আইবেরিয়া

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
আইবেরিয়া
Logotipo de Iberia.svg
আইএটিএ আইসিএও কলসাইন
IB IBE আইবেরিয়া
প্রতিষ্ঠাকাল28 June 1927
হাবAdolfo Suárez Madrid–Barajas Airport
ফোকাস শহরBarcelona–El Prat Airport
নিয়মানুযায়ী উড়ান পরিকল্পনাIberia Plus/International Airlines Group#Loyalty programme
জোটOneworld
অধীনস্ত কোম্পানি
  • Iberia Regional
  • Iberia Express
  • Iberia Cargo
বিমানবহরের আকার79 (excluding subsidiaries)
গন্তব্যIberia destinations
প্রধান কোম্পানিInternational Airlines Group
প্রধান কার্যালয়MV49 Business Park Ciudad Lineal, Madrid, Spain[১]
গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি
  • Antonio Vázquez Romero
ওয়েবসাইটiberia.com

আইবেরিয়া, মাদ্রিদে অবস্থিত স্পেনের পতাকাবাহী একটি এয়ারলাইন, এটি তার প্রধান কেন্দ্র মাদ্রিদ-বারাজাস এয়ারপোর্ট এবং বার্সেলোনা এল প্রাট এয়ারপোর্ট হতে আন্তর্জাতিক রুটে বিমান পরিচালনা করে থাকে । আইবেরিয়া, আইবেরিয়া আঞ্চলিক(একটি স্বতন্ত্র এয়ার ক্যারিয়ার এয়ার নস্ট্রাম দ্বারা পরিচালিত) এবং আইবেরিয়া এক্সপ্রেস এর সাথে, আইবেরিয়া গ্রুপ এর একটি অংশ ।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

আইবেরিয়া এয়ার ট্রান্সপোর্ট কোম্পানি ১৯২৭ সালের ২৮ জুন তাদের যাত্রা শুরু করে । প্রথম ফ্লাইটটি পরিচালিত হয় ১৯২৭ সালের ১৪ ডিসেম্বর । এক বছরের মধ্যে কোম্পানিটি স্পেনিশ সরকারের স্পন্সরশীপ লাভ করে । ২০১০ সালের এপ্রিলে এটা নিশ্চিত হয় যে আইবেরিয়া এবং ব্রিটিশ এয়ারওয়েজ একত্রিত হতে যাচ্ছে ।[২] এদের উদ্দেশ্য ছিলো একত্রিত হওয়ার মাধ্যমে বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম এয়ারলাইনে পরিণত হওয়া ।

পরিচয় এবং কর্পোরেট বিষয়সমূহ[সম্পাদনা]

সদর দপ্তর[সম্পাদনা]

কোম্পানীটির সদর দপ্তর মাদ্রিদ এর এমভি৪৯ বিজনেস পার্ক এ অবস্থিত ।[৩][৪] সদর দপ্তরটি অ্যাভেনিদা ডি আমেরিকা ও এম-৩০ হাইওয়ে এর সংযোগস্থলের সন্নিকটে অবস্থিত । ২০১৩ সালে কোম্পানীটি অর্থ এর প্রধান কার্য্যালয় তার পূর্বের অবস্থান ভেলাজকুয়েজ ক্যাম্পাস, মাদ্রিদের সালামানকা জেলা থেকে এমভি৪৯ বিজনেস পার্ক এ স্থানান্তরিত করে ।[৫]

গণ্তব্যস্থলসমূহ[সম্পাদনা]

আইবেরিয়া ১৭টি অভ্যন্তরীণ গণ্তব্যস্থল এবং আফ্রিকা, আমেরিকা, এশিয়া এবং ইউরোপ মহাদেশের ৩৬টি দেশের ৬১টি আন্তর্জাতিক গণ্তব্যস্থলে (২০১৫ সালের ৫ জুলাই অনুসারে) এর বিমানসমূহ পরিচালনা করে থাকে ।[৬]

কোড শেয়ার এগ্রিমেন্ট[সম্পাদনা]

২০১৫ সালের ডিসেম্বর অনুযায়ী নিচের এয়ারলাইনগুলোর সাথে আইবেরিয়া এয়ারলাইন্সের কোড শেয়ার চুক্তি রয়েছে-

  • এয়ার বার্লিন
  • এয়ার বাল্টিক[৭]
  • আমেরিকান এয়ারলাইন্স
  • বুলগেরিয়া এয়ার
  • ব্রিটিশ এয়ারওয়েজ
  • ক্যাথি প্যাসিফিক
  • কোপা এয়ারলাইন্স
  • ইন্টারজেট
  • ল্যান এয়ারলাইন্স
  • মেরিডিয়ানা
  • এসসেভেন এয়ারলাইন্স
  • ইউক্রেন ইন্টারন্যাশনাল এয়ারলাইন্স
  • ভিউয়িলিং

পরিচালিত বিমানসমূহ[সম্পাদনা]

