হেলালুদ্দীন আহমদ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
হেলালুদ্দীন আহমদ
সিনিয়র সচিব
স্থানীয় সরকার বিভাগ
স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়
কাজের মেয়াদ
৩০ মে ২০১৯ – ২২ মে ২০২২
পূর্বসূরীএস এম গোলাম ফারুক
উত্তরসূরীমোহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী
সচিব
বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন সচিবালয়
কাজের মেয়াদ
৩০ জুলাই ২০১৭ – ২৯ মে ২০১৯
পূর্বসূরীমোহাম্মদ আবদুল্লাহ
উত্তরসূরীমোহাম্মদ আলমগীর
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম (1963-05-23) ২৩ মে ১৯৬৩ (বয়স ৫৯)
কক্সবাজার জেলা
জাতীয়তাবাংলাদেশী
প্রাক্তন শিক্ষার্থীচট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, ডিউক বিশ্ববিদ্যালয়
জীবিকাসাবেক সিনিয়র সচিব

হেলালুদ্দীন আহমদ একজন উচ্চপদস্থ বাংলাদেশি সাবেক সরকারী কর্মকর্তা যিনি সর্বশেষ স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এর পূর্বে তিনি বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের সচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।[১] তিনি ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পরিচালনা করেন।[২]

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

হেলালুদ্দীন আহমদ ১৯৬৩ সালের ২৩শে মে কক্সবাজার জেলায় জন্মগ্রহণ করেন।[৩] চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রাণিবিদ্যা স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ডিউক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ওরিয়েন্টেশন ডিগ্রি লাভ করেন।[৩]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

হেলালুদ্দীন আহমদ ১৯৮৮ সালের ফেব্রুয়ারিতে প্রশাসন ক্যাডারে বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসে প্রশাসন ক্যাডারে তথা বাংলাদেশ অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ সার্ভিস এ যোগদান করেন। তিনি ৭ম বিসিএস (১৯৮৫) ব্যাচের একজন কর্মকর্তা। [৩] কর্মজীবনের শুরুতে প্রথমে সহকারী কমিশনার হিসেবে কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে যোগদান করেন। পরবর্তীতে তিনি সিলেট সদর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি), সিলেট জেলার প্রথম শ্রেণীর ম্যাজিস্ট্রেট, ভূমি অধিগ্রহণ কর্মকর্তা, লামা উপজেলার উপজেলা ম্যাজিস্ট্রেট, রাঙ্গামাটি জেলার নেজারত ডেপুটি কালেক্টর এবং চট্টগ্রামের মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। পরবর্তীতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার হিসেবে চার উপজেলায়- রুমা উপজেলা, হাটহাজারী উপজেলা, পূর্বধলা উপজেলা এবং লামা উপজেলায় দায়িত্ব পালন করেন। তিনি হবিগঞ্জ জেলার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়রের একান্ত সচিব, জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা একাডেমীর উপপরিচালক, বাংলাদেশ চা বোর্ডের উপসচিব, বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। হেলালুদ্দীন আহমদ জেলা প্রশাসক ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে ফরিদপুর জেলায় কর্মরত ছিলেন।। এছাড়া বাংলাদেশ ওভারসিজ এমপ্লয়মেন্ট অ্যান্ড সার্ভিসেস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে নিয়োজিত ছিলেন। ২০১৩ সাল থেকে যথাক্রমে রাজশাহী ও পরে ২০১৬ সাল থেকে ঢাকা বিভাগের বিভাগীয় কমিশনার হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।[৩]

২০১৭ সালের ৩০ জুলাই বাংলাদেশ সরকার তাকে নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব হিসেবে দায়িত্ব প্রদান করে এবং ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ তারিখে সচিব মর্যাদায় পদোন্নতি প্রদান করে।[৪] ২০১৯ সালের ২৬ মে তাকে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের সচিব হিসেবে নিয়োগ প্রদান করা হয়।[৫] ২০২০ সালের ২৭ জানুয়ারি তিনি সিনিয়র সচিব হিসেবে পদোন্নতি লাভ করেন এবং আগের দপ্তরেই পদায়িত হোন।[৬] ২০২২ সালের ২২ মে তিনি সরকারী চাকুরি থেকে অবসরে যান।[৭]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

হেলালুদ্দীন আহমদ ব্যক্তিগত জীবনে বিবাহিত এবং তার এক পুত্র ও এক কন্যা রয়েছে।

সম্মাননা[সম্পাদনা]

হেলালুদ্দীন আহমদ ২০১৬ সালের ৬ই মার্চ শ্রেষ্ঠ বিভাগীয় কমিশনার হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে পুরস্কার গ্রহণ করেন। এছাড়াও ভূমি ব্যবস্থাপনায় বিশেষ অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ একই বছরের জুলাইয়ে শ্রেষ্ঠ বিভাগীয় কমিশনার হিসেবে পাবলিক সার্ভিস ইনোভেশন পুরস্কার লাভ করেন।[৩]

হেলালুদ্দীন আহমদ বাংলাদেশ অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ সার্ভিস এসোসিয়েশনের সাবেক সভাপতি।[৮]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "নির্বাচন কমিশনের নতুন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ"আরটিভি। ২০ জুলাই ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ৪ ডিসে ২০১৮ 
  2. প্রতিবেদক, নিজস্ব। "শান্তিপূর্ণ ও উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ: ইসি সচিব"প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৫-২৭ 
  3. http://www.ecs.gov.bd/page/honourable-secretary
  4. banglatribune.com (২০ জুলাই ২০১৭)। "নির্বাচন কমিশনের নতুন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ"Bangla Tribune। সংগ্রহের তারিখ ৪ ডিসে ২০১৮ 
  5. "ইসির হেলালুদ্দীন এখন স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম। সংগ্রহের তারিখ ২৬ মে ২০১৯ 
  6. "জ্যেষ্ঠ সচিব হলেন ৩ কর্মকর্তা"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমসংগ্রহের-তারিখ=২৭ জানুয়ারী ২০২০ 
  7. Dhakatimes24.com। "অবসরে গেলের স্থানীয় সরকার বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিব"Dhakatimes News। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০৫-১৯ 
  8. "এডমিনিস্ট্রেটিভ সার্ভিস এসোসিয়েশনে নতুন কমিটি | কালের কণ্ঠ"Kalerkantho। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৫-২৭