নায়াগ্রা জলপ্রপাত

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
নায়াগ্রার জলপ্রপাত তিনটির মধ্যে অন্যতম 'হর্স্‌শু ফল্‌স'

নায়াগ্রা জলপ্রপাত (ইংরেজি: Niagra Falls) উত্তর আমেরিকার নায়াগ্রা নদীর উপর অবস্থিত। মূলত তিনটি পাশাপাশি অবস্থিত ভিন্ন জলপ্রপাত নিয়ে নায়াগ্রা জলপ্রপাত গঠিত। এই তিনটি জলপ্রপাতের নাম: হর্স্‌শু ফল্‌স বা কানাডা ফল্‌স, আমেরিকান ফল্‌স এবং ব্রাইডাল ভিল ফল্‌স। নায়াগ্রা জলপ্রপাত যুক্তরাষ্ট্রকানাডার সীমান্তবর্তী অঞ্চলে অবস্থিত। হর্স্‌শু ফল্‌স এর আকার ঘোড়ার খুড়ের মতো। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের কারণে পর্যটকদের কাছে এটি একটি আকর্ষণীয় স্থান।

Onguiaahra শব্দ থেকে নায়াগ্রা কথাটির উৎপত্তি যার অর্থ জলরাশির বজ্রধ্বনি। [১]

১৮শতকের দিকে নায়াগ্রা জলপ্রপাতে পর্যটকদের আগমন শুরু হয়। ১৮৪৮ সালের মার্চ মাসে বরফের কারনে নায়াগ্রা জলপ্রপাত বন্ধ হয়ে গিয়েছিলো,৪০ ঘন্টা পর্যন্ত কোনো পানি পড়েনি। ফলে জলবিদ্যুৎ কারখানার চাকা বন্ধ হয়ে গিয়েছিলো,বিদ্যুতের অভাবে অনেক কারখানা বন্ধ হয়ে গিয়েছিলো।[২]

আমেরিকাতে জলপ্রপাতটি পিছন থেকে দেখতে হয়। কানাডাতে সরাসরি সামনে থেকে দেখা যায় ফলে সম্পুর্ন জলপ্রপাত ভালোমত দেখা যায়।হর্স্‌শু ফলস প্রায় ১৭৩ফুট(৫৩মিটার) উচু এবং ২৬০০ফুট(৭৯২মিটার) চওড়া। আমেরিকান ফলস ৭০ফুট(২১ মিটার) লম্বা এবং ১৬০০ ফুট(৩২৩ মিটার) চওড়া। বসন্তের শেষের দিকে বা গ্রীষ্মকালের শুরুতে জলপ্রপাত গুলো থেকে সেকেন্ডে ২০২,০০০০ ঘন মিটার পানি পতিত হয়।[৩] হর্স্‌শু ফলসে অবস্থিত বিশেষ গেটের সাহায্যে পানি প্রবাহ নিয়ন্ত্রন করে জলবিদ্যুৎ উৎপন্ন করা হয়। রাতে এবং শীতকালে পর্যটকহীন মৌসুমে পানি নিয়ন্ত্রণ করে সেকেন্ডে ৫০,০০০ ঘনফুটে নামিয়ে আনা হয়। ১৯৫০ সালের নায়াগ্রা চুক্তি অনুযায়ী পানির প্রবাহ নিয়ন্ত্রণ করা হয়। [৪]

কানাডা থেকে দেখা নায়াগ্রা জলপ্রপাত।
Magnify-clip.png
কানাডা থেকে দেখা নায়াগ্রা জলপ্রপাত।

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. http://www.niagarafrontier.com/faq.html
  2. http://www.wired.com/thisdayintech/2010/03/0330niagara-falls-stops
  3. [১] "Niagara Falls History of Power – Historical and engineering data on the U.S. and Canadian power stations". Retrieved 2006-09-24
  4. [২] "IJC – International Niagara Board of Control". Retrieved 2007-03-19.