আনোয়ার উদ্দিন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
আনোয়ার উদ্দিন
Anwar Uddin.png
Uddin in April 2007
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম Anwar Uddin[১]
জন্ম (1981-11-01) ১ নভেম্বর ১৯৮১ (বয়স ৩৭)[১]
জন্ম স্থান স্টেপনি, ইংল্যান্ড
উচ্চতা ৬ ফুট ২ ইঞ্চি (১.৮৮ মিটার)[১]
মাঠে অবস্থান ডিফেন্ডার
যুব পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন
২০০০?–২০০১ ওয়েস্টহাম ইউনাইটেড
জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন*
বছর দল উপস্থিতি (গোল)
২০০১–২০০২ ওয়েস্টহাম ইউনাইটেড (০)
২০০২ শেফিল্ড অয়ান্সডে (০)
২০০২–২০০৪ ব্রিস্টল রোভার্স ১৯ (১)
২০০৩–২০০৪হারফর্ড ইউনাইটেড (লোন) (২)
২০০৪টেল ফোর্ড ইউনাইটেড (লোন) (০)
২০০৪–২০১০ ডেগেনহাম এন্ড রেডরিজ ১৮৮ (৬)
২০০৯গ্রেইজ অ্যাথলেটিক (লোন) ১১ (১)
২০১০–২০১২ বারনেট ৩৯ (১)
২০১২ শুটন ইউনাইটেড ১০ (১)
২০১২–২০১৩ ইষ্ট বর্ণ বরাহ ২৯ (০)
দলসমূহ পরিচালিত
2011 বারনেট (সহকারি ম্যানেজার)
২০১৪– ম্যাল্ডন এন্ড টিপট্রি (সহকারি ম্যনেজার)
  • পেশাদারী ক্লাবের উপস্থিতি ও গোলসংখ্যা শুধুমাত্র ঘরোয়া লিগের জন্য গণনা করা হয়েছে এবং 22:40, 27 April 2013 (UTC) তারিখ অনুযায়ী সঠিক।
† উপস্থিতি(গোল সংখ্যা)।

আনোয়ার উদ্দিন (ইংরেজি Anwar Uddin, জন্ম ১১ নভেম্বর ১৯৮১)একজন ব্রিটিশ বাংলাদেশী ফুটবলার এবং কোচ। তিনি একজন ডিফেন্ডার এবং সর্ব শেষ ইষ্টবোর্ণ বরা'র হয়ে খেলেছেন। বর্তমানে তিনি ম্যাল্ডন এবং ত্রিপ্ত্রি'র সহকারী পরিচালক। তিনি হচ্ছেন প্রথম কোন বাংলাদেশী যিনি ইংলিশ লিগে খেলেছেন এবং সেই সাথে প্রথম কোন এশিয়ান যিনি ইংলিশ লীগের সেরা চার লিগে অধিনায়কের দায়িত্ত পালন করছেন। তাঁর গ্রামের বাড়ি বাংলাদেশের সিলেট জেলায়।

প্রথম জীবন[সম্পাদনা]

আনোয়ার উদ্দিনের জন্ম ইংল্যান্ডের ইষ্ট লন্ডনে হলেও তাঁর বাবা একজন সিলেটি এবং মা একজন ইংলিশ।[২] তাঁর বাবা ১৯৬০ সালের দিকে লন্ডনে আসেন।[৩] আনোয়ার উদ্দিন স্থানীয় বেথনাল গ্রিনের একটি প্রাইমারি স্কুল থেকে তাঁর শিক্ষা জীবন শুরু করেন। তারা তিন ভাইয় এবং দুই বোন।[৪]

ক্যারিয়ার[সম্পাদনা]

আনোয়ার উদ্দিন হলেন প্রথম কোন ব্রিটিশ বাংলাদেশী ব্রিটেনে যিনি প্রফেশনাল ফুটবল খেলেছেন। সেই সাথে তিনি প্রথম কোন এশিয়ান যিনি ইংলিশ লিগে ক্যাপ্টেন ছিলেন। লন্ডনের ওয়েস্ট হাম ইউনাইটেডের হয়ে তাঁর ইংলিশ ফুটবলের অভিষেক। একজন সাধারণ খেলোয়াড হয়ে শুরু করলেও পড়ে তিনি এর অধিনায়ক হয়ে ছিলেন। তাঁর দল যখন ১৯৯৯ সালে এফ এ জুব কাপে চেম্পিয়ান হয় তখন তিনি চেম্পিয়ান দলের সদস্য ছিলেন। পরে ২০০২ সালে তিনি সেফিল্ড অয়েন্সডে তে স্থানান্তরিত হন।

কোচিং[সম্পাদনা]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

সম্মাননা[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Hugman, Barry J. (ed) (২০০৮)। The PFA Footballers' Who's Who 2008–09। Mainstream। আইএসবিএন 978-1-84596-324-8 
  2. Nathanson, Patrick (৮ আগস্ট ২০০৭)। "Anwar Uddin to lead Dagenham and Redbridge"The Daily Telegraph। সংগ্রহের তারিখ ৫ ডিসেম্বর ২০০৮ 
  3. Nathanson, Patrick (২০ নভেম্বর ২০০৭)। "Anwar Uddin's advice to Asian youngsters"Kick It Out। ২৪ জুলাই ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ জুন ২০১২ 
  4. Karim, Mohammed Abdul; Karim, Shahadoth (নভেম্বর ২০১৪)। British Bangladeshi Who's Who (PDF)। British Bangla Media Group। পৃষ্ঠা 15। সংগ্রহের তারিখ ১ ডিসেম্বর ২০১৪ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]