বিশ্ব মেধা সম্পদ সংস্থার ভবিষ্যৎ বিষয়ে জেনেভা ঘোষণা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

বিশ্ব মেধা সম্পদ সংস্থার ভবিষ্যৎ বিষয়ে জেনেভা ঘোষণা হল ২০০৪ সালে বেশ কয়েকটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠান, কিছু বিজ্ঞানী, শিক্ষাবিদ এবং অন্যান্য ব্যক্তিদের দ্বারা স্বাক্ষরিত একটি নথি।[১] এটির মাধ্যমে তারা বিশ্ব মেধা সম্পদ সংস্থাকে উন্নয়নশীল দেশগুলির প্রয়োজনের দিকে মনোনিবেশ করার জন্য অনুরোধ করেন।

লেখক এবং স্বাক্ষরকারীরা বিশ্বাস করেন যে, অত্যাবশ্যকীয় ওষুধ ও শিক্ষায় অসম প্রবেশাধিকার, প্রতিযোগিতাবিরোধী অর্থনীতির অনুশীলন, মালিকানার একাগ্রতা, প্রযুক্তিগত নিয়ন্ত্রণ যেমন ডিজিটাল অধিকার ব্যাবস্থাপনা (ডিআরএম), লেখক ও নির্মাতাদের ন্যায্য ক্ষতিপূরণ নিয়ন্ত্রণ, এবং ব্যক্তিগত স্বার্থে পাবলিক ডোমেইন তালাবদ্ধ করে রাখাসহ ইত্যাদি বিভিন্ন কারণে "জ্ঞান, প্রযুক্তি এবং সংস্কৃতি পরিচালনার ক্ষেত্রে বিশ্ব একটি সংকটের মুখোমুখি হচ্ছে"।

ঘোষণাপত্রে "প্রায়শ পরিণতি বিবেচনা না করে একচেটিয়া সুযোগ তৈরি এবং সম্প্রসারণের সংস্কৃতি" গ্রহণের জন্য ডব্লিউআইপিও-র সমালোচনা করা হয়, এবং সংগঠনটিকে মানবতার উপকারের কথা মাথায় রেখে, মেধা সম্পদের উপর থেকে তাদের নীতি পরিবর্তন করার আহ্বান জানানো হয়। বিশেষ করে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং ইউরোপে বিদ্যমান বিধায়, সেই রকম করে উন্নয়নশীল বিশ্ব জুড়ে মেধা সম্পদ আইনের সমন্বয় সাধন করার প্রচলিত অভ্যাসের উপর স্থগিতাদেশ জারি করার আহ্বান জানানো হয়।

ফলস্বরূপ, ২০০৯ সালে "ডব্লিউআইপিও উন্নয়ন এজেন্ডা"য় জেনেভা ঘোষণার কিছু প্রস্তাবকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Geneva Declaration on the Future of WIPO"www.cptech.org। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১০-২৩ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]