কুষ্ঠ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
কুষ্ঠ
শ্রেণীবিভাগ এবং বহিরাগত রিসোর্স
নরওয়ের একজন চব্বিশ বছর বয়স্ক কুষ্ঠ রোগী, ১৮৮৬
আইসিডি-১০ A30.
আইসিডি- 030
ওএমআইএম 246300
রোগ ডাটাবেস 8478
মেডলাইনপ্লাস 001347
ইঔষধ med/1281 derm/223 neuro/187
মেএসএইচ D007918

প্ৰকারভেদ[সম্পাদনা]

কুষ্ঠরোগের কারণ মাইকোব্যাক্টেরিয়াম লেপ্রি ব্যাক্টেরিয়া। শরীর এর সংক্রমণকে কিভাবে বাধা দেবার চেষ্টা করছে তার উপর নির্ভর করে একে কয়েকটি ভাগে ভাগ করা হয়:

  • টিউবারকুলার লেপ্রসি
  • ইন্টারমিডিয়েট লেপ্রসি
  • লেপ্রোমাটাস লেপ্রসি

মাইকোব্যাক্টেরিয়াম লেপ্রি অপেক্ষাকৃত শীতল অঙ্গে বৃদ্ধি পায় (তাই চামড়া, নাক, ও টেস্টিসে হলেও অন্তর্বর্তী অঙ্গ যেমন ডিম্বাশয়ে সাধারণতঃ হয়না)। এই ব্যাক্টেরিয়া এখনো শরীরের বাইরে গজানো (কালচার করা) যায়নি। নটি ডোরা বিশিষ্ট আর্মাডিলো (nine banded armadillo) নামক প্রাণীর শরীরের অভ্যন্তর অপেক্ষাকৃত শীতল হওয়ায় এর পুরো শরীরে মাইকোব্যাক্টেরিয়াম লেপ্রি গজানো যায়। নতুবা ইদুরের পায়ের পাতায় এদের গজানো যায়। মাইকোব্যাক্টেরিয়াম লেপ্রি খুব ধীরে বৃদ্ধিপায় -ব্যাক্টেরিয়াদের মধ্যে এব্যাপারে ধীরতমদের অন্যতম: দ্বিগুণ হতে সময় লাগে এক সপ্তাহ

লক্ষণ ও উপসর্গ[সম্পাদনা]

কারণ[সম্পাদনা]

প্রতিরোধ[সম্পাদনা]

চিকিৎসা[সম্পাদনা]

সামাজিক দৃষ্টিকোণ[সম্পাদনা]

বিশ্ব কুষ্ঠ দিবস[সম্পাদনা]

আন্তর্জাতিক অঙ্গনে ছড়িয়ে-ছিটিয়ে থাকা কুষ্ঠ রোগে আক্রান্ত রোগীদের প্রতি করণীয় ও রোগ নিরূপণে সচেতনতা বৃদ্ধিতে প্রতি বছরের জানুয়ারি মাসের শেষ রবিবারে বিশ্বব্যাপী ১০০টিরও অধিক দেশে বিশ্ব কুষ্ঠ দিবস পালন করা হয়।[১]

তথসূত্র[সম্পাদনা]