ওয়াল্টার লিস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(Walter Lees থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ওয়াল্টার লিস
ওয়াল্টার লিস.png
ক্রিকেট তথ্য
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি মিডিয়াম-ফাস্ট
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক২ জানুয়ারি ১৯০৬ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা
শেষ টেস্ট৩০ মার্চ ১৯০৬ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ৩৬৪
রানের সংখ্যা ৬৬ ৭৬৪২
ব্যাটিং গড় ১১.০০ ১৭.১৩
১০০/৫০ -/- ২/১৭
সর্বোচ্চ রান ২৫* ১৩৭
বল করেছে ১২৫৬ ৬৯৭৭৮
উইকেট ২৬ ১৪০২
বোলিং গড় ১৭.৯৬ ২১.৪০
ইনিংসে ৫ উইকেট ৯৭
ম্যাচে ১০ উইকেট - ২০
সেরা বোলিং ৬/৭৮ ৯/৮১
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ২/- ১২৫/-
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

ওয়াল্টার স্কট লিস (ইংরেজি: Walter Lees; জন্ম: ২৫ ডিসেম্বর, ১৮৭৫ - মৃত্যু: ১০ সেপ্টেম্বর, ১৯২৪) ইয়র্কশায়ারের সোয়ারবি ব্রিজ এলাকায় জন্মগ্রহণকারী বিখ্যাত ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট তারকা ছিলেন। ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন। ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ইংরেজ কাউন্টি ক্রিকেটে সারে ক্লাবের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি মিডিয়াম-ফাস্ট বোলিং করতেন। এছাড়াও, নিচেরসারিতে ডানহাতে ব্যাটিংয়ে পারদর্শীতা দেখিয়েছেন ওয়াল্টার লিস

কাউন্টি ক্রিকেটে অংশগ্রহণ[সম্পাদনা]

২৫ ডিসেম্বর, ১৮৭৫ তারিখের বড়দিনে ইয়র্কশায়ারে ওয়াল্টার লিসের জন্ম। লন্ডনে তিনি ক্রিকেট খেলা শিখতে অংশগ্রহণ করেন। ১৮৭৬ সালে সারে দলের সদস্যরূপে খেলোয়াড়ী জীবন শুরু করেন। তবে প্রতিশ্রুতিশীল খেলোয়াড় হিসেবে নিজেকে তুলে ধরার জন্য পরের বছর পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয়। উইলিয়াম লকউডের দূর্বল ক্রীড়াশৈলীর কারণে দলে তিনি নিয়মিত সদস্যের মর্যাদা লাভ করেন। টম রিচার্ডসনের ব্যাপক সাফল্যলাভ স্বত্ত্বেও তিনি ৭৫ উইকেট লাভে সক্ষমতা দেখান। তবে কমপক্ষে দুইবার তাঁর বোলিং সারের জয়লাভে কিংবা খেলার মোড় ঘুরাতে পারেনি।

পরের বছরগুলোয় কম সফলতা লাভের ফলে পুণরুজ্জীবিত ঘটা লকউড ও বিল ব্রোকওয়েলের সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় অবতীর্ণ হতে হয়। ১৮৯৮ সালের শুরুতে দলের বাইরে অবস্থান করতে হয় ওয়াল্টার লিসকে। ১৯০০ সাল পর্যন্ত দলের নিয়মিত সদস্যরূপে ফিরে আসতে পারেননি। এ বছর হ্যাম্পশায়ারের বিপক্ষে ৮/৩১ বোলিং পরিসংখ্যান গড়েন। এরপর ল্যাঙ্কাশায়ারের বিপক্ষে নয় উইকেট নিয়ে দলের বিজয়ে প্রভূতঃ ভূমিকা রাখেন। তবে, ১৯০১ সালে পুণরায় নিরাশ করেন। এরপর ১৯০২ সালে বোলার সঙ্কটে ভোগা সারে দল থেকে সম্পূর্ণরূপে বিতাড়িত হন।

এর পরের বছর কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিপক্ষে তেরো উইকেট নিয়ে নিজের সক্ষমতার কথা জানান দেন। এরপরই কেবলমাত্র দলের অবিচ্ছেদ্য অঙ্গরূপে সারে একাদশে ঠাঁই হয় তাঁর। কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশীপের খেলায় মাত্র দুইবার পাঁচ উইকেট পেলেও ১০২ উইকেট লাভের পাশাপাশি আক্রমণধর্মী ব্যাটসম্যান হিসেবে আবির্ভূত হন। ববি অ্যাবল ও ব্রোকওয়েলের ঘাটতি পূরণে সচেষ্ট হন।

