সাফারি পার্ক

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

সাফারি পার্ক হলো বন্য প্রাণীর জন্য এমন একটি উন্মুক্ত ক্ষেত্র, যেখানে প্রাণীরা খোলামেলাভাবে বিচরণ করতে পারে।

বৈশিষ্ট্য[সম্পাদনা]

সাফারি পার্ক একপ্রকারের অভয়ারণ্য। তবে অভয়ারণ্য, প্রাকৃতিকভাবে গড়ে ওঠা জঙ্গলকে কেন্দ্র করে গড়ে তোলা হয়। অপরদিকে সাফারি পার্ক মানুষ কৃত্রিমভাবে তৈরি করে নেয়। এখানে পশু ব্যবস্থাপনা প্রাকৃতিক পরিবেশে হবে, তবে মানুষের মাধ্যমে হবে। 'সাফারি' কথাটার অর্থই হলো 'কোনো দৃশ্যমান বেড়া নয়', অর্থাৎ সাফারি পার্কে এমনভাবে প্রাকৃতিকভাবে বেড়া তৈরি করা হয়, যা দেখলে বোঝাই যাবে না যে বেড়া রয়েছে। এরকম বেড়া খুব সাধারণ উপাদানেই তৈরি করা হয় এবং তৈরির পর তা গাছপালা, লতাপাতা দিয়ে ঢেকে দেয়া হয়।[১]

সাফারি পার্কে বন্যপ্রাণী থাকবে মুক্ত, দর্শনার্থী থাকবেন সুরক্ষিত। দর্শনার্থীরা প্রাণী দেখতে যাবেন সুরক্ষিত গাড়িতে চড়ে, প্রাকৃতিক রাস্তা দিয়েই। এমনকি বন্যপ্রাণীদের খাবারও দেয়া হবে সুরক্ষিত গাড়িতে করে।[১]

সাফারি পার্কে জিরাফ

নিয়মাবলী[সম্পাদনা]

সাফারি পার্কে দর্শনার্থীরা, প্রাণীদের খাবার দিতে পারবেন না। তবে অনেক সাফারি পার্কে প্রাণীদের খাবার দেবার ব্যবস্থা করে দেয় কর্তৃপক্ষ, তবে সেক্ষেত্রে খাবার কিনেও নিতে হবে পার্ক কর্তৃপক্ষের থেকে। কর্তৃপক্ষ হিসেব রাখবেন কোন প্রাণীকে দর্শনার্থীরা কতটুকু খাবার সরবরাহ করলেন, সেই অনুপাতে তার দৈনিক খাবার তালিকার প্রয়োজনীয় অবশিষ্টটুকু কর্তৃপক্ষ সরবরাহ করেন।[১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. ১.০ ১.১ ১.২ শেখ রোকন (২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১০ খ্রিস্টাব্দ)। "চিড়িয়াখানা গড়ার পিছনে স্বপ্ন থাকতে হয়" (php ওয়েবসাইট)। দৈনিক সমকাল (বাংলা ভাষায়) (ঢাকা)। সংগৃহীত ১৯ মার্চ ২০১০ খ্রিস্টাব্দ 

অতিরিক্ত পঠন[সম্পাদনা]

  • Jimmy CHIPPERFIELD, My Wild Life. Macmillan, London (1975). 219 p. ISBN 0-333-18044-5