২০২২ নিউজিল্যান্ড পুরুষ ক্রিকেট দলের স্কটল্যান্ড সফর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
২০২২ নিউজিল্যান্ড পুরুষ ক্রিকেট দলের স্কটল্যান্ড সফর
Flag of Scotland.svg
স্কটল্যান্ড
Flag of New Zealand.svg
নিউজিল্যান্ড
তারিখ ২৭ জুলাই ২০২২ – ৩১ জুলাই ২০২২
অধিনায়ক রিচার্ড বেরিংটন মিচেল স্যান্টনার
একদিনের আন্তর্জাতিক সিরিজ
ফলাফল ১ ম্যাচের সিরিজে নিউজিল্যান্ড ১–০ ব্যবধানে জয়ী হয়
সর্বাধিক রান মাইকেল লিস্ক (৮৫) মার্ক চ্যাপম্যান (১০১)
সর্বাধিক উইকেট মাইকেল লিস্ক (২) মাইকেল ব্রেসওয়েল (৩)
জেকব ডাফি (৩)
টোয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক সিরিজ
ফলাফল ২ ম্যাচের সিরিজে নিউজিল্যান্ড ২–০ ব্যবধানে জয়ী হয়
সর্বাধিক রান ক্রিস গ্রিভস (৬৮) ফিন অ্যালেন (১০৭)
সর্বাধিক উইকেট গ্যাভিন মেইন (২)
হামজা তাহির (২)
ইশ সোধি (৫)

নিউজিল্যান্ড পুরুষ ক্রিকেট দল ২০২২ সালের জুলাই মাসে একটি একদিনের আন্তর্জাতিক (ওডিআই) ও দুটি টোয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক (টি২০আই) ম্যাচ খেলার জন্য স্কটল্যান্ড সফর করে।[১] সবগুলো ম্যাচ এডিনবরার দ্য গ্রেঞ্জ ক্লাব মাঠে অনুষ্ঠিত হয়।[২] ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজআয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সীমিত ওভারের সিরিজের পর এটি ছিল নিউজিল্যান্ডের ইউরোপ সফরের তৃতীয় অংশ।[৩]

টি২০আই সিরিজে নিউজিল্যান্ড ২–০ ব্যবধানে জয়ী হয়।[৪] একমাত্র ওডিআই ম্যাচেও নিউজিল্যান্ড জয়ী হয়।[৫]

প্রেক্ষাপট[সম্পাদনা]

২০২০ সালের জুন মাসে একটি একদিনের আন্তর্জাতিক (ওডিআই) ও একটি টোয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক (টি২০আই) ম্যাচ খেলার জন্য নিউজিল্যান্ড দলের স্কটল্যান্ড সফর করার কথা ছিল।[৬][৭] ২০০৮ সালের পর এটিই হত নিউজিল্যান্ডের প্রথম স্কটল্যান্ড সফর।[৮] একই মাসে তিনটি করে ওডিআই ও টি২০আই ম্যাচ খেলার জন্য নিউজিল্যান্ডের আয়ারল্যান্ড সফরেরও কথা ছিল।[৯] প্রাথমিকভাবে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে নিউজিল্যান্ডের শুধু একটি ওডিআই ম্যাচ খেলার কথা থাকলেও পরবর্তীতে ক্রিকেট স্কটল্যান্ড সিরিজের সূচিতে একটি টি২০আই ম্যাচ যোগ করে।[১০][১১] কিন্তু কোভিড-১৯ মহামারির কারণে ২০২০ সালের মে মাসে সফরটি স্থগিত করা হয়।[১২][১৩]

দলীয় সদস্য[সম্পাদনা]

 স্কটল্যান্ড  নিউজিল্যান্ড
ওডিআই[১৪] টি২০আই[১৫] ওডিআই ও টি২০আই[১৬][১৭]

চোটের কারণে অ্যাডাম মিলনা নিউজিল্যান্ডের দল থেকে ছিটকে যাওয়ায় তাঁর বদলি হিসেবে জেকব ডাফিকে দলে নেয়া হয়।[১৮]

টি২০আই সিরিজ[সম্পাদনা]

১ম টি২০আই[সম্পাদনা]

২৭ জুলাই ২০২২
১৪:৩০
স্কোরকার্ড
নিউজিল্যান্ড 
২২৫/৫ (২০ ওভার)
 স্কটল্যান্ড
১৫৭/৮ (২০ ওভার)
ফিন অ্যালেন ১০১ (৫৬)
রিচার্ড বেরিংটন ১/১৩ (১ ওভার)
ক্যালাম ম্যাকলাওড ৩৩ (২৪)
ইশ সোধি ৪/২৮ (৪ ওভার)
নিউজিল্যান্ড ৬৮ রানে জয়ী
দ্য গ্রেঞ্জ ক্লাব মাঠ, এডিনবরা
আম্পায়ার: অ্যালান হ্যাগো (স্কটল্যান্ড) ও রায়ান মিলনা (স্কটল্যান্ড)
ম্যাচসেরা: ফিন অ্যালেন (নিউজিল্যান্ড)
  • স্কটল্যান্ড টসে জিতে ফিল্ডিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • ফিন অ্যালেন (নিউজিল্যান্ড) টি২০আই ক্রিকেটে নিজের প্রথম শতরানের ইনিংস খেলেন।[১৯]