এয়ারবাস এ৩১৯-১০০, এয়ারবাস এ৩২০-২০০, এয়ারবাস এ৩২০নিও, এয়ারবাস এ৩২১-২০০, এয়ারবাস এ৩২১নিও, এয়ারবাস এ৩৩০-২০০, এয়ারবাস এ৩৩০-৩০০,এয়ারবাস এ৩৪০-৩০০, এয়ারবাস এ৩৪০-৬০০,এয়ারবাস এ৩৫০-৯০০ ইত্যাদি ।

সার্ভিসসমূহ[সম্পাদনা]

কেবিন[সম্পাদনা]

আন্তর্জাতিক দীর্ঘ ভ্রমণের ক্ষেত্রে আইবেরিয়া এয়ারলাইন্স দুই শ্রেণির কেবিন অফার করে থাকে । এগুলো হচ্ছে যথাক্রমে বিজনেস ক্লাস ও ইকোনমি ক্লাস । ২০০৯ সালের মার্চ মাসে আইবেরিয়া ঘোষণা করে যে, ২০০৯ থেকে ২০১১ সাল নাগাদ তারা তাদের দূরপাল্লার বিমানগুলোতে নতুন নতুন ধরনের বিজনেস ক্লাস সহ সকল বিমানের ইকোনমি ক্লাসগুলো আরও উন্নত ও মানসম্মত করবে । আইবেরিয়া বর্তমানে তিন শ্রেণির বিজনেস ক্লাস সুবিধা প্রদান করে থাকে ।

বিজনেস ক্লাস[সম্পাদনা]

বিজনেস ক্লাস সুবিধা স্পেনের অভ্যন্তরীণ ফ্লাইট এবং ইউরোপগামী ফ্লাইটগুলোতে পাওয়া যায় ।বিজনেস ক্লাস এর যাত্রীরা চেক-ইন, সিকিউরিটি, বোর্ডিং, ব্যাগেজ এবং লাউঞ্জ একসেস ইত্যাদির ক্ষেত্রে অধিক সুবিধা পেয়ে থাকে ।

বিজনেস ক্লাব[সম্পাদনা]

মধ্যম দূরত্বের গণ্তব্যস্থল যেমন-মিশর গায়ানা ইসরাইল নাইজেরিয়া রাশিয়া ইত্যাদি গণ্তব্যে যাত্রার ক্ষেত্রে বিজনেস ক্লাব সুবিধাটি পাওয়া যায় ।বিজনেস ক্লাব যাত্রীদের সেবার ক্ষেত্রে আরও অধিক আরামপ্রদ কেবিন ও সিট ব্যবস্থা এবং অডিও, ভিডিও ইত্যাদি সুবিধা প্রদান করা হয়ে থাকে ।

বিজনেস প্লাস[সম্পাদনা]

সাধারণত আমেরিকা অথবা দক্ষিণ আফ্রিকার মত দূর পাল্লার ফ্লাইটের ক্ষেত্রে এ সুবিধা লাভ করা যায় । বিজনেস প্লাস যাত্রীদের সর্বাধুনিক সেবা প্রদান করা হয়ে থাকে ।

ভ্রমণাবস্থায় ক্যাটারিং[সম্পাদনা]

আইবেরিয়া এয়ারলাইন্সের যাত্রীদের জন্য প্রথম শ্রেণীর খাবার নির্বাচিত হয় গেইট গুরমেন্ট নামক এয়ারলাইন ক্যাটারিং ফার্ম এর মাধ্যমে । অত্যন্ত উন্নতমানের এবং সুস্বাদু খাবার এবং পানীয় আইবেরিয়া এয়ারলাইন্স এর বিমানে ভ্রমণ অবস্থায় পরিবেশিত হয়ে থাকে ।

ভ্রমণাবস্থায় বিনোদন[সম্পাদনা]

সাধারনভাবে আইবেরিয়া এয়ারলাইন্সের যাত্রীদের আনন্দদায়ক ভ্রমণের লক্ষ্যে অডিও, ভিডিও, মিউজিক, গেমস ইত্যাদি বিনোদনের ব্যবস্থা রয়েছে । এছাড়াও বিভিন্ন ধরনের ম্যাগাজিনসহ যাত্রীদের ভ্রমনটি উপভোগ্য করে তোলার লক্ষ্যে বিভিন্ন বিনোদনের ব্যবস্থা রাখা হয় । এছাড়াও বিমানগুলোতে যাত্রীদের ইন্টারনেট ব্যবহারের জন্য ওয়াই-ফাই সুবিধা চালু রয়েছে ।

রেফারেন্স[সম্পাদনা]

  1. "Airline Membership"IATA। ১ মে ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৬ 
  2. "British Airways and Iberia sign merger agreement"। BBC News। ৮ এপ্রিল ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৬ 
  3. "BA Iberia merger gets approval from shareholders"BBC News। BBC News। ২৯ নভেম্বর ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৬ 
  4. "IAG shares begin trading, replacing BA and Iberia"। BBC News Online। ২৪ জানুয়ারি ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৬ 
  5. "Iberia to cut 4,500 staff and reduce fleet by 25 aircraft"। Flightglobal.com। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৬ 
  6. "Iberia Airlines Destination"। cleartrip.com। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৬ 
  7. "Iberia unveils new colour scheme"http://www.flightglobal.com/। Flightglobal.com। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০১৬  |কর্ম= এ বহিঃসংযোগ দেয়া (সাহায্য)