টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Jump to navigation Jump to search
10 Base Twisted Cable
8P8C Plug
8P8C Plug
25 pair color code chart.svg
25 pair color code chart

টেলিফোন লাইনের কানেকশন না স্বল্প খরচে কোনো দূরত্বে নেটওয়ার্ক তৈরির জন্য যে ক্যাবলটি ব্যবহৃত হয় সেটিই হলো টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবল (Twisted Pair Cable)। টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবলে মোড়ানো দুটি কপার তার থাকে এবং দুটিকে পৃথক করার জন্য অপরিবাহী পদার্থ ব্যবহার করা হয়।

এ ক্যাবলে সাধারণত ৪ জোড়া তার একসাথে থাকে এবং প্রতি জোড়ায় একটি কমন রঙের (সাদা) হয় এবং বাকি তার গুলো হয় ভিন্ন রঙের। তারগুলো সংযোগের সময় ১, ২, ৩, ৪, ৫, ৬, ৭, ৮ নম্বরের ভিত্তিতে সংযোগ দিতে হয়। প্রতি জোড়া তারের এক একটির পুরুত্ব হয় ০.৪ মি.মি. থেকে ০.৯ মি.মি. । এ ক্যাবলে ডাটা ট্রান্সমিশন লস অত্যন্ত বেশি এবং ফ্রিক্যুয়েন্সি রেঞ্জ 5 MHz । এর ব্যান্ডউইথ 10 Mbps থেকে 1 Gbps ।

আবিষ্কার[সম্পাদনা]

Wire transposition on top of pole

আলেকজান্ডার গ্রাহাম বেল ১৮৮১ সালে এটি আবিষ্কার করেন। [১]

টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবলের প্রকারভেদ[সম্পাদনা]

টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবল দু’প্রকার। যথা:

ক. আবরণহীন টুইস্টেড পেয়ার বা ইউটিপি (UTP – Unshielded Twisted Pair)

খ. আবরণযুক্ত টুইস্টেড পেয়ার বা এসটিপি (STP – Shielded Twisted Pair)

আবরণহীন টুইস্টেড পেয়ার বা ইউটিপি (UTP)[সম্পাদনা]

UTP Cable

ইউটিপি ক্যাবল মূলত একাধিক জোড়া টুইস্টেড পেয়ার সমষ্টি যা আবার প্লাস্টিক আবরণে মোড়ানো থাকে। তারের মধ্যে দিয়ে যখন সিগন্যাল অতিক্রম করতে থাকে তখন এর শক্তি বা মান ক্রমান্বয়ে লোপ পেতে থাকে। মোচড়ের দৈর্ঘ্য ৫ থেকে ১৫ সে.মি.।

Unshielded twisted pair cable with different twist rates

LAN সংযোগের ক্ষেত্রে ইউটিপি CAT-6 বেশি ব্যবহৃত হয়। এটি ১০ এমবিপিএস থেকে ১ জিবিপিএস রেটে ডেটা ট্রান্সমিট করতে পারে।

অসুবিধা[সম্পাদনা]

এ ধরনের ক্যাবলে ১০০ মিটারের বেশি দূরত্বে ডেটা পাঠানো যায় না।

আবরণযুক্ত টুইস্টেড পেয়ার বা এসটিপি (STP)[সম্পাদনা]

STP cable
F/UTP cable
S/FTP cable
U/FTP, F/UTP and F/FTP are used in Cat 6a cables

এসটিপি ক্যাবলের বাইরের জ্যাকেট বা প্লাস্টিক আবরণ থাকে এবং প্রতিটি প্যাঁচানো জোড়া তারের মধ্যে একটি শিল্ড (Shield) বা শক্ত আবরণ থাকে। এ আবরণটি সাধারণত অ্যালুমিনিয়াম বা পলিসটার দ্বারা তৈরি, যা এসটিপি ক্যাবলকে ইলেক্ট্রোম্যাগনেটিক ইন্টারফেরেন্সের এর হাত থেকে রক্ষা করে। এ ক্যাবল মোটা ও শক্ত হওয়ায় নড়াচড়া অসুবিধাজনক। এ ক্যাবল দিয়ে 16 Mbps থেকে 500 Mbps রেটে ডেটা ট্রান্সমিশন হতে পারে। দুটি পৃথক তারকে প্যাঁচানোর কারণে Radiated Noise এবং EMI (Electromagnetic Interference) দ্বারা ইউটিপি ক্যাবলে সিগন্যাল অপেক্ষাকৃত কম বাধাগ্রস্ত হয়।

টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবলের সুবিধা[সম্পাদনা]

১. কম দূরত্বে যোগাযোগের ক্ষেত্রে ব্যাপক ভাবে ব্যবহৃত হয়।

২. টেলিফোন লাইনে সর্বপ্রথম টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবল ব্যবহৃত হয়।

৩. অন্যান্য ক্যাবলের চেয়ে দামে সস্তা।

৪. সহজে স্থাপন করা যায়।

টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবলের অসুবিধা[সম্পাদনা]

১. ডেটা ট্রান্সমিশন ডিলে টাইম অন্যান্য ক্যাবলের চেয়ে বেশি।

২. বেশি দূরত্বে ডেটা পাঠালে ২ কি.মি. পরপর রিপিটার ব্যবহার করতে হয়।

৩. ট্রান্সমিশন লসও অপেক্ষাকৃত বেশি।

টুইস্টেড পেয়ার ক্যাবলের ব্যবহার[সম্পাদনা]

১. লোকাল এরিয়া নেটওয়ার্ক বা ইথারনেট।

২. সকল ধরনের টেলিফোন নেটওয়ার্ক।

৩. বাসাবাড়িতে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট কানেকশন লাইন দিতে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. US 244426, Bell, Alexander Graham, "Telephone-circuit", ইস্যু করা হয়েছে 1881 . See also TIFF format scans for USPTO 00244426