২য় টি২০আই[সম্পাদনা]

২৯ জুলাই ২০২২
১৪:৩০
স্কোরকার্ড
নিউজিল্যান্ড 
২৫৪/৫ (২০ ওভার)
 স্কটল্যান্ড
১৫২/৯ (২০ ওভার)
মার্ক চ্যাপম্যান ৮৩ (৪৪)
গ্যাভিন মেইন ২/৪৪ (৪ ওভার)
ক্রিস গ্রিভস ৩৭ (২৯)
জেমস নিশাম ২/৯ (১ ওভার)
নিউজিল্যান্ড ১০২ রানে জয়ী
দ্য গ্রেঞ্জ ক্লাব মাঠ, এডিনবরা
আম্পায়ার: ডেভিড ম্যাকলিন (স্কটল্যান্ড) ও রায়ান মিলনা (স্কটল্যান্ড)
ম্যাচসেরা: মার্ক চ্যাপম্যান (নিউজিল্যান্ড)
  • নিউজিল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • মাইকেল জোনস (স্কটল্যান্ড)-এর টি২০আই অভিষেক হয়।
  • এটি ছিল পুরুষ টি২০আই ক্রিকেটে নিউজিল্যান্ডের সর্বোচ্চ রানের ইনিংস।[২০]

একমাত্র ওডিআই[সম্পাদনা]

৩১ জুলাই ২০২২
১১:০০
স্কোরকার্ড
স্কটল্যান্ড 
৩০৬ (৪৯.৪ ওভার)
 নিউজিল্যান্ড
৩০৭/৩ (৪৫.৫ ওভার)
মাইকেল লিস্ক ৮৫ (৫৫)
মাইকেল ব্রেসওয়েল ৩/৪৩ (১০ ওভার)
নিউজিল্যান্ড ৭ উইকেটে জয়ী
দ্য গ্রেঞ্জ ক্লাব মাঠ, এডিনবরা
আম্পায়ার: অ্যালান হ্যাগো (স্কটল্যান্ড) ও ডেভিড ম্যাকলিন (স্কটল্যান্ড)
ম্যাচসেরা: মার্ক চ্যাপম্যান (নিউজিল্যান্ড)
  • স্কটল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • ডেন ক্লিভার (নিউজিল্যান্ড)-এর ওডিআই অভিষেক হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Scotland to host New Zealand for two T20Is, one ODI in July"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৬ মার্চ ২০২২ 
  2. "Scotland set up three matches against New Zealand in July"বিবিসি স্পোর্ট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৫ মার্চ ২০২২ 
  3. "New Zealand add Scotland fixtures to summer tour"দ্য ক্রিকেটার (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৫ মার্চ ২০২২ 
  4. "Ruthless New Zealand clinch series 2-0"ক্রিকবাজ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৯ জুলাই ২০২২ 
  5. "Chapman 101*, Mitchell 74* help New Zealand ace 307-run chase"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১ আগস্ট ২০২২ 
  6. "Scotland set to play home ODI against New Zealand for the first time since 1999"আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 
  7. "Scotland to host New Zealand for first time in 12 years"বিবিসি স্পোর্ট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 
  8. "Scotland to host BLACKCAPS for men's One Day International"ক্রিকেট স্কটল্যান্ড (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 
  9. "New Zealand Bready bound"ক্রিকেটইউরোপ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৪ অক্টোবর ২০১৯ 
  10. "Cricket Scotland announce fixtures against Australia and New Zealand"ক্রিকেট স্কটল্যান্ড (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৭ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  11. "Scotland to face New Zealand & Australia at The Grange in June"বিবিসি স্পোর্ট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৭ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  12. "Scotland announces delayed start to the domestic season, cancel regional competitions for 2020"ইমার্জিং ক্রিকেট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ মে ২০২০ 
  13. "Scotland v New Zealand games postponed amid coronavirus outbreak"বিবিসি স্পোর্ট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ মে ২০২০ 
  14. "Kyle Coetzer announces T20I retirement after giving up Scotland captaincy"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২১ জুলাই ২০২২ 
  15. "Scotland Men announce squad for New Zealand series"ক্রিকেট স্কটল্যান্ড (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২১ জুলাই ২০২২ 
  16. "Rippon earns first BLACKCAPS call up as white-ball squads named for Ireland, Scotland and Netherlands"নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট (ইংরেজি ভাষায়)। ২০ জুন ২০২২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০ জুন ২০২২ 
  17. "Michael Rippon gets Black Caps call-up as stars rested for white-ball tours"স্টাফ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২১ জুন ২০২২ 
  18. "Milne sidelined by Achilles injury, Duffy called into T20I squad"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৫ জুলাই ২০২২ 
  19. "Finn Allen 101, Ish Sodhi four-for silence jolted Scotland"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০২২ 
  20. "Mark Chapman, Michael Bracewell fifties propel New Zealand to record highs"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৯ জুলাই ২০২২ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]