স্যামুয়েল গোল্ডউইন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
স্যামুয়েল গোল্ডউইন
Samuel Goldwyn - Jul 1919 EH.jpg
১৯১৯ সালে গোল্ডউইন
জন্ম
‍শ্মুয়েল গেল্‌বফিত্জ

(১৮৭৯-০৮-১৭)১৭ আগস্ট ১৮৭৯
ওয়ারশ, পোল্যান্ড রাজ্য, রুশ সাম্রাজ্য
মৃত্যু৩১ জানুয়ারি ১৯৭৪(1974-01-31) (বয়স ৯৪)
সমাধিফরেস্ট লন মেমোরিয়াল পার্ক, গ্লেনডেল, ক্যালিফোর্নিয়া
অন্য নামস্যামুয়েল গোল্ডফিশ, মিস্টার মালাপ্রপ
কার্যকাল১৯১৭-১৯৫৯
দাম্পত্য সঙ্গীব্ল্যাঞ্চ লাস্কি
(বি. ১৯১০; বিবাহবিচ্ছেদ ১৯১৫)

ফ্রান্সেস হাওয়ার্ড
(বি. ১৯২৫–১৯৭৪)
সন্তানস্যামুয়েল গোল্ডউইন জুনিয়র
আত্মীয়টনি গোল্ডউইন (নাতী)
জন গোল্ডউইন (নাতী)

স্যামুয়েল গোল্ডউইন (ইংরেজি: Samuel Goldwyn; জন্ম: শ্মুয়েল গেল্‌বফিত্জ (ইদ্দিস ভাষায়: שמואל געלבפֿיש); ১৭ই আগস্ট, ১৮৭৯ - ৩১শে জানুয়ারি, ১৯৭৪) হলেন একজন পোলীয় মার্কিন চলচ্চিত্র প্রযোজক। তিনি স্যামুয়েল গোল্ডফিশ নামেও পরিচিত। তিনি হলিউডে কয়েকটি চলচ্চিত্র স্টুডিওর প্রতিষ্ঠাতা সদস্য ও নির্বাহী হিসেবে দায়িত্ব পালনের জন্য বিশেষভাবে স্বীকৃত।[১] কর্মক্ষেত্রে তার অবদানের জন্য তিনি ১৯৪৭ সালে আরভিং জি. থালবের্গ স্মারক পুরস্কার, ১৯৫৮ সালে জঁ হার্শল্ট মানবহিতৌষী পুরস্কার, এবং ১৯৭৩ সালে গোল্ডেন গ্লোব সেসিল বি ডিমিল পুরস্কার লাভ করেন।[২]

জীবনী[সম্পাদনা]

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

শ্মুয়েল গেল্‌বফিত্জ[ক] ১৮৭৯ সালের ১৭ই আগস্ট তৎকালীন রুশ সাম্রাজ্যের পোল্যান্ড রাজ্যের ওয়ারশতে এক পোলীয় ইহুদি পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা আরন দাভিদ গেল্‌বফিত্জ (১৮৫২-১৮৯৫) ছিলেন একজন ফেরিওয়ালা এবং তার মা হান্না রেবান (জন্মনাম: জারেকা; ১৮৫৫-১৯২৪)।[৩] তিনি তার শৈশবে পরিবারের সাথে পায়ে হেঁটে এবং কোনো প্রকার অর্থ ছাড়াই তিনি ওয়ারশ ছেড়ে ইংল্যান্ডের বার্মিংহামে চলে যান। তিনি সেখানে স্যামুয়েল গোল্ডফিশ নাম ধারণ করে তার আত্মীয়দের সাথে বসবাস করেন। তার ১৬ বছর বয়সে তার পিতা মারা যান।

১৮৯৮ সালে তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে চলে যান, কিন্তু প্রবেশাধিকারে বাধা আসতে পারে ভেবে তিনি প্রথমে নৌকায় করে কানাডার নোভা স্কটিয়ায় যান। পরে ১৮৯৯ সালের জানুয়ারি মাসে তিনি নিউ ইয়র্ক রাজ্যে যান। তিনি নিউ ইয়র্কের গ্লোভারসভিলের আপস্টেটে একটি কাপড়ের ব্যবসায়ের সাথে জড়িত হন। অচিরেই তার সহজাত বিপণন দক্ষতা তাকে এলিট গ্লোভ কোম্পানির একজন সফল বিক্রয়কর্মী হতে সাহায্য করে। চার বছর পর তিনি সালেসের সহ-সভাপতির দায়িত্ব নিয়ে নিউ ইয়র্ক সিটিতে ফিরে আসেন এবং টেন ওয়েস্ট সিক্সটি ফার্স্ট স্ট্রিটে বসবাস শুরু করেন।[৪]

বিবাহ[সম্পাদনা]

গোল্ডউইন ১৯১০ সালে ব্ল্যাঞ্চ লাস্কিকে বিয়ে করেন। লাস্কি ছিলেন জেসি এল. লাস্কির বোন। তাদের এক কন্যা সন্তান জন্ম নেয়, নাম রুথ। ১৯১৫ সালে তাদের বিবাহবিচ্ছেদ হয়। ১৯২৫ সালে তিনি অভিনেত্রী ফ্রান্সেস হাওয়ার্ডকে বিয়ে করেন। তাদের পুত্র স্যামুয়েল গোল্ডউইন জুনিয়র পরবর্তী কালে তার ব্যবসায়ের দেখাশুনা করেন।

মৃত্যু[সম্পাদনা]

গোল্ডউইন ১৯৭৪ সালের ৩১শে জানুয়ারি লস অ্যাঞ্জেলেসে মৃত্যুবরণ করেন। তাকে ক্যালিফোর্নিয়ার গ্লেনডেলের ফরেস্ট লন মেমোরিয়াল পার্কে সমাহিত করা হয়। ১৯৮০'র দশকে স্যামুয়েল গোল্ডউইন স্টুডিও ওয়ার্নাস ব্রসের নিকট বিক্রি করে দেওয়া হয়। বেভারলি হিলসে তার নামানুসারে স্যামুয়েল গোল্ডউইন থিয়েটার নামে একটি থিয়েটার রয়েছে, এবং তিনি ১৯৬০ সালের ৮ই ফেব্রুয়ারি চলচ্চিত্রে তার অবদানের জন্য ১৬৩১ ভাইন স্ট্রিটে হলিউড ওয়াক অব ফেমে তার নামে একটি তারকা খচিত হয়।[৫][৬]

টীকা[সম্পাদনা]

  1. The sz-spelling is a not-uncommon Polish transliteration for the Yiddish sh-sound, which only requires a single letter in that language

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "অবিচুয়ারি", ভ্যারাইটি, ৬ ফেব্রুয়ারি ১৯৭৪, পৃ. ৬৩।
  2. Jang, Meena (৩১ জানুয়ারি ২০১৫)। "Samuel Goldwyn: Remembering the Movie Mogul on the Anniversary of His Death"দ্য হলিউড রিপোর্টার (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ 
  3. "Goldwyn" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ 
  4. A. Scott Berg, Goldwyn, a Biography
  5. "Samuel Goldwyn | Hollywood Walk of Fame"www.walkoffame.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ 
  6. "Samuel Goldwyn"লস অ্যাঞ্জেলেস টাইমস (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:স্যামুয়েল গোল্ডউইন