গ্যাংরিন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
গ্যাংরিন
প্রতিশব্দগ্যাংরিনাস নেক্রোসিস
GangreneFoot.JPG
পেরিফেরাল ধমনী রোগের ফলে শুষ্ক গ্যাংরিন পায়ের আঙ্গুলকে প্রভাবিত করছে।
বিশেষত্বসংক্রামক রোগ, সার্জারি
লক্ষণলাল বা কালোতে ত্বকের রঙ পরিবর্তন, অস্থিরতা, ব্যথা, ত্বক ভাঙ্গন, শীতলতা[১]
জটিলতাসেপসিস, এম্পিউটেশন[১][২]
প্রকারভেদশুষ্ক, ভেজা, গ্যাসীয়, অভ্যন্তরীণ, নেক্রোটাইজিং ফ্যাসিাইটিস[৩]
ঝুঁকির কারণডায়াবেটিস, পেরিফেরাল ধমনী রোগ, ধূমপান, প্রধান ট্রমা, অ্যালকোহলিক, মহামারী, এইচআইভি/এইডস, ফ্রস্টবাইট, রেইনোডের সিন্ড্রোম, রেইনোডের সিন্ড্রোম[৩][৪]
রোগনির্ণয়ের পদ্ধতিলক্ষণের উপর ভিত্তি করে, অন্তর্নিহিত কারণ শনাক্ত করতে মেডিকেল ইমেজিং ব্যবহৃত হয়
চিকিৎসাঅন্তর্নিহিত কারণের উপর ভিত্তি করে[৫]
আরোগ্যসম্ভাবনানির্ভর করে
পুনরাবৃত্তির হারঅজানা[২]

গ্যাংরিন একটি গুরুতর ও সম্ভাব্য প্রাণঘাতী অবস্থা যা রক্ত সরবরাহের অভাবে শরীরের টিস্যু মারা গেলে সংঘটিত হয়।[৪] কোন আঘাত বা সংক্রমণের ফলে অথবা রক্ত সঞ্চালনের কোনো দীর্ঘস্থায়ী স্বাস্থ্য সমস্যা ভোগার ফলে এটি হতে পারে।[৬] গ্যাংরিন প্রাথমিক কারণ রক্ত সঞ্চালনের টিস্যুর কমে যাওয়া যেটি কোষের মৃত্যুর কারণ।[৭] ডায়াবেটিস ও দীর্ঘমেয়াদী ধূমপান গ্যাংরিনের ঝুঁকি বৃদ্ধি করে।[৬][৭]

বিভিন্ন ধরনের গ্যাংরিন বিদ্যমান যেমন শুকনো গ্যাংরিন, ভিজা গ্যাংরিন, গ্যাস গ্যাংরিন, অভ্যন্তরীণ গ্যাংরিন এবং নেক্রোটাইজিং ফেসসিটিস।[৬][৮] আক্রান্ত শরীরের চিকিৎসা গুলো হল অ্যান্টিবায়োটিক, রক্তনালী সার্জারি, ম্যাগগট থেরাপি বা হাইপারবারিক অক্সিজেন থেরাপি।[৯]

গ্যালারি[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:Cleanup-gallery

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; NHS2015Sym নামের সূত্রটির জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  2. উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; Pt2014 নামের সূত্রটির জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  3. উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; NHS2015Cau নামের সূত্রটির জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  4. "Gangrene"NHS। ১৩ অক্টোবর ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ১২ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  5. উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; NHS2015Tx নামের সূত্রটির জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  6. উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; nhsintro নামের সূত্রটির জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  7. "Gangrene – Causes"NHS Health A–Z। National Health Service (England)। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৬-১৫ 
  8. উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; Porth নামের সূত্রটির জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  9. "Gangrene – Treatment"NHS Health A–Z। National Health Service (England)। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৬-১৫