ইয়াস ইবনে মুয়াবিয়া আল-মুযানী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

ইয়াস ইবনে মুয়াবিয়া আল-মুযানী রহঃ (পুরো নাম, আবু ওয়াসিলাহ ইয়াস ইবনে মুয়াবিয়া ইবনে কুররাহ) ছিলেন দ্বিতীয় হিজরি শতাব্দীর একজন তাবে'ঈ কাযী (বিচারক); বাস করতেন বসরায় (বর্তমান ইরাক)। একজন শিক্ষিত ও জ্ঞানী ব্যক্তিত্ব ছিলেন।

জীবনী[সম্পাদনা]

তার জীবনীকারগণ তাকে ফাকীহ বলে উল্লেখ করেছেন। তিনি জন্মগ্রহণ করেন ৪৬ হিজরিতে ইয়ামামাতে। হাদীছ শিক্ষা লাভ করেছিলেনঃ আনাস বিন মালিক , সাঈদ ইবনুল মুসায়্যিব , সাঈদ ইবনে জুবায়ের , আবু মিযলায প্রমুখ বিদ্বান মনীষীদের কাছ থেকে।

তার ছাত্রদের মাঝে ইমাম শু'বা, হাম্মাদ শা'বান, হুমাইদ আত-তাবীল, দাউদ ইবনে আবি হিন্দ, মু'আবি ইবনে আব্দিল কারিমের মতন জগতবিখ্যাত স্কলারগণ রয়েছেন।

তিনি উমাইয়্যা শাসনামলে বসরার কাযী নিযুক্ত হন। উমাইয়্যা আমলের বিখ্যাত খলীফা উমার বিন আব্দুল আযীয তাকে তার উপযুক্ত পদ প্রদান করেছিলেন।

তার বুদ্ধি ও বিচক্ষনতার কারণে প্রদত্ত বিচারিক রায়গুলো লোকের মুখে মুখে ফিরতো। এরকম বহু চমকপ্রদ ঘটনা তার জীবনীগ্রন্থে পাওয়া যায়।[১]

তিনি ১২২ হিজরি সনে মৃত্যুবরণ করেন।

সূত্র[সম্পাদনা]

  1. Chenery's Al Hariri, p. 334