোসোভস্কি (২৫ মার্চ ১৮৩৬ - ৩০ নভেম্বর ১৯০৪) একজন ইউক্রেনীয়-রাশিয়ান শল্যচিকিৎসক এবং শরীরতত্ত্ববিদ ছিলেন। নিকোলে ছিলেন সেন্ট পিটার্সবার্গ, কিয়েভ এবং মস্কোর মেডিসিনের অধ্যাপক। তিনি দেবিচিয়ে পোলে "ক্লিনিক্যাল টাউন" এর প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন।

জীবনী

[সম্পাদনা]

নিকোলে ১৮৩৬ সালের ৬ এপ্রিল (জুলিয়ান ক্যালেন্ডারে ২৫ মার্চ) দুবাসারী শহরের কাছে জন্মগ্রহণ করেন। বর্তমানে এই শহরটি রুশ-অধিকৃত ট্রান্সনিস্ট্রিয়ার মলদোভায়। নিকোলের বাবা ভ্যাসিলি স্ক্লিফোসভস্কি ছিলেন একজন দরিদ্র সম্ভ্রান্ত ব্যক্তি। তিনি স্থানীয় কোয়ারেন্টাইন অফিসের একজন কেরানি ছিলেন। ভ্যাসিলি স্ক্লিফোসভস্কির বারো সন্তানের মধ্যে নিকোলে ছিলেন নবম সন্তান। বড় পরিবারটি তার বাবার সামান্য বেতনের উপর ভরসা করে চলত। নিকোলে একজন ভাল পরিশ্রমী ছাত্র ছিলেন। তার প্রিয় বিষয় ছিল ইতিহাস, সাহিত্য, বিজ্ঞান এবং বিদেশী ভাষা। ১৮৫৪ সালে তিনি ওডেসা জিমনেসিয়াম থেকে রৌপ্য পদক পেয়ে স্নাতক হন। ১৮৫৯ সালে তিনি মস্কো বিশ্ববিদ্যালয় থেকে চিকিৎসাবিজ্ঞান নিয়ে পাশ করেন।

১৮৬৬-৬৭ সালে নিকোলে জার্মানিতে প্যাথলজিকাল ইনস্টিটিউটে কাজ করেন। তারপরে তিনি ফ্রান্স এবং স্কটল্যান্ডের ক্লিনিকগুলিতে কাজ করেন। এডিনবার্গ বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনার কাজও করেছেন।[২]

১৮৭০ সালে বিশিষ্ট রুশ শল্যচিকিৎসক পিরোগভের সুপারিশে নিকোলে স্ক্লিফোসভস্কিকে কিয়েভ বিশ্ববিদ্যালয়ের শল্যচিকিৎসা বিভাগের প্রধান হিসেবে আমন্ত্রণ জানানো হয়। যদিও তিনি কিয়েভে বেশি দিন থাকেননি। শীঘ্রই তিনি আবার ফ্রাঙ্কো-প্রুশিয়ান যুদ্ধে আহত সৈনিকদের চিকিৎসায় মনোনিবেশ করেন।

নিকোলে প্রায় ১০,০০০ আহত সৈনিকের চিকিৎসা করেন। চিকিৎসক এবং নার্সরাদের মধ্যে নিকোলের স্ত্রী সোফিয়া ওলেক্সান্দ্রিভনাও ছিলেন। ডাক্তার নিকোলেকে শল্যচিকিৎসার সময় সাহস ও মনোবল যোগাতে তার স্ত্রী সোফিয়া দুটি অপারেশনের মাঝে নিকোলের হাতে কয়েক চুমুক ওয়াইন তুলে দিতেন।[৩]

তিনি ছিলেন একজন উদ্ভাবনী শল্যচিকিৎসক, সত্তরটি বৈজ্ঞানিক গবেষণাপত্রের লেখক। তিনি অস্ত্রোপচারের জন্য নতুন পদ্ধতিরও বিকাশ করেছেন।

উত্তরাধিকার

[সম্পাদনা]
ট্রান্সনিস্ট্রিয়ার ২০১২ সালের স্ট্যাম্পে তরুণ স্ক্লিফোসভস্কি

মস্কো ইন্সটিটিউট অফ ইমার্জেন্সি ফার্স্ট এইড নামের এই সংস্থাটি সংক্ষেপে স্কলিফ নামেও পরিচিত। এটি ১৯২৩ সাল থেকে নিকোলে স্ক্লিফোসভস্কির নাম বহন করে চলেছে।[১]

২০০১ সালে সেন্ট্রাল ব্যাঙ্ক অফ ট্রান্সনিস্ট্রিয়া এই অঞ্চলের স্থানীয়দের প্রতিনিধিত্ব করে "প্রিডনেস্ট্রোভির ব্যতিক্রমী ব্যক্তিদের" সম্মানে একটি স্মারক রৌপ্য মুদ্রা তৈরি করার ব্যবস্থা করে। নিকোলে স্ক্লিফোসভস্কিকে সম্মান জানাতে তার নামে স্মারক রৌপ্য মুদ্রা তৈরি করা হয়।

মৃত্যু

[সম্পাদনা]

নিকোলে সেন্ট পিটার্সবার্গ ছেড়ে যাওয়ার পর পোল্টাভার কাছে একটি এস্টেটে বসবাস করেন। ১৯০৪ সালের ৩০ নভেম্বর তার জীবনাবসান হয়। পোল্টাভা যুদ্ধের স্থানের কাছে তাকে সমাহিত করা হয়।

তথ্যসূত্র

[সম্পাদনা]
  1. "Склифосовский Николай Васильевич"Летопись Московского университета (রুশ ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০১-২৯ 
  2. https://en.healthy-food-near-me.com/sklifosovsky-biography-of-an-outstanding-russian-surgeon/
  3. "Замовлення на вбивство губернатора та смерть дітей: полтавське життя хірурга Скліфосовського - ipoltavets.com"। আগস্ট ২৬, ২০২২।