সুধীর কান্ত অধিকারী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সুধীর কান্ত অধিকারী
জন্ম১৯১৫
দক্ষিণ দিনাজপুর, পশ্চিমবঙ্গ
মৃত্যু২০০২

সুধীর কান্ত অধিকারী (১৯১৫ - ২০০২) একজন ভারতীয় সশস্ত্র সংগ্রামশীল বিপ্লবী যিনি ভারতীয় স্বাধীনতা আন্দোলনের সক্রিয় নেতা ছিলেন। ব্রিটিশ বিরোধী অনুশীলন সমিতি সংগঠনের সদস্য ছিলেন। তিনি ব্রিটিশ শাসকদের কাছে বিপজ্জনক বলে চিহ্নিতকরা হয়েছিলেন এবং তিনি বিহারের বক্সার জেল, দিনাজপুর এবং বেশ কয়েকটি বন্দীশালায় অন্তত দশ বছরের বেশি বন্দী ছিলেন। তিনি ১৯৪৭ সালে ভারতের স্বাধীনতায় মুক্তি পেয়েছিলেন।[১]

সুধীর কান্ত অধিকারীকে নিউ ইউনিয়ন অফ ইন্ডিয়া থেকে স্বাধীনতা সংগ্রামী হিসাবে তাম্রপত্র সম্মানিত করা হয়েছিল এবং কেন্দ্রীয় সরকার এবং পশ্চিমবঙ্গ সরকার উভয়ের কাছ থেকে স্বাধীনতা সংগ্রামী পেনশন পান তিনি। স্বাধীনতার পরে তিনি রাজনীতি থেকে অবসর গ্রহণ করেন এবং হরিরামপুর এর স্কুলের শিক্ষক হিসাবে নিযুক্ত হন। তিনি হরিরামপুরে সমাজ সেবক হিসাবে প্রচুর কাজ করেছিলেন। তিনি হরিরামপুরের একটি গ্রন্থাগারে ইংরেজি মাধ্যম বিদ্যালয় স্থাপনে সহায়তা করেছিলেন এবং এর পরিবর্তে কিছু প্রত্যাশা না করে হরিরামপুরের প্রায় সকল উন্নয়নমূলক কাজেও অবদান রেখেছিলেন।

তিনি ৮৭ বছর বয়সে মারা যান,[১] তাঁর স্ত্রী মাধুরী অধিকারী, তিনিও স্বাধীনতা সংগ্রামী ছিলেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "sudhir kanta adhikary bio by drparames1000 on DeviantArt"www.deviantart.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৩-১২ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

https://books.google.co.in/books/about/Anushilan_Samiti.html?id=JbzibwAACAAJ&redir_esc=y