১৯০৫ সালে পূর্বেকার সাফল্যকে ছাঁপিয়ে যান। ইংল্যান্ডে তিনি শীর্ষ বোলারের ভূমিকায় অবতীর্ণ হন। দুইশত থেকে মাত্র সাতটি কম প্রথম-শ্রেণীর উইকেট নেন।[১] ঘরোয়া ক্রিকেটের সাফল্যের স্বীকৃতিস্বরূপ ১৯০৬ সালে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের জন্য মনোনীত হন। পূর্বেকার বছরের ব্যাটিংয়ের ন্যায় তাঁর ব্যাট টিকে থাকে। তাস্বত্ত্বেও মাত্র পঞ্চাশ মিনিটে হ্যাম্পশায়ারের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করেন। এক বছর পর পুণরায় সাসেক্সের বিপক্ষেও একই সাফল্য পান। ১৯০৬ সালে ১৬৮ উইকেট পেলেও নেভিল নক্সের প্রচণ্ড ক্ষীপ্রময় গতির কাছে ঢাকা পড়ে যান। তবে, পর্যবেক্ষকদের ধারনা ১৯০৫ সালের ন্যায় তাঁর বোলিং ছিল।[২] প্লেয়ার্সের সুপরিচিত খেলায় ওয়াল্টার লিস প্রত্যাশার তুলনায় অধিক ক্রীড়ানৈপুণ্য প্রদর্শন করে ছয় উইকেট পান। এছাড়াও, নক্স ও ওয়াল্টার ব্রিয়ারলির ন্যায় স্বীকৃতমানের পেশাদার ব্যাটসম্যানদের বিপরীতে ৫১ রান তুলে নিজেকে আরও পরিপক্ক করে তুলেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

১৯০৬ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পাঁচ টেস্টে অংশগ্রহণ করেন। ২ জানুয়ারি, ১৯০৬ তারিখে টেস্ট অভিষেক ঘটে তাঁর। জোহেন্সবার্গে সিরিজের প্রথম টেস্টে অভিষেক ঘটা ঐ খেলার প্রথম ইনিংসে তিনি পাঁচ উইকেট তুলে নেয়ার ন্যায় অনন্য সাধারণ কৃতিত্ব প্রদর্শন করেন।[৩]

অবসর[সম্পাদনা]

১৯০৭ সালে আঘাতের কবলে পড়েন ওয়াল্টার লিস। ফলে প্রায় এক মাস ক্রিকেটের বাইরে ছিলেন তিনি ও প্রতিনিধিত্বমূলক খেলায় অংশগ্রহণ করা থেকে বঞ্চিত হন। ১৯০৮ সাল থেকে খেলার ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে পারেননি। বোলিং ও ব্যাটিং - উভয় বিভাগেই এর প্রভাব পড়ে। ১৯০৯ সালে কিছুটা জ্বলে উঠলেও লিসের খেলার অবনতি ঘটতে শুরু করে। ১৯১০ সালে বিল হিচ ও টম রাসবি’র আগমনে সারে দল থেকে স্থানচ্যূত হন। ১৯১১ সালে কয়েক খেলায় অংশগ্রহণের পর লিস আর খেলায় অংশ নেননি।

ঘরোয়া ক্রিকেটে দূর্দান্ত ক্রীড়াশৈলী প্রদর্শনের প্রেক্ষিতে ১৯০৬ সালে উইজডেন কর্তৃক বর্ষসেরা ক্রিকেটার মনোনীত হন।[৪]

পঞ্চাশতম জন্মদিনের অল্প কয়েকদিন পূর্বে ৪৯ বছর বয়সে ১০ সেপ্টেম্বর, ১৯২৪ তারিখে কাউন্টি ডারহামের পশ্চিম হার্টলপুল এলাকায় দেহাবসান ঘটে তাঁর।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Wisden – Walter Lees
  2. Pardon, Sydney H. (editor); John Wisden’s Cricketers’ Almanack; Forty-Fourth Edition (1907), p. 47
  3. "1st Test: South Africa v England at Johannesburg, Jan 2-4, 1906"espncricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-১২-১৮ 
  4. Full List on Cricinfo, Retrieved 11 July, 2017.

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

  • Surrey County Cricket Club First-Class Records 1846-2000, Limited Overs Records 1963-2000, pub. Surrey County Cricket Club, 2001.