ক্লামিডিয়া

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
Chlamydia
Pap smear showing clamydia in the vacuoles 500x H&E.jpg
Pap smear showing C. trachomatis (H&E stain)
শ্রেণীবিভাগ এবং বহিঃস্থ সম্পদ
বিশিষ্টতা infectious disease[*]
আইসিডি-১০ A৫৫-A৫৬.৮, A৭০-A৭৪.৯
আইসিডি-৯-সিএম ০৯৯.৪১, ৪৮৩.১
ডিজিসেসডিবি ২৩৮৪
ইমেডিসিন med/340
মেএসএইচ D০০২৬৯০ (ইংরেজি)

ক্লামিডিয়া (ইংরেজি: Chlamydia) একধরণের যৌনকার্য্যর দ্বারা সংক্রামিত রোগ। এটি ক্লামিডিয়া ট্রাকোমেটিকস নামক ব্যাক্টেরিয়ার জন্য হয়।[১] ইহা মহিলাদের প্রজনন অংগগুলির ক্ষতি করে।[২]

সংক্রমণ[সম্পাদনা]

যৌনসংগমর সময়ে যোনী মুখ ও শৌচস্থানে এই সংক্রমণ হতে পারে। আক্রান্ত মায়ের থেকে প্রসবের সময় যোনী দ্বারা এই সংক্রমণ শিশুর দেহেও যেতে পারে। [২][৩] যৌনকার্য্যে সক্ষম সকল ব্যক্তি এই রোগে আক্রান্ত হতে পারে। এমনকি চোখেও সংক্রমণ ঘটে ক্ষতি হতে পারে।[৪]

উপসর্গ[সম্পাদনা]

Inflammation of the cervix in a female from chlamydia infection characterized by mucopurulent cervical discharge, redness, and inflammation.
Male patients may develop a white, cloudy or watery discharge (shown) from the tip of the penis.

প্রথম অবস্থাতে এই ব্যাক্টেরিয়া মহিলাদের যোনী, জরায়ু মুখ ও জরায়ু নালীতে সংক্রমণ ঘটাতে পারে। মহিলাদের যোনী থেকে অস্বাভাবিক স্রাব নির্গত হতে, ও প্রস্রাব করতে জ্বালা হতে পারে। সংক্রমণ যতই জরায়ুর থেকে ডিম্বনলী পর্যন্ত প্রসারিত হয়- ততই কিছু মহিলার তলপেট, কোমর ইত্যাদিতে ব্যথা, বমিভাব, জ্বর, যৌনসংগমের সময়ে কষ্ট পাওয়া, মাসিক ঋতুস্রাবের মধ্যবর্তী সময়কালে তেজ যেতে পারে। [৫] কিছু মহিলার কোনো উপসর্গই দেখা দেয় না । [২] পুরুষদের এই সংক্রমণের ফলে লিংগে জলীয় পদার্থের নিঃসরণ ও প্রস্রাব করার সময়ে জ্বালা অনুভূত হতে পারে। লিংগের মুক্ত অংশে পোড়াভাব ও চুলকানি হতে পারে।[২]

পরিণাম[সম্পাদনা]

Disability-adjusted life year (DALY) for chlamydia per 100,000 inhabitants in 2004.[৬]
  no data
  ≤10
  10–20
  20–30
  30–40
  40–50
  50–60
  60–70
  70–80
  80–90
  90–100
  100–110
  more than 110

এই রোগের চিকিৎসা না করলে প্রজনন অংগ ও সামগ্রিক শারিরীক স্বাস্থ্যের ওপরে অল্পম্যাদী ও দীর্ঘম্যাদী ভয়াবহ জটিল অবস্থার সৃষ্টি হতে পারে।[২] এমন মহিলার যৌনসংগমের সময় এইচ আই ভির সংক্রমণ হওয়ার সম্ভাবনা ৫ গুণ বেশি। [৫] পুরুষের ক্ষেত্রে তেমন বিশেষ জটিলতা দেখা দেয় না। তবে জজনাঙ্গে ও যৌনাশয়ে বিভিন্ন রোগ দেখা দিতে পারে। [৭]

প্রতিরোধ[সম্পাদনা]

যেকোনো যৌন সংক্রমণ প্রতিরোধের উচিত উপায় হ’ল-যৌন সম্পর্ক না করা অথবা যৌন সংক্রামক রোগ না থাকা একজন ব্যক্তিকে যৌন সংগী করে নেওয়া।[৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "2014 Sexually Transmitted Diseases Surveillance Chlamydia"। নভেম্বর ১৭, ২০১৫। সংগৃহীত ১০ জুন ২০১৬ 
  2. "Chlamydia - CDC Fact Sheet"CDC। মে ১৯, ২০১৬। সংগৃহীত ১০ জুন ২০১৬ 
  3. "STD Facts - Chlamydia"। Center For Disease Control। ডিসেম্বর ১৬, ২০১৪। সংগৃহীত ২০১৫-০৭-২৪ 
  4. "CDC - Trachoma, Hygiene-related Diseases, Healthy Water"। Center For Disease Control। ডিসেম্বর ২৮, ২০০৯। সংগৃহীত ২০১৫-০৭-২৪ 
  5. "2015 Sexually Transmitted Diseases Treatment Guidelines"CDC। জুন ৪, ২০১৫। সংগৃহীত ১০ জুন ২০১৬ 
  6. "WHO Disease and injury country estimates"World Health Organization। ২০০৪। সংগৃহীত Nov ১১, ২০০৯ 
  7. "Chlamydial infections and prostatitis in men"BJU Int. 97 (4): 687–90। ২০০৬। ডিওআই:10.1111/j.1464-410X.2006.06007.xপিএমআইডি 16536754 
  • আইএনডিজি দল।

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]